বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১২ কার্তিক ১৪২৮, ২০ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

পটিয়া খরনা সড়কে খানাখন্দ চলাচলে দুর্ভোগ

| প্রকাশের সময় : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, ১২:০০ এএম

পটিয়া (চট্টগ্রাম) উপজেলা সংবাদদাতা : পটিয়া উপজেলার খরনা ইউনিয়ন পরিষদ সড়কের কার্পেটিং উঠে গিয়ে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। যার ফলে যানবাহন চলাচল ও লোকজন চলাফেরা করতে গিয়ে নিদারুন দুর্ভোগের শিকার হয়েছে।
পটিয়া খরনা ইউ.পি সড়ক দিয়ে বৃটিশ আমলে ইংরেজরা পটিয়া চা বাগানে যাতায়াত করত। বর্তমানে চা বাগানাটি বিলুপ্ত হয়ে গেছে। চা বাগানের কারনে পটিয়া খরনা ইউ.পি সড়কটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ ছিল। এ সড়কের সাথে লালারখীর, ফকিরপাড়া, মাঝিরপাড়া, কইস্যাপাড়া, ওয়াহিদুরপাড়া, গ্রামের সাথে প্রায় ৫ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে যোগাযোগ রয়েছে। মুজাফরাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়, মুজাফরাবাদ কলেজ, দক্ষিণ খরনা, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহ বেশ কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী এ সড়ক দিয়ে চলাচল করে। পটিয়ার ১৭ ইউনিয়নের মধ্যে সিংহভাগ শাক-সবজি খরনা গ্রাম হতে উৎপন্ন হয়। এখানে উৎপাদিত শাক-সবজি এ সড়ক দিয়ে পরিবহন করা হয়। খরনা ইউনিয়ন পরিষদে ও খরনা ভূমি অফিসে বিভিন্ন অফিসিয়াল লোকজন কর্মকর্তা বিভিন্ন পেশার লোক এ সড়ক দিয়ে যাতায়াত করতে হয়। এ সড়কের গুরুত্ব বিবেচনা করে ১৯৯২ সালে তৎকালীন বিএনপির সংসদ সদস্য মরহুম শাহ নেওয়াজ চৌধুরী মন্টু খরনা ইউপি সড়কটিতে কার্পেটিং এর ব্যবস্থা করেন। ১৯৯৮ সালে আওয়ামীলীগ সরকারের সময়ে এ সড়কের আরো কিছু অংশ বৃদ্ধি করে কার্পেটিং সহ সড়কের সংস্কার কাজ করা হয়। ২০০৫ সালে বিএনপি সরকারের আমলে সড়কটিতে পুনরায় কার্পেটিং কাজে সংস্কার করা হয়। কিন্তু বিগত ১৪ বছর ধরে এই সড়কের আর কোন সংস্কার কাজ না করায় সড়কটি অবহেলিত হয়ে পড়ে। বর্তমানে সড়কের বেশ কিছু অংশে দু’পাশে রাস্তার মাটি সরে গিয়ে কার্পেটিং ভেঙ্গে ও উঠে যাওয়ায় যানবাহন চলাচল ও লোকজন চলাচলে দুর্ভোগের শিকার হয়েছে। বর্ষা মৌসুমে এ দুর্ভোগ আরো চরম পর্যায়ে পৌছবে বলে এলাকার লোকজনের ধারণা। এ ব্যাপারে খরনা ইউ.পি চেয়ারম্যান মাহাবুবুর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান সড়কটির বিষয়ে মাননীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরীকে অবগত করা হয়েছে। আগামী বাজেটে বরাদ্ধ পেলে সড়ক সংস্কারের কাজ করা হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন