ঢাকা, শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ২০১৯, ০৮ ভাদ্র ১৪২৬, ২১ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

খেলাধুলা

ক্রিকেটে যুক্ত হলো নতুন নিয়ম

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ জুলাই, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

গত কয়েক দিন ধরে বিষয়টি ছিল আলোচনায়। অবশেষে তা বাস্তবায়িত হলো। এখন থেকে খেলার সময় মাথায় আঘাত পাওয়া খেলোয়াড়ের বদলি নামানো যাবে। লন্ডনে চলমান আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) সভায় গত বৃহস্পতিবার এই নিয়মের অনুমোদন দেয়া হয়। এছাড়া ¯েøা ওভার রেটের কিছু নিয়ম যুক্ত করেছে ক্রিকেটর অভিভাবক সংস্থাটি।

ক্রিকেটের গতানুগতিক নিয়ম অনুযায়ী ১১ জন নয়, এবার বাইশ গজের খেলায় দেখা যেতে পারে তারও অধিক ক্রিকেটারকে, তা-ও আবার একই দলে। এমনই নিয়ম চালু করেছে আইসিসি। এই নিয়মে ম্যাচ চলাকালীন মাথায় আঘাত লেগে কোনও ক্রিকেটার খেলতে না পারলে, তার পরিবর্তে ক্রিকেটার নামাতে পারবে সংশ্লিষ্ট দল। আগের নিয়মেও পরিবর্তনের সুযোগ ছিল। তবে পরিবর্তিত ক্রিকেটার শুধুমাত্র ফিল্ডিং করতে পারতেন। তবে নতুন নিয়মে পরিবর্তিত ক্রিকেটার ব্যাটিং এমনকি বোলিংও করতে পারবেন। পুরুষ ও নারী- দুই ধরনের ক্রিকেটেই চালু হচ্ছে এই নিয়ম। আলোচিত এই নিয়মের শুরুটা হবে ইংল্যান্ড ও অস্টেলিয়ার মধ্যকার ১ আগষ্ট অনুষ্ঠিত অ্যাশেজ থেকেই। এর আগে এই আইন প্রণয়ন নিয়ে আইসিসি জানিয়েছিল কেবল মাত্র টেস্ট ম্যাচেই এই আইন থাকবে। তবে এবারের বার্ষিক সভায় পাশ হয় সব ধরনের ক্রিকেটেই থাকছে আঘাত প্রাপ্ত খেলোয়াড় বদলির এই নতুন নিয়ম।

আইসিসি এক বিবৃতিতে জানায়, বদলি খেলোয়াড় নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেবেন দলের ফিজিও। বদলি ক্রিকেটারকে অবশ্যই একই মানের হতে হবে এবং তাতে অনুমোদন লাগবে ম্যাচ রেফারিরও।

মাথায় আঘাত প্রাপ্ত খেলোয়াড়ের পরিবর্তে বদলি খেলোয়াড় নামানোর আলোচনা বেশ কয়েক বছর ধরেই চলছে। অস্ট্রেলিয়ার টেস্ট ওপেনার ফিলিপ হিউজ ২০১৪ সালে শেফিল্ড শিল্ডে ব্যাটিংয়ের সময় মাথায় আঘাত পেয়ে মারা যান। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) ওই ঘটনার তদন্ত করার পরই বিষয়টি সবার সামনে চলে আসে।

এ ছাড়া ক্রিকেট কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী, ¯েøা ওভার রেটের শাস্তিতে পরিবর্তন এনেছে আইসিসি। টানা ¯েøা ওভার রেটের কারণে অধিনায়ক আর নিষিদ্ধ হবেন না। আগে শাস্তিতে অধিনায়কের ম্যাচ ফি’র পঞ্চাশ শতাংশ কেটে নেওয়া হতো এবং বাকি পঞ্চাশ শতাংশ কাটা হতো দলের অন্য ক্রিকেটারদের ম্যাচ ফি থেকে। এখন দলপতির সমান তাদেরও জরিমানা গুনতে হবে।

 

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (6)
আসাদু জ্জামান ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১১ এএম says : 0
"বদলী খেলোয়ারকে অভিন্ন হতে হবে" মানে হচ্ছে একই ধরনের খেলোয়ার হতে হবে। ১০ নাম্বারে নামা ব্যটসম্যানের যায়গায় ওপেনার পাঠিয়ে দেয়া যাবেনা, আরেকজন ১০ নাম্বারে নামার যোগ্যতাসম্পন্ন খেলোয়ারকেই নামাতে হবে। সুতরাং যারা মনে করছেন দল হারছে এমন মুহুর্তে ১১ নম্বর ব্যটসম্যানরে মাথায় বাড়ি দিয়া নতুন ওপেনার মাঠে নামাবেন তারা এখন বসে বসে মাথার চুল ছিঁড়েন।
Total Reply(0)
Kazi Sharfaraz Mawla ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
আইসিসিকে সুস্বাগতম।তবে,সভায় এবারের ক্রিকেট বিশ্বকাপে সুপার ওভার সহ (বেশী বাউন্ডারি মারা দল এবং ওভার থ্রোতে বাউন্ডারী হলেও দৌড়ে নেওয়া রান যোগ করা এবং ২ দ্বিতীয় রান নিতে গিয়ে রান আউট হলেও প্রথমে নেওয়া রান যোগ করা) এই ধরনের উদ্ভট নিয়ম গুলো পরিবর্তন করারও দরকার ছিলো।ফাইনালে এই নিয়ম গুলোকে,ক্রিকেট পাগল দর্শক,নামি-দামি সাবেক প্লেয়ার ও প্রখ্যাত সমালোচকেরা যে,মেনে নেননি তাতো আইসিসির অজানা থাকার কথা নয়।
Total Reply(0)
MD Rakib AL Hasan ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
একই ক্যাটাগরির প্লেয়ার যদি রিপ্লেস করে নামানো হয়া তাহলে তো দেখা যাচ্ছে যে প্রায় ৫/৬ জন প্লেয়ার স্ট্যন্ডবাই রাখা লাগবে
Total Reply(0)
রেজওয়ান হৃদয় ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১২ এএম says : 0
ভালই হলো, ব্যাট ধরতে না জানা বোলারকে ইঞ্জুরি দেখাইয়া ব্যাটসম্যান নামানো যায়বো
Total Reply(0)
Iqbal Iqbal ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১৩ এএম says : 0
আরেক বিতর্ক শুরু করল আইসিসি
Total Reply(0)
Muhammad Osman ২০ জুলাই, ২০১৯, ১:১৩ এএম says : 0
এই নিয়মে বিতর্ক হবে প্রবল। একজন খেলোয়াড় যখন চোটে আক্রান্ত হবে, চোট গুরুতর নাকি খেলার উপযুক্ত সেটা বিবেচনা করার জন্য একজন নিরপেক্ষ ডাক্তার অবশ্যই প্রয়োজন। না হলে সৃষ্টি হবে বিতর্ক!
Total Reply(0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন