ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯, ১২ চৈত্র ১৪২৫, ১৮ রজব ১৪৪০ হিজরী।

সারা বাংলার খবর

কোকাকোলার বিজ্ঞাপনে ভাষার বিকৃতি কেন অবৈধ নয় : হাইকোর্টের রুল

কোকাকোলার বিজ্ঞাপনে ভাষার বিকৃতি কেন অবৈধ নয়

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ মার্চ, ২০১৯, ১২:২৬ এএম

বাংলা ভাষার অশ্লীল বা বিকৃত শব্দ ব্যবহার করে বিজ্ঞাপন প্রচার করায় কোকাকোলা কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে কেন আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করার নির্দেশ দেয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে এসব অশ্লীল ও বিকৃত শব্দের ব্যবহার কেন অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না রুলে তাও জানতে চাওয়া হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিচারপতি এফআরএম নাজমুল আহাসান ও বিচারপতি কে এম কামরুল কাদেরের বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে তথ্য সচিব, শিল্প সচিব, সংস্কৃতি সচিব, আইন সচিব, শিক্ষা সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব, বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক, পুলিশের মহাপরিদর্শক, ইন্টারন্যাশনাল বেভারেজেসের ব্যবস্থাপনা পরিচালককে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. মনিরুজ্জামান রানা। অপরদিকে কোকাকোলার পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মোস্তাফিজুর রহমান, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুর্টি অ্যাটর্নি জেনারেল ব্যারিস্টার এবিএম আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ বাশার।
মো. মনিরুজ্জামান রানা বলেন, কোমল পানীয় কোকা-কোলার বোতলের বিজ্ঞাপনে ‘জটিল, চরম, মাথা নষ্ট, বাবু, ঢিলা, ফাঁপর, জান, গুটি, গাব, আগুন, কড়া, অস্থির, পার্ট, প্যারা, ব্যাপক, যা-তা’ এর মতো বাংলা শব্দের ব্যবহার বন্ধে সংশ্লিষ্ট বেঞ্চ থেকে অনুমতি নিয়ে চন্দন চন্দ্র সরকারের পক্ষে এই রিট আবেদন করেছিলাম। ওই রিটের শুনানি শেষে আদালত রুল জারি করেন। তিনি আরো বলেন, এ শব্দগুলো বোতলে বিজ্ঞাপন দিয়ে তারা প্রচার করছে, এটা আপত্তিজনক। আমরা চাই এ ধরনের শব্দের ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে। কারণ একটা শিশু দোকানে গিয়ে বলছে আমাকে একটা প্যারা দেন। একটা মাথা নষ্ট দেন। এটার তো নেগেটিভ ইম্প্যাক্ট হচ্ছে। তাই এটার ব্যবহার বন্ধ করতে হবে। এ কারণেই রিট আবেদন করা হয়েছে।

 

সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন