ঢাকা, রোববার, ২৫ আগস্ট ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬, ২৩ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

আন্তর্জাতিক সংবাদ

আজ ভারতে দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচন

১৩ রাজ্যের ৯৭ আসনে ভোট গ্রহণ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

আজ ১৮ এপ্রিল ভারতে দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচনে ১৩ রাজ্যের ৯৭টি আসনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ইতোমধ্যে বিজেপির পক্ষে আগের মত মোদি হাওয়ার জোর দেখা না যাওয়ায় কিছুটা অস্বস্তিতে পড়েছে দলটি। এই পেক্ষাপটে ভোট শুরু হওয়ার পর হঠাৎ করে নির্বাচনী প্রচারণার মূল ইস্যু পাল্টে ফেলেছেন তারা। এদিকে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী ও তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপি বিরোধী প্রচারণা আরো জোরদার করার পাশাপাশি সে রাজ্যে কংগ্রেসকে ভোট না দেয়ার জন্য জনগণের প্রতি আহবান জানিয়েছেন।
গত ১১ এপ্রিল ভারতের লোকসভা নির্বাচনের প্রথম ধাপের ভোটে ২০টি রাজ্যের ৯১টি আসনে ভোট গ্রহণ করা হয়। আজ দ্বিতীয় ধাপে ১৩টি রাজ্যের ৯৭টি আসনে ভোট গ্রহণ হবে। আজ যে সব রাজ্যে ভোট হবে সেগুলো হলঃ আসাম, বিহার, চন্ডিগড়, জম্মু ও কাশ্মীর, কর্নাটক, মহারাষ্ট্র, মণিপুর, ওড়িশ্যা, তামিলনাড়–, ত্রিপুরা, উত্তর প্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ ও পুদুচেরি।
এদিকে ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপি তাদের নির্বাচনী ইস্যু পরিবর্তন করেছে। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা বলছেন, প্রথম ধাপের নির্বাচনের পর মোদি হাওয়া যে আর আগের মত জোরালো নয় তা স্পষ্টভাবে উপলব্ধি করা যাচ্ছে। বিজেপির মধ্যে এ নিয়ে অস্বস্তি সৃষ্টি হয়েছে। এবার নির্বাচনে বিজেপি তাদের প্রচারণার মূল ইস্যু করেছিল নিরাপত্তা। ফেব্রুয়ারিতে পাকিস্তানে বিমান হামলা চালানোর পর এক্ষেত্রে বিজেপির প্রতি জোর সমর্থনের হাওয়া উঠেছিল। কিন্তু এখন তা থিতিয়ে এসেছে। তাই প্রথম ধাপের নির্বাচনের পর বিজেপি এখন নিরাপত্তা ইস্যু থেকে সরে এসে উন্নয়নকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে। মনে করা হচ্ছে, কংগ্রেস ক্ষমতায় এলে ৫ কোটি পরিবারকে মাসে ৬ হাজার করে বার্ষিক ৭২ হাজার রুপি দেয়ার যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে তার মোকাবেলায় বিজেপি উন্নয়নকে প্রধান ইস্যু করতে বাধ্য হয়েছে।
পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে আজ দ্বিতীয় দফা ভোট গ্রহণ হচ্ছে। এবার এ রাজ্যে ৭ দফায় ভোট গ্রহণ করা হবে যা আগে কখনো হয়নি। তৃণমুল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তার বিজেপি বিরোধী প্রচারণা আরো জোরদার করেছেন। মোদির সমালোচনা করে তিনি বলেন, দেশে একটা ফ্যাসিস্ট সরকার চলছে। শুধু বিভাজনের রাজনীতি করেই ভোটে জিততে চাইছে ওরা। আর কংগ্রেস প্রসঙ্গে বলেন, ‹জঙ্গিপুর ও বহরমপুরে আরএসএস কংগ্রেসের জন্য কাজ করছে। প্রচার করছে। তাই ওদের একটিও ভোট দেবেন না। তিনি রাজ্যের ৪২টি আসনের সবগুলোতেই তৃণমূলকে ভোট দিয়ে জিতিয়ে আনার জন্য আহবান জানিয়েছেন। তিনি এটাও বলেছেন যে এবারে উত্তরপ্রদেশ এবং বাংলা মিলে সরকার গড়বে। সূত্র বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (10)
Dhipu Ahmed Shimul ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:০৬ এএম says : 0
গরুকে ধর্ষণের অভিযোগে লালু পাটনি (২২) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গরুর মালিক গোবর দেশাইয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে পশু ধর্ষণ আইনে ওই যুবককে গ্রেফতার করা হয়। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির রাজ্য গুজরাটের আহমেদাবাদের মেঘানিনগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশের কাছে দেওয়া অভিযোগে গোবর দেশাই বলেন, ‘তার চারটি গরু রয়েছে। আহমেদাবাদের বিমানবন্দরের কার্গো কমপ্লেক্স মাঠে প্রতিদিন সকালে গরু ছেড়ে দিয়ে আসেন তিনি। বিকেলের দিকে গিয়ে নিয়ে আসেন গোয়ালে।’ আরো পড়ুন: তিন ছাত্রীকে যৌন নির্যাতন, প্রধান শিক্ষক গ্রেপ্তার অভিযোগে বলা হয়েছে, দু’দিন আগে মাঠে গরু আনতে গিয়ে পাঁচ মাস বয়সী একটি গরু না পেয়ে খুঁজতে শুরু করেন দেশাই। পরে দেখতে পান একটি ঘরের পেছনে গরুটিকে বসিয়ে ধর্ষণ করছে ওই যুবক। ঘটনাস্থলে ওই যুবককে ধরে পেটাতে শুরু করেন তিনি। পরে আহমেদাবাদ পুলিশে খবর দেওয়া হয়। পুলিশ এসে ওই যুবককে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়। গোবর দেশাই বলেন, এ ধরনের ঘটনা আগে সংবাদমাধ্যমে দেখেছেন তিনি। কিন্তু এমন ঘটনা যে তার গরুর সঙ্গেই ঘটবে, তা তিনি ভাবতেও পারেননি। আরো পড়ুন: ভোট দিলেই মদ, মাংস ও স্বর্ণ উপহার! এর আগে গত বছর হরিয়ানায় একই ধরনের বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটে। ওই সময় হরিয়ানার এক থানার ভেতরে পূর্ণ বয়স্ক ছাগল ধর্ষণের অভিযোগ উঠে পুলিশের এক কনস্টেবলের বিরুদ্ধে। পরে হরিয়ানা পুলিশ সেই কনস্টেবলকে চাকরিচ্যুত করে। ইত্তেফাক/বিএএফ গরুকে ধর্ষণ যুবক গ্রেফতার পশু ধর্ষণ পশু ধর্ষণ আইন
Total Reply(0)
তুষার ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:০৯ এএম says : 0
কল্যাণদা জিতছেন নিশ্চিত।এমনকি বিজেপি বিরোধী এবিপিগোষ্ঠীও তাদের জনমত জরিপে এই আসনটিতে বিজেপির জয় দেখিয়েছে।
Total Reply(0)
Amanoth Ullah ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১১ এএম says : 0
এদের মধ্য তুলনা করলে তো মোদি হওয়ার কথা কারন সব জায়গায় অবুঝ মানুষের সংখ্যা টা ই বেশী থাকে তাছাড়া ওখানে আমাদের রকিবুল , হুদা কিংবা হেলালদের নিয়োগ দেয়া হয়না যে দিনের ভোট রাতেই সাবাড় করেদিবে
Total Reply(0)
Salman MD Mamun ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১১ এএম says : 0
যেটা লাউ সেটাই কদু! ওদের দেশে যেই আসুক, তাতে আমাদের লাভ নেই ।
Total Reply(0)
আশরাফুল আলম আহাদ ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
আচ্ছা, আপনাদের বিবেক কই? ভারতের লোকসভা আসন কত? ৪২ আসনে প্রার্থী দিয়ে মমতা কেমনে প্রধানমন্ত্রী হবে?
Total Reply(0)
Sakil Hossain ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
ভারতে ও দেখা যাবে বাংলাদেশের মতো ...মার্কা নির্বাচন হয়েছে।
Total Reply(0)
Mamun Ahmed Ullah ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
বাংলাদেশের জন্য কোনটাই ভালো না! দুইজনের নীতিই বাংলাদেশের জন্য কঠোর। সুতরাং কে আসলো কে গেল তা নিয়ে মাথা ঘামিয়ে লাভ নেই।
Total Reply(0)
Shawon Modak ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১:১৩ এএম says : 0
বাংলাদেশের লোক নিজে দেশে রজনিতি বোঝে না ভারতে রাজনিতি বুঝা টা এতো সহজ,
Total Reply(0)
সফিক আহমেদ ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ৯:৫৯ এএম says : 0
আমার মনে হচ্ছে এবার বিজেপির পরাজয় হবে।
Total Reply(0)
আবু নোমান ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, ১০:০০ এএম says : 0
পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী ও তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়’র জন্য রইলো শুভ কামনা
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন