ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ২৯ আশ্বিন ১৪২৬, ১৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

আজ গণমানুষের কাক্সিক্ষত ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ইত্যাদি

প্রকাশের সময় : ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : আজ বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে একযোগে প্রচার হবে গণমানুষের পরম কাক্সিক্ষত ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান হানিফ সংকেতের ইত্যাদি। এবারের ইত্যাদি ধারণ করা হয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জে হর্টিকালচার সেন্টারের অভ্যন্তরে আম্রকাননে। আম্রকাননেই আমাদের ইতিহাসের নানা গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা ঘটেছে। শুধু তাই নয়-আমাদের অনেক আন্দোলন, সংগ্রামের সিদ্ধান্তও হয়েছে আমতলাতে। এছাড়া এখন চলছে আমের মৌসুম। আর সেই আমের রাজধানীও হচ্ছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ। ইত্যাদি যে স্থানেই ধারণ করা হয় তুলে ধরা হয় সেই স্থানের অনেক তথ্য। যা পরবর্তীতে আর্কাইভে সংগৃহীত হয়। অনুষ্ঠানে প্রায় পঞ্চাশ হাজার দর্শক উপস্থিত ছিলেন। আমন্ত্রিত দর্শক ছাড়াও হাজার হাজার মানুষ প্রচÐ গরমের মধ্যেও আশপাশের রাস্তায় ও বিভিন্ন গাছের ওপর বসে ‘ইত্যাদি’র ধারণ উপভোগ করেন। ইত্যাদির ধারণ উপলক্ষে ধারণস্থানের আম বাগানকে সাজানো হয়েছিল বর্ণিল সাজে। শেকড় সন্ধানী ইত্যাদিতে সবসময়ই দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে প্রচার বিমুখ, জনকল্যাণে নিয়োজিত মানুষদের খুঁজে এনে তাদের বিভিন্ন কর্মকাÐ তুলে ধরা হয়। যাতে তাদের এসব কাজ দেখে অন্যরাও অনুপ্রাণিত হতে পারেন। তাছাড়া ইত্যাদি মনে করে, যারা কাজ করেন তারা প্রচার কাঙ্গাল হন না। তাদের কর্মই বলে দেয় তিনি কি করছেন। এবারের পর্বেও রয়েছে তেমনি কয়েকটি হৃদয় ছোঁয়া প্রতিবেদন। তবে অনুষ্ঠানের নিয়ম অনুযায়ী শুরুতেই থাকছে অনুষ্ঠান ধারণস্থান চাঁপাইনবাবগঞ্জ এবং আম নিয়ে দু’টি তথ্যবহুল ইত্যাদি প্রতিবেদন। রয়েছে ফজলে রাব্বী রবিন নামে এক যুবকের সর্পপ্রীতির উপর একটি সচেতনতামূলক প্রতিবেদন। রয়েছে খুলনার ফুলতলা উপজেলার প্রচার বিমুখ, অসহায় ও দরিদ্র মানুষের সেবায় নিবেদিত প্রাণ, শিক্ষানুরাগী মানুষ জনাব কুতুবুদ্দিন আহমেদ এর ওপর একটি শিক্ষামূলক প্রতিবেদন। এবারের বিদেশি প্রতিবেদন করা হয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জের পাশে অবস্থিত অষ্টাদশ শতাব্দীতে বাংলার নবাবদের আবাসস্থল পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মুর্শিদাবাদে। এই প্রতিবেদনে জানা যাবে নবাবদের নানা বিচিত্র ঘটনা। চাঁপাইনবাবগঞ্জকে নিয়ে মোহাম্মদ রফিকউজ্জামান এর লেখা ও হানিফ সংকেতের সুরে একটি গানের সঙ্গে স্থানীয় প্রায় শতাধিক নৃত্যশিল্পীর অংশগ্রহণে রয়েছে একটি জমজমাট নৃত্য। নৃত্য পরিচালনা করেছেন ল্যাডলী মোহন মৈত্র ও গৌরী চন্দ্র সিতু। গানটির সঙ্গীতায়োজন করেছেন মেহেদী। রয়েছে একটি বক্তব্যধর্মী মিউজিক্যাল ড্রামা। গানটিতে বিভিন্ন অফিসের কিছু অসঙ্গতি তুলে ধরা হয়েছে। এতে অভিনয় করেছেন অভিনেতা প্রাণ রায় ও জয়রাজ। দর্শক পর্বের নিয়ম অনুযায়ী যেই স্থানে ইত্যাদি ধারণ করা হয় সেই স্থানকে ঘিরে দর্শকদের বিভিন্ন প্রশ্ন করা হয় এবং সঠিক উত্তর দাতাদের নিয়ে করা হয় ২য় পর্ব। এবারও তার ব্যাতিক্রম হয়নি। চাঁপাইনবাবগঞ্জ এবং এই অঞ্চলের প্রধান ফসল আমকে ঘিরে করা প্রশ্নোত্তরের মাধ্যমে উপস্থিত হাজার হাজার দর্শকের মাঝখান থেকে ৪ জন দর্শক নির্বাচন করা হয়। নির্বাচিত দর্শকদের নিয়ে করা হয়েছে ২য় পর্ব। ২য় পর্বের জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী গম্ভীরা দলকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। গম্ভীরা শিল্পী মাহাবুবুল আলম ও ফাইজুর রহমান মানি চাঁপাইনবাবগঞ্জ এবং আমাদের লোকসঙ্গীত নিয়ে গম্ভীরা পরিবেশন করেছেন। তাদের পরিবেশিত গান থেকে প্রশ্নোত্তরের মাধ্যমে বিজয়ী নির্বাচন করা হয়েছে। নিয়মিত পর্ব হিসেবে এবারও রয়েছে যথারীতি মামা-ভাগ্নে, নানী-নাতি ও চিঠিপত্র বিভাগ। রয়েছে বিভিন্ন সমসাময়িক ঘটনা নিয়ে বেশ কিছু সরস অথচ তীক্ষè নাট্যাংশ। শহুরে বাঙালি বনাম গ্রাম্য বাঙালি, হাতের রেখা ও নেতার মর্জি, আইন ও আইনের প্রয়োগ, রোগীর কথায় অবাক ডাক্তার, উভয় সংকট, অন্তর বনাম বাহ্যিক সৌন্দর্য, ফেসবুকের ভালো-খারাপসহ বিভিন্ন বিষয়ের উপর রয়েছে বেশ কয়েকটি নাট্যাংশ। বরাবরের মতো এবারও ইত্যাদির শিল্প নির্দেশনা ও মঞ্চ পরিকল্পনায় ছিলেন ইত্যাদির নিয়মিত শিল্প নির্দেশক মুকিমুল আনোয়ার মুকিম। পরিচালকের সহকারী হিসেবে ছিলেন যথারীতি রানা ও মামুন। ইত্যাদির রচনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনা করেছেন হানিফ সংকেত। নির্মাণ করেছে ফাগুন অডিও ভিশন। ইত্যাদি স্পন্সর করেছে যথারীতি কেয়া কস্মেটিকস্ লিমিটেড।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (6)
করিম ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:১৭ পিএম says : 0
আমার খুব প্রিয় অনুষ্ঠান ইত্যাদি
Total Reply(0)
কবির ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:১৮ পিএম says : 0
ইত্যাদিতে সমাজের যে অসংগতি তুলে ত]ধরা তয় তার জবাব নেই।
Total Reply(0)
সাহেব আলী ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:১৯ পিএম says : 0
ইত্যাদি ও হানিফ সংকেত দির্ঘজীবী হোক
Total Reply(0)
আমেনা ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:১৯ পিএম says : 0
ছোট বেলা থেকে এখনো ইত্যাদি মিস করি না।
Total Reply(0)
রহিম ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:২০ পিএম says : 0
বিদেশী চ্যালেনের ভীড়ে একমাত্র দেশীয় অনুষ্ঠান যে জনপ্রিয়তা ধরে রাখতে পেরেছে।
Total Reply(0)
Pulok ran ২৯ এপ্রিল, ২০১৬, ৫:২২ পিএম says : 0
বিদ্যুত্ থাকবেতো?
Total Reply(0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন