ঢাকা, সোমবার ২৭ মে ২০১৯, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২১ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

খেলাধুলা

‘অগ্রাধিকারবলে’ দক্ষিণাঞ্চলে রুবেল

স্পোর্টস রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ২১ নভেম্বর, ২০১৮, ১২:০৩ এএম

আজ থেকে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) সপ্তম আসর। তবে তার আগেই এবারের আসরে জাতীয় দলের পেসার রুবেল হোসেনের অন্তর্ভুক্তি নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে ধুজাল!
প্রথমবারের মতো বিসিএলে যুক্ত করা হয় প্লেয়ার্স ড্রাফট পদ্ধতি। গত শনিবার চার ফ্র্যাঞ্চাইজিকে নিয়ে অনুষ্ঠিত হয় প্লেয়ার্স ড্রাফট। প্লেয়ার্স ড্রাফটে ছিল না রুবেলের নাম। রিটেইন লিস্টেও ছিল না তার নাম। তাহলে কি বিসিএল চলাকালীন সময়ে জাতীয় দলে থাকবেন রুবেল? স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন তুলেছেন ফ্র্যাঞ্চাইজিরা।
সেদিন ড্রাফট কমিশনার জানিয়েছিলেন, রুবেল হোসেন টুর্নামেন্টে থাকবেন না! তার কথার ওপর ভিত্তি করে তাকে কেউ ডাকেনি। এমনটাই জানালেন এক ফ্র্যাঞ্চাইজির কোচ। অথচ ফ্র্যাঞ্চাইজিদের গতকালের পাঠানো খেলোয়াড় তালিকায় রুবেল হোসেনের নাম। সেটাও প্রাইম ব্যাংক সাউথ জোনে। অথচ প্রাইম ব্যাংক তাকে রিটেইনও করেনি, ২০ জনের তালিকায়ও ছিলেন না। তাহলে কীভাবে রুবেল হোসেনের অন্তর্ভুক্তি হলো?
টুর্নামেন্ট কমিটির ম্যানেজার আরিফুল ইসলাম জানালেন, রুবেলের অন্তর্ভুক্তি নিয়ে কোনো ধু¤্রজাল নেই! জাতীয় দলের বিবেচনায় ছিলেন তিনি। তাই নির্বাচকরা তাকে ড্রাফট লিস্টে রাখেননি। পাশাপাশি তার একটা চোট নিয়ে উদ্বেগও ছিল, ‘জাতীয় দলের খেলোয়াড় যদি জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ে এবং কোনো দল যদি তাকে না নিয়ে থাকে তাহলে ওই জোনে (আগে যে দলে ছিল) তাকে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।’
ড্রাফটে নাম না রাখার কারণ জানিয়ে আরিফুল বলেছেন, ‘প্রথমত সে এনসিএল খেলেনি। এনসিএল না খেলা খেলোয়াড় বিসিএলের ড্রাফটে থাকেন না। দ্বিতীয়ত আমরা জানতাম যে রুবেল জাতীয় দলে ব্যাক করবে। ড্রাফটের লিস্ট করে থাকেন জাতীয় নির্বাচকরা। যেহেতু জাতীয় দলে বিবেচনায় ছিল তাকে তাই ড্রাফটে রাখা হয়নি। আর বিষয়টি ড্রাফটের দিনও বলা হয়েছিল যে, ও থাকবে না জাতীয় কমিটমেন্টের জন্য। এখন জাতীয় দলে ও নেই। সে কারণেই ওর জোন আগে অগ্রাধিকার পেয়েছে।’
রুবেলের এমন অনুর্ভুক্তির সিদ্ধান্তে খুশি নন এক ফ্র্যাঞ্চাইজি কোচ। তার ভাষ্য, ‘রুবেল হট কেক। প্রথমত ওর মতো একজন পেসার পাওয়া যেকোনো দলের জন্য সত্যিই আনন্দের বিষয়। কিন্তু হুঁটহাট তাকে একটা দলে অন্তর্ভুক্ত করে দেওয়া হলো। এটা তো আমাদের মতো অন্য দলের জন্য বারডেন।’
বিষয়টিকে ভিন্নভাবে দেখছেন এক ফ্র্যাঞ্চাইজি ম্যানেজার, ‘ভারসাম্য আনতে এবার প্লেয়ার্স ড্রাফট করা হলো। অথচ প্রথম আসরেই একটা হট্টগোল! রুবেলের মতো খেলোয়াড়কে যেকোনো দলই পেতে চাইবে। আমরাও চাই। যদি জাতীয় দলে না থাকে তাহলে আবার লটারি করা যেত। তাহলে তো ভারসাম্য থাকত।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন