ঢাকা, বুধবার ২৪ জুলাই ২০১৯, ০৯ শ্রাবণ ১৪২৬, ২০ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

সারা বাংলার খবর

খাগড়াছড়িতে ভয়াবহ বিদ্যুৎ সংকট আন্দোলনে নামছে ভুক্তভোগীরা

প্রকাশের সময় : ১৫ মে, ২০১৬, ১২:০০ এএম

খাগড়াছড়ি জেলা সংবাদদাতা : সপ্তাহে দু’দিন বিদ্যুতের আনুষ্ঠানিক ছুটি। আর বাকী পাঁচ দিন গড়ে পাঁচ ঘণ্টা বিদ্যুৎ পায় না খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার মানুষ। কখনো কখনো আবার টানা ৩/৪ দিন দেখা মেলে না বিদ্যুতের। আর তাই সংকট নিরসনের দাবীতে আন্দোলনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভুক্তভোগীরা। সোমবার সকালে জেলা শহরের শাপলা চত্বরে ‘বিদ্যুৎ সমস্যায় ভুক্তভোগী খাগড়াছড়িবাসী’ -ব্যানারে অবস্থান কর্মসূচী পালনের লক্ষ্যে ইতিমধ্যে প্রচার-প্রচারণাও শুরু করে দিয়েছে তারা।
জেলা সদরের নামমাত্র বিদ্যুৎ পেলেও উপজেলাগুলোর অবস্থা আরও ভয়াবহ। সঞ্চালন লাইন সংস্কারের নামে সপ্তাহে দু’দিন ঘোষণা দিয়ে সংযোগ বন্ধ, অব্যাহত লোডশেডিং ও লো-ভোল্টেজের কারণে সীমাহীন দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে বছরের পর বছর। এতে করে স্থবির হয়ে পড়েছে জনজীবন, অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে কর্মজীবী, শিক্ষার্থী, গৃহিণী, কৃষক ও ব্যবসায়ীসহ সর্বস্তরের মানুষ। বিদ্যুৎ না থাকায় হাসপাতালের চিকিৎসা ব্যবস্থাও অচল হয়ে পড়েছে। তবে এবার রাজপথে আন্দোলনে নামার উদ্যোগ নিয়েছে জেলার তারুণ্যের প্রতিনিধিরা। ইতিমধ্যে আন্দোলনের দিনক্ষণ নির্ধারণ করে ব্যাপক প্রচারণাও শুরু করে দিয়েছে তারা। তারুণ্যের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে আন্দোলনে পাশে থাকার অঙ্গীকার করেছে জেলার ব্যবসায়ীরা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক সাড়া মিলছে আন্দোলনের স্বপক্ষে। এছাড়া ব্যবসায়ীদের মাঝে লিফলেটও বিতরণ করা হয়েছে।
সোমবারের আন্দোলন প্রসঙ্গে ‘বিদ্যুৎ সমস্যায় ভুক্তভোগী খাগড়াছড়িবাসী’র আহবায়ক মো. জামাল উদ্দীন ও সদস্য সচিব মো. রানা হামিদ জানান, খাগড়াছড়িতে স্বাভাবিক নিয়মে বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবীতে ১৬ মে সোমবার সকাল ৯টায় জেলা শহরের শাপলা চত্বরে অবস্থান কর্মসূচীসহ বিক্ষোভ প্রদর্শন করা হবে। আর সকল ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে ঘন্টাব্যাপীর কর্মসূচীতে অংশ নেবে বলে জানিয়েছে ব্যবসায়ীরা।
খাগড়াছড়ি বিদ্যুৎ বিতরণ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আবু জাফর জানান, এ বিভাগের আওতাধীন দুই জেলার ১২টি উপজেলার প্রায় ৪০ হাজার গ্রাহকের জন্য ১৭ মেগাওয়াট চাহিদার বিপরীতে সরবরাহ হচ্ছে মাত্র ৭/৯ মেগাওয়াট। এ বিদ্যুতের উপর নির্ভর করতে হয় খাগড়াছড়ি জেলার ৯টি উপজেলার পাশাপাশি রাঙ্গামাটি জেলার তিন উপজেলার গ্রাহকদের। ফলে শেয়ারিং করে বিদ্যুৎ সরবরাহ করতে হয়। এছাড়া হাটহাজারী উপকেন্দ্র থেকে খাগড়াছড়ি জেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ হয়ে থাকে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন