ঢাকা, বুধবার, ০৫ আগস্ট ২০২০, ২১ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

রায়গঞ্জের বাঁশের সাঁকো

৫০ গ্রামের মানুষের পারাপারের ভরসা

সিরাজগঞ্জ জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৭ এপ্রিল, ২০১৮, ১২:০০ এএম

সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলার নলকা ইউনিয়নের সাহেবগঞ্জের ফরিদপুরের ৫০ গ্রামের লক্ষাধিক মানুষের পারাপারের একমাত্র ভরসা বাঁশের সাঁকো। উপজেলার সাহেবগঞ্জ, ফরিদপুর গ্রামের পাশ দিয়ে প্রবাহমান ফুলজোড় নদী। সাহেবগঞ্জ ও ফরিদপুর এলাকায় নদী পারাপারের জন্য এলাকাবাসী সেমাউল, উন্নয়ন কমিটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সহযোগিতায় প্রায় লক্ষাধিক টাকা ব্যয়ে নির্মাণ করেছে এই বাঁশের সাঁকো। প্রতিদিন সাঁকো দিয়ে রিক্সা, ভ্যান, বাই সাইকেল, মোটর সাইকেল ও হাজার হাজার মানুষ পারাপার হয়। বিশেষ করে নদীর এপাড় থেকে ওপাড়ে মাদ্রাসা, হাই স্কুল এবং প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ কওমি মাদ্রাসায় যাতায়াতের জন্য ভরা বর্ষা মৌসুমে জীবনের তাগিদে ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হতে হয়। এই খেয়া ঘাটটি প্রতিবছর উপজেলার নলকা ইউনিয়নের পক্ষ থেকে ইজারা দেয়া হয়। ফলে পারাপারের জন্য নির্দিষ্ট হারে টাকা দিতে হয় সবাইকে। নলকা ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুর জাব্বার জানান, দীর্ঘ ২৬ বছরের বেশি সময় ধরে উপজেলার প্রায় ২৫-৩০ হাজার মানুষ এই ঘাট দিয়ে পারাপার হয়। প্রথমে ছোট ডিঙ্গি নৌকা নিয়ে শুধু মানুষ পারাপার হতো ডিঙি নৌকায় কৃষি পণ্যসহ অন্যান্য মালপত্র পারাপার করা সম্ভব হত না। পরে স্থানীয় জণগনের সহযোগিতায় বাঁশের সাঁকো তৈরি করা হয়। তৈরির পর বাঁশের সাঁকোটি উদ্বোধন করেন, সিরাজগঞ্জের জেলা প্রশাসক কামরুন্নাহার সিদ্দিকা। এরপর থেকে প্রতি বছর বর্ষা মৌশুমের শুরুতে এলাকাবাসীর সহযোগিতায় বাঁশের সাঁকো সংস্কার করে পারপারের ব্যবস্থা করা হয়। এলাকাবাসী বলেন, বর্তমান সরকার দেশের বড় বড় নদীতে সেতু তৈরি করছে। মানুষের প্রয়োজনে রায়গঞ্জের ফুলজোড় নদীর ওপর ৮’শ মিটার দীর্ঘ সেতু তৈরি করে উপজেলার প্রায় লক্ষাধিক মানুষের দীর্ঘদিনের প্রত্যাশাও নিশ্চয় পূরণ করবে সরকার। উপজেলা প্রকৌশলী মো. বাছেদ ভুইয়ার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, উপজেলায় যোগদানের পর বিভিন্ন বড় বড় প্রকল্পের প্রস্তাবনা উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ করেছি। তিন নান্দিনা নদী এবং সাহেবগঞ্জ জিআর কলেজ সংলগ্ন দুটি প্রকল্প প্রস্তাবনার উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ করা হয়েছে। এর মধ্যে সাহেবগঞ্জ জিআর কলেজ সংলগ্ন ফুলজোড় ৮’শ মিটার সেতুর স্থান ঢাকার একটি প্রতিনিধি দল পরিদর্শন করেছেন। এ ছাড়াও এলাকার সংসদ সদস্য, উপজেলা প্রশাসন, স্থানীয় জণপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় নলকা ইউনিয়নের সাহেবগঞ্জ জিআর কলেজ সংলগ্ন ফুলজোড় নদীর ওপর একটি সেতু নির্মাণ এলকাবাসীর দীর্ঘদিনের প্রত্যাশা। এ নদীর ওপর সেতু নির্মাণ হলে এলাকার উভয় পাশের বিশ্বরোড সংলগ্ন প্রায় লক্ষাধিক লোকের অল্প সময়ে এলাকার বিভিন্ন গ্রামে যাতায়াতের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন