ঢাকা, সোমবার ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬, ১৩ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

খেলাধুলা

ভারত-নিউজিল্যান্ডের অপরাজিত থাকার মিশন

জাহেদ খোকন | প্রকাশের সময় : ১২ জুন, ২০১৯, ৯:৩৭ পিএম

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপে অপরাজিত থাকার মিশনে বৃহস্পতিবার পরস্পরের মোকাবেলা করছে ভারত ও নিউজিল্যান্ড। ট্রেন্ট ব্রিজে বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৩টায় শুরু হবে ম্যাচটি। আসরের অষ্টাদশ এ ম্যাচটিকে ঘিরে দু’শিবিরেই রয়েছে টানটান উত্তেজনা। দু’দলেরই লক্ষ্য ম্যাচ জিতে সেমিফাইনালের পথে এগিয়ে যাওয়া।

বিশ্ব কাপের দ্বাদশ আসরে দারুণ ছন্দে রয়েছে নিউজিল্যান্ড। এখন পর্যন্ত তিন ম্যাচের সবক’টিতেই জিতেছে তারা। ব্যাটিং, বোলিং বা ফিল্ডিংয়ে অন্য দলগুলোর চেয়ে এবার বেশ গোছানো কিউইরা। তাই পারফরমেন্সের বিচারে বলাই যায় ইংল্যান্ড-ওয়ালস বিশ্বকাপ শিরোপার অন্যতম দাবিদার নিউজিল্যান্ড। অন্যদিকে ভারতও এবার শক্তিশালী দল। টুর্নামেন্টের হট ফেভারিটও তারা। ইতোমধ্যে দু’ম্যাচ খেলে দু’টিতেই জয় পেয়েছে ভারতীয়রা। নিউজিল্যান্ড যেখানে শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানকে হারিয়েছে সেখানে ভারত জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকা ও বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে। কেন উইলিয়ামসরা চাইবেন ম্যাচ জিতে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখতে। আর বিরাট কোহলিদের লক্ষ্য থাকবে অপরাজিতের তকমা ধরে রাখা। তাই বলা যায় শক্তিশালী এই দু’দলের লড়াইটি হবে খুবই উপভোগ্য।

শক্তির বিচারে নিউজিল্যান্ডের চেয়ে কোন অংশে কম না থাকলেও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে কপালে ভাজ ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির। আগের ম্যাচে দারুণ খেলে অস্ট্রেলিয়াকে ৩৬ রানে হারালেও খুব একটা স্বস্তিতে নেই তারা। তাদের মাথায় এখন উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান শিখর ধাওয়ানের আঙুলের চোট। রোহিত শর্মার সঙ্গে এতদিন ভালই উদ্বোধন করছিলেন ধাওয়ান। অজিদের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেছিলেন তিনি। কিন্তু ওই ম্যাচেই ধাওয়ান আঙুলের চোট পান। ফলে চিকিৎসকরা তাকে তিন সপ্তাহ মাঠের বাইরে থাকার পরামর্শ দেন। কিউইদের মোকাবেলার আগে ধাওয়ানের ইনজুরি তাই ভাবিয়ে তুলেছে ভারতীয় শিবিরকে। নিউজিল্যান্ড ম্যাচে তার অনুপস্থিতি দলের ওপেনিং জুটিতে কতটা প্রভাব ফেলে সেটাই এখন দেখার বিষয়। ধাওয়ান না থাকায় তার জায়গায় হয়তো চার নম্বর থেকে তুলে আনা হতে পারে কেএল রাহুলকে। বিশ্বকাপের মাঝ পথে হঠাৎ করে ব্যাটিং উদ্বোধন করতে আসা সহজ কথা নয়। তাও আবার নিউজিল্যান্ডের বিখ্যাত সীম আক্রমণের সামনে।

ট্রেন্ট ব্রিজের মাঠ ছোট, ম্যাচের আগে আকাশে মেঘও থাকবে। আবহাওয়ার খবরে বলা হয়েছে, এ ম্যাচে বৃষ্টি জ্বালাবে। তাই ১০০ ওভার খেলা হওয়ার সম্ভাবনা কম। বিকেলের দিকে বজ্রপাত সহ বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আগের দু’ম্যাচে ভারতের স্পিনাররা নজর কাড়লেও এমন পরিস্থিতিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে কোহলি কী করেন তাই দেখার বিষয়। তবে পেস আক্রমণ শক্তিশালী হওয়ার দরুণ দু’দলই চাইবে ফিল্ডিং নিতে।

তিন ম্যাচ থেকে পূর্ণ ৬ পয়েন্ট পেয়ে নিউজিল্যান্ড এখন পয়েন্ট তালিকায় সবার উপরে। তিরিশ উইকেটের পনেরোটা ভাগাভাগি করে নিয়েছেন লোকি ফর্গুসন আর ম্যাট হেনরি। তাদেরকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন কলিন দি'গ্রন্দহম আর জিমি নিশমও। কাজেই ভারতের ব্যাটিং লাইনআপ যতই দুর্ধর্ষ হোক না কেন, কেন উইলিয়ামসের চিন্তার বিশেষ কোনো কারণ নেই।

তবে ব্যাটিংয়ের কথা আলাদাভাবে বলা দরকার। আগের তিনটে ম্যাচেই নিউজিল্যান্ডের ব্যাটিং মূলতঃ টপ অর্ডারের ওপর নির্ভরশীল ছিল। ভারতের বিপক্ষে বৃহস্পতিবার তাদের মিডল অর্ডার কী করে সেটাই এখন দেখার বিষয়।

ম্যাচে ভারতীয় দলের যাদের উপর চোখ থাকবে তাদের মধ্যে অন্যতম জসপ্রীত বুমরাহ। যিনি আইসিসি র‍্যাঙ্কিংয়ে বর্তমানে বিশ্বের সেরা ওয়ানডে বোলার। এই টুর্নামেন্টে যখনই দরকার পড়েছে, তখই উইকেট নিয়ে দেখিয়েছেন বুমরাহ। পিচ থেকে মুভমেন্ট, বাউন্স তো পানই, তাঁর বলের কারিকুরিও দেখার মত। নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যানরা কীভাবে তাঁকে মোকাবেলা করেন সেটাই দেখার অপেক্ষায় আছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা। অন্যদিকে কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসের দিকে বিশেষ নজর থাকবে এ ম্যাচে। যে কোনো পরিবেশ ও পরিস্থিতিতে রান করে দেখিয়ে সাম্প্রতিককালের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান হিসেবে নিজেকে পরিচিত করেছেন কেন উইলিয়ামস। স্পিনারদের বিরুদ্ধে তাঁর দক্ষতাও প্রশ্নাতীত। ভারতের বিপক্ষে ইনিংসের হাল ধরার দায়িত্ব নিতে হবে তাকেই। সর্বশেষ মোকাবেলায় কিন্তু এগিয়ে রয়েছে ভারতই। এ বছর ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ ৪-১ ব্যবধানে জিতে উজ্জীবিত রয়েছে ভারতীয়রা। এ জয়ই বৃহস্পতিবারের ম্যাচে প্রেরণা যোগাবে কোহলির দলকে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন