ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

মুমিনুলে আস্থা রোডসের

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১২:০১ এএম

‘আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাটিং করার ক্ষমতা নেই মুমিনুল হকের’, কথাটি সাবেক বাংলাদেশি কোচ চন্দ্রিকা হাথুরুসিংহের। সীমিত ওভারে তাকে জায়গা তো দেনইনি, চেয়েছিলেন টেস্ট দল থেকেও বাদ দিতে। সেই মুমিনুলই এবার আছেন নতুন কোচ স্টিভ রোডসের দলে। এমনকি তার উপর পূর্ণ আস্থা রয়েছে বলেও জানালেন এ ইংলিশ।

টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান মুমিনুল। এ সংস্করণে নিজেকে প্রমাণ করতে পারায় ওয়ানডেতেও ভালো খেলবেন বলে বিশ্বাস করেন রোডস, ‘টেস্ট ক্রিকেটে মুমিনুলের দারুণ সাফল্য আছে। তার রেকর্ড দুর্দান্ত। সে প্রমাণ করেছে সে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে পারে। আমি খুবই খুশি যে সে ওয়ানডে স্কোয়াডে ফিরে আসতে পেরেছে। যদি আপনি ভালো খেলোয়াড় হন আপনি সকল সংস্করণেই খেলতে পারবেন। আমার বিশ্বাস সে পারবে।’

ইনজুরির কারণে এশিয়া কাপ শেষ দেশ সেরা ওপেনার তামিম ইকবালের। তার জায়গায় কে খেলবেন এ নিয়ে আলোচনা বাড়ছেই। মুমিনুল আছে সম্ভাব্য তালিকার শুরুতেই। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে তার অভিজ্ঞতাই তাকে এগিয়ে রেখেছে। তবে মুমিনুল ছাড়াও তরুণ নাজমুল হোসেন শান্ত দলের সঙ্গে আছেন বিকল্প ওপেনার হিসেবে, ‘শান্ত ভিন্ন ধরণের খেলোয়াড়। তবে খুব বেশি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলেনি। মুমিনুলের মতো সে ভিন্ন জায়গায় আছে। তবে ব্যাপার হলো সে তার আত্মবিশ্বাস কাজে লাগায় এবং সে গত কয়েক মাসে অনেক উন্নতি করেছে। সে যদি সুযোগ পায়, সে কিংবা মিনি যে কেউ কাজটা করতে পারবে।’

এছাড়া অলরাউন্ডার আরিফুল হকও ভালোই পারেন ব্যাটিংটা। তিনি দলে থাকলে মোহাম্মদ মিঠুনকে হয়তো দেখা যেতে পারে ওপেনিংয়ে। রোডসের ভাষায়, ‘বিকল্প হিসেবে আমাদের দুইজন ব্যাটসম্যানের সঙ্গে আরিফুলও আছে যে কিনা ব্যাট করতে পারে। শান্ত, মুমিনুলকে নিয়ে আমরা ভালো অবস্থানে আছি যারা তামিমের জায়গা পূরণ করতে পারে। দুইজনেরই সামর্থ্য আছে।’

এদিকে, চোটের কারণেই আফগানিস্তানের বিপক্ষে বিশ্রাম পেতে পারেন প্রথম ম্যাচের নায়ক মুশফিকুর রহিম। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুর্দান্ত সেঞ্চুরির ম্যাচে খেলেছেন পাঁজরে ব্যথা নিয়ে। গ্রæপের শেষ ম্যাচে যেহেতু হিসাব-নিকাশ আছে খুব সামান্যই, আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটিতে তাই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যানকে বিশ্রাম দেওয়ার কথা ভাবছে দল।

মুশফিক না খেললে মুমিনুল ও আরিফুল হকের একজন ঢুকবেন একাদশে। আপাতত মিলছে মুমিনুলের ব্যাটে ভরসার ওজন রাখার ইঙ্গিত। চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে ম্যাচের আগে। মুমিনুল ফিরলে তার জন্যও এটি একরকম শুরুর মতোই। ২৬টি ওয়ানডে খেলেছেন বটে, তবে শেষটি সেই ২০১৫ বিশ্বকাপে। গত কয়েক বছরে তার ওয়ানডে ক্যারিয়ারে জমেছে ধুলোর স্তর। একদিক থেকে তাই মুমিনুলের কাজটা বেশি কঠিন। তাকে লড়াই করতে হবে নিজের অতীতের সঙ্গে। নিজেকে চেনাতে হবে নতুন করে।

কোচ রোডস রোমাঞ্চিত দুজনকে নিয়েই। বাংলাদেশের কোচ হয়ে আসার পর শুরুর সময়টাতেই মুমিনুলকে বেশ মনে ধরেছিল কোচের। তবে দল সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলোর খবর, ক্রমে তার আগ্রহ বেশি জমেছে শান্তকে ঘিরেই। বাংলাদেশের ইংলিশ কোচের সবচেয়ে প্রিয় ছাত্রদের একজন ২০ বছর বয়সী শান্ত।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন