ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০১৯, ০৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৭ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

খেলাধুলা

বাংলাদেশের শক্তি দেখল আয়ারল্যান্ডও

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

আগেই নিশ্চিত হয়েছে ফাইনাল। ম্যাচটি রূপ নিয়েছিল অনেকটা পরীক্ষা-নিরীক্ষার ক্ষেত্র হিসেবে। সেটি করেছেও বাংলাদেশ। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় সিরিজে ফাইনালের আগে বিশ্বকাপের রিজার্ভ বেঞ্চ বাজিয়ে দেখার চার বদলের ম্যাচটিতেও ছিল কিছু প্রাপ্তির সুযোগ। সেটি বেশ ভালো মতই হয়েছে বাংলাদেশের।
বিশ্বকাপের আগে সবাইকে ম্যাচ খেলার সুযোগ দিতে এ ম্যাচে হয়েছে চারটি পরিবর্তন। সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ মিঠুন, মেহেদী হাসান মিরাজ ও মুস্তাফিজুর রহমানকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে। তামিম ইকবালের সঙ্গে উদ্বোধনী জুটি গড়েছেন লিটন দাস। মোসাদ্দেক হোসেন ও রুবেল হোসেনের সঙ্গে ফিরেছেন চোট কাটিয়ে ওঠা মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।
অভিষেকে ছিলেন ম্লান। দ্বিতীয় ম্যাচেই আলো ছড়ালেন আবু জায়েদ চৌধুরী। নিলেন পাঁচ উইকেট। তবুও পল স্টার্লিংয়ের সেঞ্চুরিতে লড়াই করার মতো রান তুলেছিল আয়ারল্যান্ড। চ্যালেঞ্জিং রান তাড়ায় সামনে থেকে পথ দেখাল উদ্বোধনী জুটি। লিটন দাস ও তামিম ইকবাল করলেন ফিফটি। আহত হয়ে মাঠ ছাড়ার আগে সাকিব আল হাসানও খেললেন পঞ্চাশ ছোঁয়া ইনিংস। মুশফিক-মাহমুদউল্লাহ জুটিও রাখলেন অবদান। টপ অর্ডারের দৃঢ়তায় অনায়াসেই জিতল বাংলাদেশ। ত্রিদেশীয় সিরিজের নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে ৬ উইকেটে জিতেছে বাংলাদেশ। ডাবলিনের ক্যাসল অ্যাভিনিউয়ে আয়ারল্যান্ডের ২৯২ রান পেরিয়ে গেছে ৪২ বল বাকি থাকতেই।
ত্রিদেশীয় সিরিজে এখন পর্যন্ত আগে ব্যাটিংয়ের সুযোগ হয়নি বাংলাদেশের। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দুই ম্যাচেই লক্ষ্য ছিল নাগালে। তিনশ রানের কাছাকাছি সংগ্রহ গড়ে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছিল আয়ারল্যান্ড। সেই চ্যালেঞ্জ কী দাপটের সঙ্গেই না জিতে নিল বাংলাদেশ। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত এক ছন্দে খেলে সহজেই হারাল আইরিশদের।
তবে এই জয়ের মাঝে অস্বস্তিও মিশে থাকলো। দলের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় সাকিবকে যে চোট নিয়ে ছাড়তে হয়েছে মাঠ! হাফসেঞ্চুরি পূরণ করে তিনি রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছেড়েছেন সাইড স্ট্রেইনের সমস্যায়। এই অংশ বাদ দিলে আয়ারল্যান্ডে গতকালও আরেকটি চমৎকার দিন কাটিয়েছে বাংলাদেশ। রাহীর ৫ উইকেট প্রাপ্তির পর ব্যাটিয়েও চমৎকার শুরু পায় টাইগাররা। ‘নতুন’ ওপেনিং সঙ্গী লিটন দাসকে নিয়ে তামিম ইকবাল গড়েন ১১৭ রানের জুটি। দুজনই পূরণ করেন হাফসেঞ্চুরি। তামিম করে যান ৫৭ রান, আর সুযোগ পেয়ে ৭৬ রানের ইনিংস খেলে নিজেকে প্রমাণ করেন লিটন।
এরপর সাকিব (৫০*) ও মুশফিকুর রহিমের (৩৫) ব্যাটে জয়ের সুবাস পেতে থাকে বাংলাদেশ। যেটা নিশ্চিত করেন মাহমুদউল্লাহ (৩৫*) ও সাব্বির রহমান (৭*)। মোসাদ্দেক হোসেন করেছেন ১৪ রান। বাংলাদেশি ব্যাটসম্যানদের দাপটের দিনে আয়ারল্যান্ডের সবচেয়ে সফল বোলার বয়েড রানকিন। এই পেসার ৭ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে পেয়েছেন ২ উইকেট।
এর আগে দিনটি কেবলই ছিল রাহীময়। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সেঞ্চুরি হাঁকানো অ্যান্ড্রু বলবার্নিকে ফিরিয়ে শুরু করেন রাহী। এরপর পল স্টারলিং ও উইলিয়াম পোর্টারফিল্ডের ১৭৪ রানের জুটি ভাঙার পর এই ডানহাতি পেসার জ্বলে ওঠেন। অষ্টম ও নবম ওভারে আরও তিন উইকেট নেন। তাতে দ্বিতীয় ম্যাচেই এক ইনিংসে ৫ উইকেট নিয়ে বিশ্বকাপ দলে জায়গা পেতে নির্বাচকদের সুনজরে পড়লেন রাহী। ৯ ওভারে ৫৮ রান দিয়ে ৫ উইকেট নেন তিনি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
আয়ারল্যান্ড : ৫০ ওভারে ২৯২/৮ (স্টার্লিং ১৩০, ম্যাককলাম ৫, বলবার্নি ২০, পোর্টারফিল্ড ৯৪, ও’ব্রায়েন ৩, অ্যাডায়ার ১১, উইলসন ১২, ডকরেল ৪, ম্যাককার্থি ১* আবু জায়েদ ৫/৫৮, রুবেল ১/৪১, সাইফ ২/৪৩, মোসাদ্দেক ০/৩২, সাকিব ০/৬৫, মাশরাফি ০/৪৭)।
বাংলাদেশ : ৪৩ ওভারে ২৯৪/৪ (তামিম ৫৭, লিটন ৭৬, সাকিব ৫০ আহত অবসর, মুশফিক ৩৫, মাহমুদউল্লাহ ৩৫*, মোসাদ্দেক ১৪, সাব্বির ৭*; অ্যাডায়ার ১/৫২, ম্যাককার্থি ১/৬১, লিটল ০/৬৭, র‌্যানকিন ২/৪৮, ডকরেল ০/৫৭)।
ফল : বাংলাদেশ ৬ উইকেটে জয়ী।
ম্যাচসেরা : আবু জায়েদ রাহী।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
ash ১৬ মে, ২০১৯, ৮:১৬ এএম says : 0
SESH PORJONTO JENO AMON TAGOT NIA KHELE, JODI PABER BETA HOW !! ABAR PUSKAIA JEO NA
Total Reply(0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন