ঢাকা, সোমবার ২৪ জুন ২০১৯, ১০ আষাঢ় ১৪২৬, ২০ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

ইসলামী বিশ্ব

আকাশে ভারতের চেয়ে এগিয়ে পাকিস্তান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১১ জুন, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

ভারতীয় বিমানবাহিনী গত ফেব্রুয়ারি মাসে পাকিস্তানের বালাকোটের সন্ত্রাসী শিবিরে একটি সাহসী সফল হামলা চালাতে পারে; তবে পাকিস্তানি বিমানবাহিনীর তুলনায় অনেক ক্ষেত্রেই তারা পিছিয়ে।

সম্প্রতি ভারতের দ্য প্রিন্ট অনলাইনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধ হলে ভারতের চেয়ে এগিয়ে থাকবে পাকিস্তানের বিমানসেনারা।

এ বছরের ফেব্রুয়ারিতে জম্মু ও কাশ্মীরের পুলওয়ামায় ভয়াবহ আত্মঘাতী জঙ্গি হামলা ৪০ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। ওই সময় দুই দেশের বিমানসেনাদের পক্ষ থেকে দাবি করে বলা হয়, তারা একে অপরের বিমান গুলি করে মাটিতে নামিয়েছে। ভারতের পক্ষ থেকে এও বলা হয় যে পাকিস্তানের বালাকোটে জঙ্গি আস্তানা গুঁড়িয়ে দিয়ে এসেছে ভারতের বিমানবাহিনীর সেনারা। যদিও এ হামলার পর হতাহত মানুষের সংখ্যা নিয়ে বিতর্ক চলছে এখনো। এমন সময় এ প্রতিবেদন প্রকাশিত হলো।

যুদ্ধবিমান ও পাইলটে পাকিস্তানের চেয়ে পিছিয়ে ভারত

সামরিক শক্তিতে পাকিস্তানের চেয়ে ভারত অনেক এগিয়ে আছে বলে দেশটির নেতারা বলে বেড়ান। কিন্তু স¤প্রতি ভারতের দ্য প্রিন্ট পত্রিকা জানিয়েছে অন্য রকম তথ্য। প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের উচ্চ সূত্রের বরাত দিয়ে প্রিন্টের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের বিমানবাহিনী পাকিস্তানের চেয়ে লোকবলে পিছিয়ে আছে। ভারতের বিমানবাহিনীতে বর্তমানে প্রতিটি বিমানের জন্য পাইলটের সংখ্যা মাত্র দেড়জন করে। সেখানে পাকিস্তানের বিমানবাহিনীতে এ সংখ্যা আড়াইজন করে। এখানে পিছিয়ে আছে ভারত।

যুদ্ধে এগিয়ে থাকবে পাকিস্তান

পাইলটের লোকবলের সংখ্যায় এগিয়ে থাকার পর দিনে ও রাতের যুদ্ধে এগিয়ে থাকবে ভারতের অন্যতম প্রতিপক্ষ পাকিস্তান। দুই দেশের মধ্যে দিনে ও রাতে যুদ্ধ হলে ভালো অবস্থায় থাকবে পাকিস্তান। বিমানের পাইলট কম থাকায় চাপে থাকবে ভারতের বিমানবাহিনীর সেনাসদস্যরা। কারণ, যুদ্ধের কাজ চালাতে ভারতের পাইলটদের ক্লান্তি চলে আসবে। আর সংখ্যায় বেশি হওয়ায় উড্ডয়নের বেশি সুযোগ পাবেন পাকিস্তানের পাইলটেরা।

ভারতে বোমাবর্ষণ অনুশীলনের যথেষ্ট সুযোগ নেই

ভারতের ওয়েস্টার্ন এয়ার কমান্ড পাকিস্তান ও আংশিকভাবে চীনের আকাশপথের ওপরে নজরদারি চালায়। এদের একটিও ‘ফায়ারিং রেঞ্জ’ নেই, যা দ্বারা যুদ্ধের সময়ে শত্রæর আস্তানায় বা নিশানার ওপর বোমা ফেলার অনুশীলন করা যায়।

ভারতের বিমানসেনারা ‘সিমুলেশন’ বা কম্পিউটারে নকল যুদ্ধক্ষেত্রে বোতাম টিপে বোমা ফেলার অনুশীলন করেন, যা কখনো সত্যিকারের অনুশীলনের বিকল্প নয় বলে স্বীকার করেছে বিমানসেনাদের একটি সূত্র।

উচ্চতায় সমস্যা

চীনের সঙ্গে উত্তরে ও পূর্বে ভারতের যে সীমানা আছে, সেখানকার সমস্যা উচ্চতা। তবে উচ্চতায় বোমাবর্ষণ করার অনুশীলনের বিমান নেই ভারতের বিমানবাহিনীর। এর ফলে যুদ্ধ বাধলে কতটা সাফল্য তারা পাবে, তা নিয়ে সন্দেহ আছে ভারতের সামরিক বিশ্লেষকদের। ভারতের বিমানসেনাদের অনুমোদিত স্কোয়াড্রন শক্তি হচ্ছে ৪২। আর অফিসারদের সংখ্যা ১২ হাজার ৫০০। একেকটি স্কোয়াড্রনে ১৬ থেকে ২০টি যুদ্ধবিমান আছে। যদিও প্রতিবছর গড়ে মাত্র ২ শতাংশ হারে অনুমোদিত অফিসারের সংখ্যা কমেছে।

দীর্ঘদিন ধরে এই অভাব চলতে থাকায় এখন সমস্যা বড় হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ ছাড়া এখন মিগের বদলে দুই আসনবিশিষ্ট এসইউ ৩০ এমকেই বিমান ভারতের বহরে যোগ হয়েছে। আর এতে ভারতের প্রয়োজন হয়ে পড়েছে আরও বেশি পাইলটের। সেখানেই লোকবলের অভাব ভারত বুঝতে পারছে বলে প্রিন্ট বিভিন্ন সূত্র থেকে জেনেছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (14)
Mohammad Jehad ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫১ এএম says : 0
আমি চাই যুদ্ধ হোক, দুইটা দুইটিরে মেরে ধ্বংস হোক তারপর আমরা দুইদেশ দখল করমু ,তারপর বিএনপি কে দিয়ে দিবো পুরো পাকিস্তান জামায়াতেকে কাশ্মীর ,আর আওয়ামী লীগ চালাবে ভারত, আর আমরা যারা সাধারন জনগন আছি আমরা চালাবো বাংলাদেশ ,আহা শান্তিতে বাংলাদেশ ।
Total Reply(0)
Mohammad Jehad ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫১ এএম says : 0
আমি চাই যুদ্ধ হোক, দুইটা দুইটিরে মেরে ধ্বংস হোক তারপর আমরা দুইদেশ দখল করমু ,তারপর বিএনপি কে দিয়ে দিবো পুরো পাকিস্তান জামায়াতেকে কাশ্মীর ,আর আওয়ামী লীগ চালাবে ভারত, আর আমরা যারা সাধারন জনগন আছি আমরা চালাবো বাংলাদেশ ,আহা শান্তিতে বাংলাদেশ ।
Total Reply(0)
Saiful Islam ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫১ এএম says : 0
আশা করি বালাকোট বিমান হামলার সিনেমায় ভারতীয় বিমান বাহিনী যোজন যোজন এগিয়ে থাকবে, সিনেমা রিলিজের অপেক্ষায় রইলাম.....
Total Reply(0)
Mohammed Sirajul Islam ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৩ এএম says : 0
আকাশে এগিয়ে কিছু বাং বুদ্ধিজীবির দৃষ্টিতে মাটিতেও এগিয়ে।গত কয়দিন আগে দেখলাম ইমরান চতুর্দিকে হাত পাততাছে,তাহলে পিছিয়ে কোন দিক দিয়ে।আর এতে আমাদেরইবা কি?
Total Reply(0)
Mohammed Sirajul Islam ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৩ এএম says : 0
আকাশে এগিয়ে কিছু বাং বুদ্ধিজীবির দৃষ্টিতে মাটিতেও এগিয়ে।গত কয়দিন আগে দেখলাম ইমরান চতুর্দিকে হাত পাততাছে,তাহলে পিছিয়ে কোন দিক দিয়ে।আর এতে আমাদেরইবা কি?
Total Reply(0)
Tansiv Sakiri ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৩ এএম says : 0
আসল যুদ্ধ যেখানে সেখানেও পাকিস্তান এগিয়ে। সেটা হলো পারমাণবিক বোমা। সুতরাং ভারতের এই যুদ্ধংদেহী মনোভাব বন্ধ করা উচিৎ। এখানে 170 কোটি লোকের জীবন জড়িত
Total Reply(0)
Milad Alamgir ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
পাকিস্তানের এগিয়ে থাকার প্রশ্নই আসে না!জ্বালানি তেলের অভাবে পাকিস্তান অধিকাংশ বিমান পরিচালনা করতে পারবে না।অপরদিকে ভারতের তেমন কোনো সমস্যা নেই!কারণ তারা বিমানের জ্বালানি হিসেবে ব্যবহার করে "গরুর মুত্র"।ফলে তাদের বিমানগুলি রকেট গতি লাভ করে।সুতরাং পাকিস্তানের পক্ষে আকাশে ভারতকে ঠেকানো প্রায় অসম্ভব!
Total Reply(0)
Pratik ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
পাকিস্তানের উচিত দুই তিনটি যুদ্ধ বিমান বিক্রি করে দেশের অর্থনীতি ফিরিয়ে আনা।
Total Reply(0)
Pratik ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
পাকিস্তানের উচিত দুই তিনটি যুদ্ধ বিমান বিক্রি করে দেশের অর্থনীতি ফিরিয়ে আনা।
Total Reply(0)
Rafiur ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
পাকিস্তান যেখানে যুদ্ধবিমান তৈরী করছে, সেখানে ভারতে এখনো ক্রয়ের মধ্যে সিমাবদ্ধ।
Total Reply(0)
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৬ এএম says : 0
ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে কি একটাও পূর্ণাঙ্গ যুদ্ধ হয়েছে ? আর যদি পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে সর্বাত্মক যুদ্ধ লাগে, তাহলে কি কোনো দেশ এখন জিততে পারবে ? তার আগেই পারমানবিক বোমার আঘাতে দুই দেশ ছাই হয়ে যাবে।
Total Reply(0)
Najmul Hossain ১১ জুন, ২০১৯, ৩:৫৬ এএম says : 0
সাম্প্রতিক সামরিক শ্তক্তিতে ও ট্যাকনোজলিতে ভারতের চেয়ে পাকিস্তান এগিয়ে আছে। পাকিস্তান নিজেরাই বিভিন্ন আধুনিক যুদ্ধ সরঞ্জাম তৈরি করছে আর অন্য দিকে কিছুদিন পর পর ভারত ইস্রাইল থেকে বাজার অচল কিছু বাজি(বোম) ক্রয় করে বাহাদরি করে। এতা ঠিক আছে আগের তিন বার যুদ্ধের সময় পাকিস্তান ও ভারত কারো কাছে আধুনিক পারমানবিক বোমা ছিল না । এখন এদের কাছে এই বোমা আছে তাই ভারতের চাপাবাজদের আগের ইতিহাস ভুলে বাস্তবতা বুঝতে হবে এবং মানতে হবে নতুবা অভিনন্দন মত ধরা খাইয়া পাবলিকের মাইর খাইতে হবে।
Total Reply(0)
alim ১১ জুন, ২০১৯, ৪:৫৩ পিএম says : 0
ভারতের বিমান না টইলেট বানানো অচিত।
Total Reply(0)
alim ১১ জুন, ২০১৯, ৫:০২ পিএম says : 0
মুখোমুখি জুদ্ধে পাকিস্তান জিতবে।পাকিস্তানের অর্ধেক সৈন্যর ইমান যদি মজবুত থাকে তাহলেই হবে। আফগানিস্থানের কাছে কি আসে?তালেবান দের কাসে কোন বিমান,পাইলট,মিসাইল নাই তাও ওরা রাশিয়া/আমেরিকা রে সাইজ দিসে।পাকিস্তনের কাসে জেসব অস্ত্র আসে তার অর্ধেক অস্র যদি তালেবান দের কাসে থাকত তাহলে ওরা ইন্ডিয়া/চায়না পুরাটা দখল করত চার বছরে।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন