ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ সফর ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ডিজিটাল বিপ্লব ঘটাতে চলেছে ইনকিলাব

ইনকিলাব প্রতিনিধি সম্মেলনে সম্পাদক এ এম এম বাহাউদ্দীন

ইনকিলাব রিপোর্ট | প্রকাশের সময় : ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৪ এএম | আপডেট : ৮:৫১ পিএম, ৩১ মার্চ, ২০১৯

দৈনিক ইনকিলাব সম্পাদক আলহাজ এ এম এম বাহাউদ্দীন বলেছেন, জন্মলগ্ন থেকে দৈনিক ইনকিলাব প্রতিষ্ঠান হিসেবে সমাজ বিনির্মাণ, সমাজ সংস্কার, গবেষণার কাজ করে চলেছে। পত্রিকাটি দেশের স্বাধীনতা ও ইসলামি চেতনার একমাত্র মুখপাত্র হিসেবে পাঠকদের মণিকোঠায় স্থান করে নিয়েছে। প্রায় তিন যুগ বয়সের ইনকিলাব আজ সারাবিশ্বেই প্রভাবশালী মিডিয়া হিসেবে প্রতিপত্তি ও স্বীকৃতি অর্জন করেছে।
তিনি বলেন, ’৮০ দশকে এই পত্রিকাটি প্রিন্টিং টেকনোলজিতে দেশে বিপ্লব এনেছিল। ডিজিটাল টেনোলজির এ যুগে ইনকিলাব আজ ডিজিটাল বিপ্লব ঘটাতে চলেছে। ইনকিলাব সম্পাদক গতকাল শনিবার দুপুরে বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীন সম্মেলন কক্ষে দৈনিক ইনকিলাব প্রতিনিধি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আরো বলেন, এখন সত্যিকারার্থে ভাল মানুষেরা ভাল কাজে এগিয়ে আসছে না, তবে এক্ষেত্রে ব্যাতিক্রম দৈনিক ইনকিলাব। তিনি তাঁর সাংবাদিকতা জীবনের দীর্ঘ প্রায় তিন যুগের অভিজ্ঞতার আলোকে বলেন, সারা দেশে কর্মরত ইনকিলাবের সাংবাদিকরা সততার পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে সমাজে প্রভাব প্রতিপত্তি অর্জন করেছে। সংবাদপত্র পাঠকদের কাছে ইনকিলাব এখন একটি মডেল। তিনি এই পত্রিকার সিনিয়র সাংবাদিকদের উদ্দেশে বলেন, প্রযুক্তিতে দক্ষতা অর্জন করে নিজেদের অর্জিত অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে দেশ ও জনগণের খেদমত করতে হবে। মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ প্রমাণ করে দিয়েছেন বয়স মানুষের ইনটেলেক্ট কোয়ালিটি বাড়ায়, কাজেই ইনকিলাবে কর্মরত সাংবাদিকদের এখন একটি টিম ওয়ার্কের ভিত্তিতে দেশ ও জনগণের জন্য কাজ করে যেতে হবে।
দিনব্যাপী এই প্রতিনিধি সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন, ইনকিলাবের নির্বাহী পরিচালক ফাহিমা বাহাউদ্দীন। ইনকিলাবের ক্রীড়া সম্পাদক ও বিশেষ সংবাদদাতা রেজাউর রহমান সোহাগের সঞ্চালনায় এই প্রতিনিধি সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, বার্তা সম্পাদক সাকির আহমেদ, পরিচালক (বাণিজ্য ও প্রশাসন) মো. আব্দুল কাদের, জেনারেল ম্যানেজার রবিউজ্জামান, আইটি বিভাগের প্রধান সৈয়দ আহসানুর রহমান গালীব, মফস্বল সম্পাদক আলম শামস, সহকারী সম্পাদক মেহেদী হাসান পলাশ। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন দৈনিক ইনকিলাবের পরিচালক নাজিফা বাহাউদ্দীন, জি.এম (হিসাব) সিরাজুল ইসলাম, ম্যানেজার (কালেকশন) আমিনুল ইসলাম তুহিন, জিএম (সার্কুলেশন) সোহেল আহমেদ।
এই প্রতিনিধি সম্মেলনে ফাহিমা বাহাউদ্দীন প্রতিনিধিদের উদ্দেশে বলেন, ওয়েব র‌্যাংকিং-এ ইনকিলাব এখন খুবই ভাল অবস্থানে আছে। আপনাদের কোয়ালিটি নিউজের মাধ্যমে এই র‌্যাংকিং আরো উন্নততর পর্যায়ে নিয়ে যেতে হবে। বার্তা সম্পাদক সাকির আহমেদ বলেন, সাংবাদিকতা শুধু শেখানোর বিষয় নয়, শেখারও বিষয়। আপনাদের শ্রম ও মেধার মাধ্যমে ইনকিলাবকে পাঠকদের আশা, বিশ্বাস ও ভালবাসার প্রতীকে পরিণত করতে হবে।
সূচনা বক্তব্যে ইনকিলাব ব্যুরো চিফ ফোরামের সভাপতি মিজানুর রহমান তোতা বলেন, ইনকিলাব অন্যায়ের কাছে মাথা নোয়াবার নয়, ইনকিলাব আমাদের অস্তিত্বের সারথী, ইনকিলাব একটি বটবৃক্ষ, বটবৃক্ষ বেঁচে থাকলেই কেবল আমরা তার ছায়া তলে বেঁচে থাকতে পারবো।
প্রতিনিধি সম্মেলনে উপস্থিত সাংবাদিকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ফরিদপুরের নাজিম বকাউল, কক্সবাজারের জাকের উল্লাহ চকোরি, বান্দরবানের সা’দত উল্লাহ, মাদারীপুরের আবুল হাসান সোহেল, শরিয়তপুরের হাবিবুর রহমান হাবিব, কুমিল্লার সাদিক মামুন, গাজীপুরের মো. দেলোয়ার হোসেন, কুষ্টিয়ার এস এম আলী আহসান পান্না, বরগুনার মোশাররফ হোসেন, সিরাজগঞ্জের সৈয়দ শামীম শিরাজী, গাইবান্ধার আবেদুর রহমান স্বপন, সাতক্ষীরার আব্দুল ওয়াজেদ কচি ও আক্তারুজ্জামান বাচ্চু, মাগুরার অধ্যাপক সাইদুর রহমান, লালমনিরহাটের মাওলানা আইয়ুব আলী বসুনিয়া, পাবনার মুরসাদ সুবহানী, ঠাকুরগাঁয়ের রুবাইয়া সুলতানা বানি, চুয়াডাঙ্গার কামাল উদ্দীন জোয়ার্দার, কুড়িগ্রামের শফিকুল ইসলাম বেবু, চাঁদপুরের বি.এ হান্নান, জামালপুরের নূর আলম সিদ্দীকি, শেরপুরের মেরাজ উদ্দীন, কিশোরগঞ্জের নাসির উদ্দীন, ভোলার মো. জহিরুল হক।
সাংবাদিকবৃন্দ তাদের সকলের বক্তব্যেই ইনকিলাব প্রতিষ্ঠাতা, সাবেক মন্ত্রী মরহুম মাওলানা এম এ মান্নানের (রহ.) স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানান ও তাঁর রূহের মাগফিরাত কামনা করেন। তারা বলেন, ইনকিলাব যে উদ্দেশ্যে প্রতিষ্ঠা করা হয় সেই লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে ইনকিলাবের মফস্বল পর্যায়ে কর্মরত সাংবাদিকরা নিরলসভাবে কাজ করে চলেছে। অতীতে শত নির্যাতন, নিপীড়ন, হামলা-মামলার শিকার হয়ে তাঁরা কেউই ইনকিলাবকে ছেড়ে যাননি, সাংবাদিকতার আদর্শ থেকেও বিচ্যূত হননি, ভবিষ্যতেও কেউ হবে না ইনশা আল্লাহ।
সম্মেলনের দ্বিতীয় পর্বে প্রতিনিধিদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে মফস্বল সম্পাদক আলম শামস বলেন, যত সমস্যা সঙ্কট থাকুক না কেন সাংবাদিকতার মহান লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যের প্রতি বিশ্বস্ত থেকে কোয়ালিটি সাংবাদিকতার মাধ্যমে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় ইনকিলাবে অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে হবে। এ পর্বে অনলাইন সাংবাদিকতার ওপরে ডিজিটাল টেকনোলজি সংক্রান্ত বিষয় উপস্থাপন করেন সহকারী সম্পাদক মেহেদী হাসান পলাশ ও আইটি বিভাগের প্রধান সৈয়দ আহসানুর রহমান গালীব।
সকাল সাড়ে ১০টায় হাফেয মাওলানা মিজানুর রহমানের কুরআন তিলাওয়াত ও দোয়ার মাধ্যমে প্রতিনিধি সম্মেলন ২০১৯ এর সূচনা হয়। সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন, বিশেষ সংবাদদাতা ও চট্টগ্রাম ব্যুরো চিফ শফিউল আলম, রাজশাহী ব্যুরো চিফ ও বিশেষ সংবাদদাতা রেজাউল করিম রাজু, বরিশাল ব্যুরো চিফ ও বিশেষ সংবাদদাতা নাছিম উল আলম, ব্যুরো চিফ ফোরামের সদস্য সচিব, বিশেষ সংবাদদাতা ও নোয়াখালী ব্যুরো চিফ আনোয়ারুল হক আনোয়ার, বিশেষ সংবাদদাতা ও বগুড়া ব্যুরো চিফ মহসিন রাজু, বিশেষ সংবাদদাতা ও ময়মনসিংহ ব্যুরো চিফ মো. শামছুল আলম খাঁন, বিশেষ সংবাদদাতা ও কক্সবাজার ব্যুরো চিফ শামছুল হক সারেক, দিনাজপুর আঞ্চলিক অফিস প্রধান মাহফুজুল হক আনার, খুলনা ব্যুরো চিফ আবু হেনা মুক্তি, সিলেট ব্যুরো চিফ ফয়সাল আমীন, বেনাপোল অফিস স্টাফ রিপোর্টার মহসিন মিলন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (32)
মুহাম্মদ জিয়াউদ্দিন ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫৩ এএম says : 0
মাওলানা এম. এ. মান্নান (রহঃ) যেভাবে এ দেশের ইসলাম, মুসলমান ও মাদ্রাসা শিক্ষার জন্য কাজ করে গেছেন ঠিক একইভাবে তার সুযোগ্য সন্তান এ এম এম বাহাউদ্দীন সাহেবেও কাজ করছেন। এজন্য আল্লাহর কাছে দোয়া করি, এই পরিবার ও তাদের সকল কর্মকাণ্ডের প্রতি তিনি যেন রহমত ও বরকত দান করেন।
Total Reply(0)
আবু নোমান ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫১ এএম says : 0
দৈনিক ইনকিলাব তার দীর্ঘ পথচলায় সব সময় দেশের স্বাধীনতা ও ইসলামি চেতনার একমাত্র মুখপাত্র হিসেবে সত্য-সুন্দর এবং ইসলাম ও দেশের পক্ষে লেখনি চালিয়ে আসছে। সব ধরণের রক্তচক্ষুকে উপেক্ষা করে সব সময় সাহসী লেখনীর ধারা অব্যাহত রেখেছে।
Total Reply(0)
মনজুর হোসেন খান ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫০ এএম says : 0
ইনকিলাব অর্থ বিপ্লব বা সংগ্রাম। তাই কোন বিপ্লবই দৈনিক ইনকিলাব ছাড়া সম্ভব হবে না- এটাই তো স্বাভাবিক।
Total Reply(0)
সেলিম উদ্দিন ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪২ এএম says : 0
স্বাধীনতার পরবর্তী সংবাদপত্র জগতের সকল বিপ্লব ও বাঁক বদল দৈনিক ইনকিলাবের মাধ্যমেই হয়েছে।
Total Reply(0)
ফজলুল হক ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৪ এএম says : 0
দৈনিক ইনকিলাব তার নীতি ও আদর্শে সবর্দাই ছিলো অটল। কোন ঝড়ই তাকে নত করতে পারেনি। এজন্যই এদেশের আপমর জনতা সর্বদা এর পাশে ছিলো। এখনও আছে। আর বিশ্বাস ভবিষ্যতেও তার এর পাশে থাকবে ইনশা আল্লাহ
Total Reply(0)
রফিকুল ইসলাম ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৬ এএম says : 0
জন্মলগ্ন থেকে দৈনিক ইনকিলাব প্রতিষ্ঠান হিসেবে সমাজ বিনির্মাণ, সমাজ সংস্কার, গবেষণার কাজ করে চলেছে। এই কারণেই এ অঞ্চলের দেশপ্রেমিক ও ইসলামপ্রিয় মানুষের কাছে এটা এত জনপ্রিয়
Total Reply(0)
Jamal Uddin ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৭ এএম says : 0
জন্মলগ্ন থেকে দৈনিক ইনকিলাব দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব ও ইসলামী আকিদা বিশ্বাসের ব্যাপারে আপোষহীন ভূমিকা পালন করে আসছে। ইনকিলাব কারো পক্ষের বা বিপক্ষের নয় ‘ইনকিলাব শুধুমাত্র দেশ ও জনগণের পক্ষে’ কথা বলে যাচ্ছে।
Total Reply(0)
জাবেদ ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৮ এএম says : 0
ইনকিলাব পদে পদে নানা প্রতিবন্ধকতা সত্ত্বেও এ দেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের আকীদা-বিশ্বাসে যে কোনো আঘাতের বিরুদ্ধে সর্বদা সতর্ক, সজাগ। ইসলামকে নিয়ে মস্কারা করা, ইসলাম ও কোরআন হাদীসের অবমাননা করাকে ইনকিলাব কিছুতেই প্রশ্রয় দেয় না। যারা ইসলামের বিকৃতি-অপব্যাখ্যার মাধ্যমে সাধারণ মুসলমানদের বিভ্রান্ত ও বিপদগামী করতে চায়, ইনকিলাব তাদের বিরুদ্ধে দৃঢ় অবস্থান নেয় এবং এসব ব্যাপারে আলেম সমাজকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানায়।
Total Reply(0)
জাবেদ ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৯ এএম says : 0
ইসলামি তাহজিব তামাদ্দুন রক্ষার মুখপত্র দেশের শীর্ষস্থানীয় দৈনিক ইনকিলাবের জন্য সব সময়ই থাকে আমাদের শুভ কামনা ।
Total Reply(0)
ওমর সানি ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৯ এএম says : 0
ইনকিলাব যতদিন তার নীতি নৈতিকতায় অটল থাকবে, ততদিন এদেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমানগণ তাদের পাশে থাকবে।
Total Reply(0)
রোমান কবির ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫১ এএম says : 0
রোজ কেয়ামত পর্যন্ত যেন দৈনিক ইনকিলাবের এই সিলসিলা জারি থাকে- মহান আল্লাহ রাব্বুল আল আমিনের কাছে সেটাই প্রার্থনা করি।
Total Reply(0)
হাবিবুর রহমান ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫৪ এএম says : 0
যখন দেশের সিংহভাগ মিডিয়া প্রতিকূলতা, ক্ষমতা আর অর্থের প্রলোভনের মুখে নিজেদের স্বকিয়তা বিলিয়ে দিয়ে অশুভ শক্তির এজেন্ডা বাস্তবায়নে নিয়োজিত তখনও ইনকিলাব সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশে নিজেকে অটুট রেখেছে। আপনার কথায় আমরা আরো আশাবাদী হলাম।
Total Reply(0)
তানবীর ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫৪ এএম says : 0
দেশের অধিকাংশ গণমাধ্যমে দেশের বাস্তব চিত্র উঠে আসছে না, পত্রিকা খুললেই শুধু চাটুকারিতা, চামচামি আর একপেশি সংবাদ ছাড়া কিছুই চোখে পড়ে না। এহেন পরিস্থিতিতেও ইনকিলাব এখনও সাহসিকতা ও সততার সাথে সংবাদ পরিবেশন করে যাচ্ছে বলে মনে করি। আমার মতো সাধারণ পাঠকের কাছে বিসয়টি বেশ তৃপ্তিরও। ইসলামের খেদমতে এগিয়ে যাক ইনকিলাব পরিবার।
Total Reply(0)
লাভলু ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১:৫৫ এএম says : 0
এদেশের সংখ্যাঘরিষ্ট মানুষ দেশ প্রেম ও ইসলামী মূল্যবোধে বিশ্বাসী। আর এটাই সত্যিকার বাংলাদেশের বাস্তবতা। ইনকিলাব মূল ধারার এই চেতনাকে লালন করে আসছে। তাইতো ইনকিলাব খাঁটি বাংলাদেশী পত্রিকা।
Total Reply(0)
সাহেদ শফি ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১১:২৮ এএম says : 0
মাওলানা মান্নান সাহেবের প্রতিষ্ঠিত আমাদের প্রিয় পত্রিকা ইনকিলাব ইসলামের খেদমত করে যাচ্ছে। অবশ্যই আল্লাহ তায়ালা এর প্রতিদান দেবেন, তার প্রতিষ্ঠানকে কবুল করবেন। আমীন
Total Reply(0)
Md Robiul Islam Sojib ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১১:২৮ এএম says : 0
শ্রদ্ধেয় সম্পাদক, প্রথমেই আপনাকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আপনার পত্রিকা প্রতিকূল অবস্থায়ও সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রচার করে যাচ্ছে। আমরা এতে উপকৃত হচ্ছি। এছাড়া ইসলাম ও মুসলিমদের প্রতিনিধিত্ব করায় আপনার প্রতিষ্ঠানের প্রতি আমাদের ইমানি ভালোবাসা তৈরি হয়েছে। ইনশা আল্লাহ আপনি সফল হবেন।
Total Reply(0)
Anwarul Hpque Anwar ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১১:২৯ এএম says : 0
সময়োপযোগী বক্তব্য। মাননীয় সম্পাদক সাহেবকে অসংখ্য ধন্যবাদ আজকের অনুষ্ঠানে তাঁর সূ-চিন্তিত ও বাস্তবমুখী বক্তব্য রাখার জন্য।
Total Reply(0)
Shahead Ahmed ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১১:৩০ এএম says : 0
ইনকিলাব আমারও পছন্দের পত্রিকা
Total Reply(0)
Md. Mofazzal Hossain ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১১:৩২ এএম says : 0
Everyday I read Inqilab Newspaper, I Like it than others
Total Reply(0)
Ahmad Miah ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪১ এএম says : 0
Congratulations
Total Reply(0)
Saad Bin Zafor ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৩ এএম says : 0
Thanks to Mr AMM Bahauddin and his daughter Mrs Fahima Bahauddin, Executive Director, Popular Newspaper of Daily Inqilab. I wish you more & more success.
Total Reply(0)
শাহাদাত স্বপন ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৪ এএম says : 0
খুবই ভালো খবর। আমি ইসলামের প্রতিনিধিত্ব করায় ইনকিলাব পত্রিকাকে খুবই পছন্দ করি। ইনকিলাবের উত্তরাত্তোর সফলতা কামনা করছি এবং সকলকে অভিনন্দন জাানচ্ছি।
Total Reply(0)
কাওসার আহমেদ ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৫ এএম says : 0
ইনকিলাব অনলাইনের সফলতায় আমরা পাঠকরাও অত্যন্ত আনন্দিত। আমার পক্ষ থেকে ইনকিলাব পরিবারকে অভিনন্দন জানাচ্ছি।
Total Reply(0)
তাওহিদ ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৬ এএম says : 0
অভিনন্দন ইনকিলাব পরিবারকে। সত্য সংবাদ প্রকাশে আরও সক্রিয়তা ও বলিষ্ঠতা কামনা করছি।
Total Reply(0)
হাবিব ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৭ এএম says : 0
যখন দেশের সিংহভাগ মিডিয়া প্রতিকূলতা, ক্ষমতা আর অর্থের প্রলোভনের মুখে নিজেদের স্বকিয়তা বিলিয়ে দিয়ে অশুভ শক্তির এজেন্ডা বাস্তবায়নে নিয়োজিত তখনও ইনকিলাব সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশে নিজেকে অটুট রেখেছে। তাই এই আনন্দ আমাদের মতো সাধারণ পাঠকের কাছে অবশ্যই আনন্দের। আশা করি সামনের দিনগুলোতেও ইনকিলাব সুনামের সাথে কাজ করে যাবে, দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় গণমাধ্যমে রুপান্তরিত হবে।
Total Reply(0)
Fahad Momtazi ৩১ মার্চ, ২০১৯, ১০:৪৭ এএম says : 0
অভিনন্দন !!! শুভ হউক আগামীর পথ চলা।
Total Reply(0)
Monir ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫২ পিএম says : 0
অভিনন্দন ইনকিলাব পত্রিকাকে, অভিনন্দন প্রিয় সম্পাদক বাহা উদ্দিন সাহেবকে।
Total Reply(0)
Kamal Uddin ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫২ পিএম says : 0
Go ahead My Favorite newspaper Inqilab.
Total Reply(0)
Mohammed Kutubur Rahman Khan ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫২ পিএম says : 0
Thanks
Total Reply(0)
মোঃ আব্দুল কাদির ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫৩ পিএম says : 0
প্রিয় পত্রিকা ইনকিলাবের শ্রদ্ধাভাজন সম্পাদক ও ইনকিলাব পরিবারকে আন্তরিক অভিনন্দন অনেক দিনের একটি স্বপ্ন পূরণ করেছে ইনশাআল্লাহ ইনকিলাবের সাথে আছি, সাথে থাকবো সবসময়।
Total Reply(0)
Shafiul Alam ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫৪ পিএম says : 0
CONGRATULATIONS to Hon'ble Editor Mr. A M M Bahauddin, Executive Director Fahima Bahauddin and to the whole team. May Allah bless us
Total Reply(0)
Mohd saleh ৩১ মার্চ, ২০১৯, ৩:৫৪ পিএম says : 0
দিন দিন দৈনিক ইনকিলাব পত্রিকার আরো উত্তর উত্তর সাফল্য কামনা করছি, এবং দোয়া করি আল্লাহ্ যেন কেয়ামত পর্যন্ত চলার তৌফিক দান করেন আমিন ছুম্মা আমিন।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন