ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৮ সফর ১৪৪১ হিজরী

ইসলামী বিশ্ব

সন্ত্রাস ও বিচ্ছিন্নতাবাদমুক্ত করতেই স্বায়ত্তশাসন খর্ব

কাশ্মীর বিষয়ে জাতির উদ্দেশে ভাষণে মোদি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০১ এএম

আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের নৈতিক সাহস নিয়ে প্রশ্ন ইমরানের

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেছেন, কাশ্মীরকে ‘সন্ত্রাস ও বিচ্ছিন্নতাবাদ’ থেকে মুক্ত করার জন্য তার স্বায়ত্তশাসন খর্ব করা হয়েছে। কাশ্মীরকে সামরিক জালে আবদ্ধ করে ফেলার পর তার প্রথম মন্তব্যে মোদি জোর দিয়ে বলেছেন যে, তার সরকার একটি ‘ঐতিহাসিক সিদ্ধান্ত’ নিয়েছে।
হিন্দু জাতীয়তাবাদী বিজেপি সরকার সোমবার একটি প্রেসিডেনশিয়াল ডিক্রির মাধ্যমে মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ অঞ্চলের সাংবিধানিকভাবে গ্যারান্টিযুক্ত মর্যাদাকে নষ্ট করেছে। ভারতীয় সংসদও এই রাজ্যকে দুটি অঞ্চলে বিভক্ত করে আইন পাস করে। এদিন থেকেই প্রচÐ প্রতিক্রিয়ার ভয়ে কার্যত অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারত বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলেছে। টেলিফোন, ইন্টারনেট সংযোগ বন্ধ করে দিয়ে পুরো কাশ্মীরবাসীকে গৃহবন্দি করে রাখা হয়েছে।
এমন পরিস্থিতিতে গতকাল জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিতে গিয়ে জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের পক্ষে সাফাই গাইলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতীয় সংবিধানের অনুচ্ছেদ ৩৭০ বাতিলে পাকিস্তানের সঙ্গে উত্তেজনা শুরুর পর গতকাল স্থানীয় সময় রাত ৮টার দিকে জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন ভারতের এই প্রধানমন্ত্রী। এ সময় অনুচ্ছেদ ৩৭০ বাতিল হওয়ার ব্যাপারে তিনি বলেন, এটি এ অঞ্চলের মানুষকে মুক্ত করবে এবং দেশের অন্যান্য অংশের সঙ্গে তাদের আরো ঘনিষ্ঠতা বাড়বে।
প্রায় ৪০ মিনিট ধরে দেয়া ভাষণে মোদি বলেন, জম্মু-কাশ্মীরে নতুন যুগের সূচনা হয়েছে। এখন দেশের প্রত্যেকেই সমান অধিকার এবং সুবিধা ভোগ করবেন। তিনি জম্মু-কাশ্মীর, লাদাখ এবং দেশের সব মানুষকে অভিনন্দন জানান।
মোদি বলেন, অনুচ্ছেদ ৩৭০ ও ৩৫-এ জম্মু-কাশ্মীরকে সন্ত্রাসবাদ, বংশীয় পরম্পরা ও দুর্নীতির দিকে টেনে নিয়ে গেছে। এসবের মাঝে সেখানকার জনগণ পাকিস্তানের অস্ত্র হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে। গত তিন দশকে কাশ্মীরে নিষ্পাপ ৪২ হাজার মানুষের প্রাণ গেছে। ৪২ হাজার নিষ্পাপ মানুষ!
কেন্দ্রের অধীনে থাকায় এখন জম্মু-কাশ্মীরে পরিকাঠামো, যোগাযোগ, ব্যবসা, পর্যটন, শিক্ষা, স্বাস্থ্য সব ক্ষেত্রে উন্নয়ন গতি আসবে বলে দাবি করেন নরেন্দ্র মোদি। তবে বেশি দিন যে জম্মু-কাশ্মীর কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল থাকবে না বলেও ইঙ্গিত দেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী।
মোদি বলেন, আমরা সবাই চাই আগামী কয়েক দিনের মধ্যে জম্মু কাশ্মির বিধানসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে, নতুন সরকার গঠন হবে নতুন মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত হবেন। আমি কাশ্মিরি জনগনকে আশ্বস্ত করতে চাই যে, আপনারা খুবই দায়িত্ববান। স্বচ্ছ পরিবেশে নিজেদের প্রতিনিধি বেছে নেয়ার সুযোগ পাবেন আপনারা।
ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী বলেন, আপনারা জেনে অবাক হবে যে দশকের পর দশক ধরে কাশ্মিরে এরকম হাজার হাজার সহোদর রয়েছেন যাদের কারো হয়তো শুধু লোকসভা নির্বাচনে ভোটের অধিকার রয়েছে। কিন্তু এখন থেকে তারা বিধানসভা ও স্থানীয় নির্বাচনেও ভোট দিতে পারবেন। দেশ বিভাগের পর পাকিস্তান থেকে ভারতে আসা এসব মানুষদের ওপর এই অবিচার আর কতদিন চলতে পারে?
নরেন্দ্র মোদি বলেন, দশকের পর দশক পারিবারিক শাসনের কারণে জম্মু কাশ্মিরের তরুণেরা নেতৃত্ব দেয়ার সুযোগ পায়নি। এখন তরুণেরা নেতৃত্ব দিয়ে কাশ্মিরের উন্নয়নকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে যাবে। আমি তরুণদের জম্মু কাশ্মিরের বোন ও কন্যাদের নিজ ভ‚মির উন্নয়নের দায়িত্ব নেওয়ার আহŸান জানাচ্ছি। কাশ্মীরবাসীকে ঈদের আগাম শুভেচ্ছা জানিয়ে ধুমধাম করে ঈদ পালনের কথাও বলেন মোদি।
আর সবশেষে উপত্যকার বাসিন্দাদের প্রতি মোদীর আহŸান, ‘আসুন সবাই মিলে সন্ত্রাসমুক্ত, বিচ্ছিন্নতাবাদমুক্ত এমন এক শান্তির উদ্যান গড়ে তুলি কাশ্মীরকে, যাতে সারা বিশ্বে নজির তৈরি হবে।’
আন্তর্জাতিক স¤প্রদায়ের নৈতিক সাহস নিয়ে প্রশ্ন ইমরানের
এদিকে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান প্রশ্ন তুলেছেন, ভারত-অধিকৃত কাশ্মীরে সংঘবদ্ধ সম্ভাব্য গণহত্যা বন্ধে বিশ্ব স¤প্রদায়ের ‘নৈতিক সাহস’ রয়েছে কি-না? অধিকৃত কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা প্রত্যাহারের নয়া দিল্লির পদক্ষেপের প্রতিবাদে পাকিস্তান ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কারের একদিন পর টুইটারে এই মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, কাশ্মীরের ওপর জোরপূর্বক বলবৎ কারফিউ তুলে নেয়ার পর সেখানে কী ঘটে তা দেখার জন্য বিশ্ব অপেক্ষা করছে।
‘বিজেপি সরকার কি ভারত অধিকৃত কাশ্মীরিদের বিরুদ্ধে বৃহত্তর সামরিক শক্তি ব্যবহার করে ভাবেন, এটি স্বাধীনতা আন্দোলন বন্ধ করবে?’ প্রধানমন্ত্রী নিজেই প্রশ্নের উত্তর দেয়ার আগে জিজ্ঞাসা করেছিলেন: ‘সম্ভবত এটি আরো গতিশীল হবে।’
কাশ্মীর নিয়ে পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে উত্তেজনা বৃদ্ধির প্রেক্ষাপটে যুক্তরাষ্ট্র দক্ষিণ এশিয়ার দুই প্রতিবেশী দেশকে শান্ত থাকতে ও সংযম প্রদর্শন করার আহŸান জানিয়েছে। কাশ্মীর বিরোধ নিরসনে পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে সরাসরি আলোচনারও দাবি জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। চীনও ভারতের এই উদ্যোগের নিন্দা জানায়। বিতর্কিত কাশ্মির অঞ্চল নিয়ে ভারতের উদ্যোগে ব্রিটেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডমিনিক রাবও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।
নিজেদের আকাশপথ আংশিক বন্ধ করে দিয়েছে পাকিস্তান। গতকাল থেকে দু’দেশের মধ্যে চলাচলকারী সমঝোতা এক্সপ্রেসের সব শিডিউল বাতিল করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী শেখ রশিদ আহমাদ। পাকিস্তানে ভারতীয় সিনেমার প্রদর্শন নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটির সরকার। বৃহস্পতিবার দেশটির প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও স¤প্রচার বিষয়ক বিশেষ দূত ফিরদৌস আশিক আওয়ান এই তথ্য জানিয়েছেন।
ভারতশাসিত কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের ঘটনায় উদ্ভ‚ত সংকটে ওই অঞ্চলের শিশু ও নারীদের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন পাকিস্তানের নোবেলজয়ী মানবাধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজাই। বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে দেয়া এক বিবৃতিতে তিনি এ উদ্বেগ জানান। সূত্র : এএফপি, এপি, ডন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
Ansari ৯ আগস্ট, ২০১৯, ১২:১১ পিএম says : 2
এতো স্রেফ ভাওতাবাজী, নোংরা রাজনৈতিক চাল । আরব ভূমিতে ইসরায়েল রাষ্ট্র করে ইহুদি বসতি স্থাপনের মাধ্যমে মুসলমানরা এখন কোণঠাসা, অসহায় । একইভাবে, কেন্দ্র শাসনের মাধ্যমে উগ্র হিন্দুবাদে বিশ্বাসী দলগুলি কাশ্মীরের উপর পুরো নিয়ন্ত্রণ নিতে চাচ্ছে । অমুসলিমরা সমাজের সবক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত হবে কেন্দ্রের পৃষ্ঠপোষকতায় । মুসলমানরা হবে কোণঠাসা, অসহায়। কৌশলগতভাবে, পাকিস্তানের উপর সুবিধাজনক অবস্থানে থাকবে। সন্দেহ নেই, কিছু মুসলমান বিশ্বাসঘাতকও পেয়ে যাবে ।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন