ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২২ আগস্ট ২০১৯, ০৭ ভাদ্র ১৪২৬, ২০ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

জাতীয় সংবাদ

দুই নাতনিকে নিয়ে বাসার রান্না করা খাবার খেয়েছেন খালেদা জিয়া

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১২ আগস্ট, ২০১৯, ৬:৩৩ পিএম

দুই নাতনিকে নিয়ে বাসার রান্না করা খাবার খেয়েছেন খালেদা জিয়া।

দুই নাতনি জাহিয়া ও জাফিয়া হচ্ছেন তার মরহুম ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর কন্যা। দু‘জনই তাদের মা শর্মিলা রহমান সিঁথির সাথে কারাবন্দি দাদী খালেদা জিয়াকে দেখতে এসেছিলো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে। স্বজনদের নিকটজনের সাথে আলাপ করে জানা গেছে, অসুস্থ বেগম খালেদা জিয়া দুই নাতনিকে দেখে খুশি হয়েছেন। দাদীকে পায়ে ধরে সালাম করার পর দুই নাতনিকে বুকে জড়িয়ে আদর করেন খালেদা জিয়া।
পরিবারের সদস্যরা জানান, বেগম জিয়ার শারীরিক অবস্থা ভালো নয়। তিনি কারো সাহায্য ছাড়া একা হাটতে পারেন না, হুইল চেয়ারে করে তাকে চলাচল করতে হয়। ডায়াবেটিক থাকায় প্রতিদিনই তাকে ইনস্যুলিন নিতে হবে। রয়েছে দাঁত ও চোখের সমস্যা। হাত-পায়ে আর্থারাইটিসের ব্যথাও রয়েছে তার। ২০১৫ সালের ২৪ জানুয়ারি মালয়েশিয়ায় হৃদরোগে আক্রান্ত কোকো মারা যায়। গত ১ এপ্রিল থেকে অসুস্থ বিএনপি চেয়ারপারসন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ৬২১ নম্বর কেবিন চিকিৎসা নিচ্ছেন।

ঈদের দিন কারা কর্তৃপক্ষ সীমিত পরিসরে ৬ জন দেখার অনুমতি দেয়। কোকোর স্ত্রী ও দুই মেয়ে ছাড়া ছিলেন- খালেদা জিয়ার ছোট ভাই শামীম এস্কান্দার, স্ত্রী কানিজ ফাতেমা ও ছেলেঅভিক এস্কান্দার। বেলা দেড়টার দিকে খালেদা জিয়ার সাথে সাক্ষাত করতে হাসপাতালের কেবিন ব্লকে আসেন তারা। ছোট ছেলের বউ শ্বাশুড়ির (খালেদা জিয়া) জন্য বাসা থেকে খাবার রান্না করা নিয়ে আসেন। প্রায় দুই ঘন্টা নাতনি, ছোট ছেলে বউসহ ছোট ভাইয়ের পরিবারের সাথে সময় সময় কাটিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেলা দেড়টায় খালেদা জিয়ার স্বজনদের বিএসএমএমইউর ছয়তলার কেবিনের কাছে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কারাগারের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তারা খালেদা জিয়ার কেবিন কক্ষে প্রবেশ করেন।

সেবাশুশ্রশার জন্য গৃহকর্মী ফাতেমা বেগমও খালেদা জিয়ার সাথে বন্দি রয়েছেন। সেও স্বজনদের সাথে একই সাথে খাবার খেয়েছেন। মহিলা দলের সুলতানা আহমেদ, সাবিনা ইয়াসমীনসহ ১৫/১৬ নেতা-কর্মীও কেবিন ব্লকের সামনে সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে থেকে তাদের নেত্রীকে স্মরণ করে। ছাত্র দলের ৫/৬ জন নেতা-কর্মীকেও কেবিন ব্লকের কাছে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে।

গত ১ এপ্রিল থেকে খালেদা জিয়া বিএসএমএমইউ হাসপাতালে ভর্তি হন।

কারাগারে খালেদা জিয়া এ নিয়ে ঈদ করেছেন ৬ বার।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন