ঢাকা, সোমবার, ১৯ আগস্ট ২০১৯, ০৪ ভাদ্র ১৪২৬, ১৭ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

অভ্যন্তরীণ

কুমিল্লায় দরবারে হামলা-মামলা প্রত্যাহার হুমকিতে উদ্বিগ্ন বাদী

কুমিল্লা থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ জুলাই, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

কুমিল্লার একটি দরবার শরীফে হামলার ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া হামলাকারি জামিনে এসে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর ভয়ভীতি দেখাচ্ছে দরবারের খাদেমসহ সংশ্লিষ্টদের। মামলা প্রত্যাহার করতে আসামিদের হুমকি ধমকিতে নিরাপত্তাহীনতা ও উদ্বিগ্ন হয়ে ওঠেছেন বাদীপক্ষ।

গতকাল শনিবার সকালে কুমিল্লা প্রেসক্লাবে কুমিল্লার বুড়িচংয়ের নুরনগর দরবার শরীফের পক্ষে সৈয়দ বদিউল আলম কানু সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করেন, প্রায় দুই বছর আগে ওই গ্রামের রজ্জব হোসেন ও শাহাদাত হোসেনসহ বেশকিছু লোকজন নুরনগর দরবারের বাগান ও রোজা শরিফে সন্ত্রাসী হামলা, ভাঙচুর চালিয়ে প্রায় তিন লাখ টাকার সম্পদ নষ্ট করে।

এ ঘটনায় কুমিল্লার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে তিনি মামলা মামলা করেন। মামলাটি চলমান অবস্থায় কুমিল্লা জেলা পরিষদ সদস্য তারেক হায়দারের হস্তক্ষেপে সামাজিক সালিশে আসামি রজ্জব হোসেন ক্ষমা প্রার্থনাসহ ভবিষ্যতে এ ধরণের কর্মকান্ড করবে না মর্মে অঙ্গিকার করায় মামলাটি নিষ্পত্তি করা হয়। কিন্তু ওই ঘটনার দুই বছর পর গত ১১ জুন রজ্জব হোসেন ও শাহাদাত হোসেনের নেতৃত্বে দরবারের ২৬টি ফলদ গাছ কেটে ফেলে এবং খাদেমের ওপর হামলার চেষ্টা চালায়। ঘটনাটি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান লালন হায়দারকে অবহিত করে ১৭ জুন আদালতে রজ্জব হোসেন ও শাহাদাত হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। মামলার খবর পেয়ে আসামিরা গত ২৮ এবং ২৯ জুন দরবার শরীফে ফের সন্ত্রাসী হামলা চালায়। এ মামলায় আসামি শাহাদাত গ্রেফতার হয়ে পরে জামিনে বেরিয়ে এসে দরবারের লোকজনকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর হুমকি দিচ্ছে। যার প্রেক্ষিতে গত ১০ জুলাই মারধরের একটি মিথ্যা ঘটনা সাজায়।

এদিকে বুড়িচং দেবপুর ফাঁড়ির এস আই কামাল উদ্দিন বলেন, কাঠালিয়া গ্রামে নুরনগর দরবার শরিফের সৈয়দ বদিউল আলম কানুর দায়ের করা একটি মামলা আদালতে চলমান রয়েছে। তবে কয়েকদিন আগে কাঠালিয়া গ্রামে তিনজন আহত হওয়ার যে খবর প্রচার হয়েছে এটির কোন সত্যতা পায়নি পুলিশ। এমনকি এ বিষয়ে থানা বা ফাঁড়িতে কেউ অভিযোগও করেনি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন