মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৪ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

মুসা বিন শমসেরের দেয়া সম্পদের তথ্যে গড়মিল আছে -দুদক কমিশনার

প্রকাশের সময় : ২৯ জানুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কমিশনার মো. সাহাবুদ্দিন চুপ্পু বলেছেন, আলোচিত ব্যবসায়ী ও ড্যাটকো গ্রুপের চেয়ারম্যান মুসা বিন শমসেরের (প্রিন্স মুসা) দেয়া সম্পদের তথ্যর ‘গড়মিল’ আছে। তিনি বলেন, ‘কয়েক দিনের মধ্যেই আমরা মুসার সুইস ব্যাংকের ওই এ্যাকাউন্টের তথ্য পাব।
জিজ্ঞাসাবাদে মুসা জানিয়েছেন, তার পার্টনার কিছুদিনের মধ্যেই ওই এ্যাকাউন্টের কাগজপত্র দেশে পাঠিয়ে দেবে। এরপর মুসা তা কমিশনে সরবরাহ করবে।’  রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদক কার্যালয়ে গতকাল দুপুরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।
এদিকে ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষে ছিলেন বলে জানিয়েছেন আলোচিত ব্যবসায়ী ড. মুসা বিন শমসের। দুদক কার্যালয়ে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বের হওয়ার সময় গতকাল দুপুরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি আরো বলেন, সুইচ ব্যাংকে আটকে থাকা ১২ বিলিয়ন ডলারের যাবতীয় তথ্য দুদককে দিয়েছেন।
সাহাবুদ্দিন চুপ্পু বলেন, গুলশান ও বনানীতে দুটি বাড়ি ছাড়া সাভার ও গাজীপুরে এক হাজার ২০০ বিঘা জমির বিষয়ে মুসা জানান, যে আইনজীবী এসব দেখাশোনা করতেন তিনি মারা গেছেন। অল্পদিনের মধ্যেই ওই সব জমির কাগজপত্র কমিশনে দাখিল করবেন।
দুদকের অনুসন্ধানে মুসা অসহযোগিতা করেছেন মন্তব্য করে দুদক কমিশনার আরও বলেন, ‘কমিশনের অনুসন্ধানে মুসা অসহযোগিতা করেছেন। এ কারণে অনুসন্ধান শেষ করতে সময় লাগছে। তবে অনুসন্ধানে বেশ অগ্রগতি হয়েছে। এখন আর তেমন সময় লাগবে না। মুসার জমা দেওয়া সম্পদের হিসাবে গড়মিল পাওয়া গেছে।’ তবে মুসার বিরুদ্ধে মামলা হবে কি না তা অনুসন্ধান শেষে বলা যাবে বলেও জানান তিনি।
এর আগে গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টা ২০ মিনিট পর্যন্ত মুসাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক। দুদকের পরিচালক মীর মো. জয়নুল আবেদীন শিবলী তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। তবে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে দুদকের কাছে সকল তথ্য দেয়া হয়েছে বলে সাংবাদিকদের জানান প্রিন্স মুসা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন