ঢাকা, সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৮ আশ্বিন ১৪২৬, ২৩ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

চট্টগ্রামে সড়ক ও রেলপথ অবরোধ পাটকল শ্রমিকদের

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২ এপ্রিল, ২০১৯, ২:৩৩ পিএম

রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল শ্রমিকদের মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন, বকেয়া পরিশোধ, গ্র্যাচুইটি, বদলি শ্রমিক স্থায়ীকরণসহ নয় দফা দাবিতে চট্টগ্রামে রেলপথ ও সড়কপথ অবরোধ করেছে চট্টগ্রামের আমিন জুট মিল, গালফ্রা হাবীব লিমিটেড, আর আর জুট মিলস, গুল আহমদ ও হাফিজ জুট মিলের হাজার হাজার শ্রমিক-কর্মচারীরা।

মঙ্গলবার সকাল থেকে পূর্বঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী এসব দাবি আদায়ে ৭২ ঘণ্টার কর্মবিরতি পালন করছেন তারা।


রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল সূত্রে জানা যায়, পাটকল শ্রমিকদের অবরোধের কারণে চট্টগ্রাম থেকে ঠিক সময়ে ছেড়ে যেতে পারেনি মেঘনা, পাহাড়িকা ও সোনার বাংলা ট্রেন। ষোলশহর স্টেশন থেকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া ৯টার ট্রেনটি আটকে দিয়েছে অবরোধকারীরা। এরপর থেকে এ রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ আছে।

এর আগে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আমিন জুট মিল গেট থেকে মুরাদপুর-হাটহাজারী সড়কে মিছিল করে আমিন জুট মিলের শ্রমিকরা। মিছিল শেষে মিলের সামনেই সমাবেশ করেন তারা। সমাবেশে বক্তারা বলেন, ‘মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন, বকেয়া মজুরি পরিশোধ, পাট ক্রয়ের টাকা যথাসময়ে মিলে প্রেরণ, কর্মরত শ্রমিকদের স্থায়ীকরণসহ ৯ দফা বাস্তবায়ন করতে হবে।’

একই সময়ে গালফ্রা হাবিব লিমিটেডের শ্রমিক ও কর্মচারী ইউনিয়নের (সিবিএ) নেতাকর্মীদের নেতৃত্বে শ্রমিকরা শুকলালহাট বাজার এলাকায় মিছিল করে। মিছিল শেষে তারা কারখানা প্রাঙ্গণে বিক্ষোভ সমাবেশ করেন।

সীতাকুন্ড উপজেলার সোনাইছড়ি এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক ও রেললাইন অবরোধ করে গুল আহমদ ও হাফিজ জুট মিলের শ্রমিকরা। পরে পুলিশ এসে তাদের সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেন।

একই দাবিতে বাঁশবাড়িয়া আর আর জুট মিলসের শ্রমিকরা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে লাল পতাকা মিছিল করেন।

সিবিএর নেতাকর্মীরা জানান, বিজেএমসি চেয়ারম্যান গত ২৮ মার্চের মধ্যে মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন করার আশ্বাস দিয়েছিলেন কিন্তু তা বাস্তবায়ন হয়নি। ফলে দাবি আদায়ে বাধ্য হয়ে আবারও আন্দোলনে নামতে হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন