ঢাকা, সোমবার ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬, ১৩ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

ইসলামী প্রশ্নোত্তর

প্রশ্ন : তারাবীর নামাজ না পড়ে রোজা রাখলে, রোজার সওয়াব পাওয়াব যাবে? নাকি সওয়াব কমে যাবে?

ইলিয়াস
গাউছিয়া, নারায়নগঞ্জ।

প্রকাশের সময় : ২৮ মে, ২০১৯, ১২:১৭ এএম

উত্তর : বিধিগতভাবে রমজানের রোজার সাথে তারাবীর তেমন কোনো সম্পর্ক নাই। দু’টো সম্পূর্ণ আলাদা বিষয়। ফরজ রোজা রাখলে এর নির্দিষ্ট সওয়াব মানুষ পেয়ে যাবে। তারাবীর জন্য আলাদা সওয়াব। তারাবী না পড়ে রোজা রাখলে রোজার কোনো ক্ষতি হবে না। তবে, রমজানের পরিপূর্ণ ফজীলত লাভের ক্ষেত্রে দিনের বেলা রোজা ও রাতের বেলা রমজানের বিশেষ নামাজের সমন্বয় কাম্য। 

সূত্র : জামেউল ফাতাওয়া, ইসলামী ফিক্হ ও ফাতাওয়া বিশ্বকোষ।
উত্তর দিয়েছেন : আল্লামা মুফতি উবায়দুর রহমান খান নদভী

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (7)
নোমান ২৮ মে, ২০১৯, ১০:০৩ এএম says : 2
রমজানুল মুবারকের পরিপূর্ণ রহমত, মাগফিরাত ও নাজাত লাভ করতে হলে রোজার পাশাপাশি তারাবির নামাজ আদায় করতে হবে। আল্লাহতায়ালা আমাদের তাওফিক দিন।
Total Reply(0)
জামিল ২৮ মে, ২০১৯, ৯:৫৭ এএম says : 2
নিয়মিত মাসয়ালার উত্তর দিয়ে আমাদের সহযোগিতা করায় ইনকিলাবকে মোবারকবাদ জানাচ্ছি
Total Reply(0)
মনিরুজ্জামান ২৮ মে, ২০১৯, ৯:৫৮ এএম says : 2
আসুন আমরা সবাই রোজার পবিত্রতা রক্ষা করে চলি
Total Reply(0)
Kamrul Islam ২৮ মে, ২০১৯, ৯:৫৮ এএম says : 2
আল্লাহ আমাদের সবাইকে যথাযথভাবে রোজা পালন করার তৌফিক দান করুক।
Total Reply(0)
সাইফুল ইসলাম ২৮ মে, ২০১৯, ১০:০০ এএম says : 2
পবিত্র মাহে রমজানের অন্যতম একটি আমল হলো তারাবির নামাজ। রহমতের এই মাসে প্রেম ও ভক্তির এই নামাজ রোজাদারের অন্তরকে নতুন আলোয় আলোকিত করে তোলে; বাড়ায় রুহানি শক্তি।
Total Reply(0)
শাহ মাহমুদ হাসান ২৮ মে, ২০১৯, ১০:০১ এএম says : 2
তারাবি অত্যন্ত ফজিলতপূর্ণ নামাজ, যার দ্বারা বান্দার জীবনের গুনাহ ক্ষমা করা হয়। রমজানের পরিপূর্ণ মাগফিরাত ও ক্ষমা লাভ করতে হলে রোজা ও তারাবি উভয় আমলই করতে হবে।
Total Reply(0)
সাদ্দাম ২৮ মে, ২০১৯, ৯:৩৭ এএম says : 2
thanks a lot
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন