ঢাকা, শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬, ২১ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

অবৈধভাবে খড়খড়িয়া নদী থেকে বালু উত্তোলন

সৈয়দপুরে চার ব্যক্তির জেল-জরিমানা, শ্যালো মেশিন ধ্বংস

নজির হোসেন নজু, সৈয়দপুর (নীলফামারী) থেকে | প্রকাশের সময় : ১৯ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০১ এএম

নীলফামারীর সৈয়দপুরে অবৈধভাবে খড়খড়িয়া নদী থেকে বালু উত্তোলনের অভিযোগে চার ব্যক্তিকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তিন মাসের করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালত। গতকাল ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সৈয়দপুর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) পরিমল কুমার সরকার ওই অর্থ ও কারাদন্ডাদেশদেন। এছাড়া অবৈধভাবে নদী থেকে বালু উত্তোলন কাজে ব্যবহৃত একটি একটি মাহিন্দ্র ট্রাক্টর জব্দ ও শ্যালোমেশিন, কয়েক ফুট প্লাষ্টিকেরসহ অন্যান্য উপকরণ সামগ্রী ধ্বংস করা হয়েছে।

ভ্রাম্যমান আদালতে সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার চার নম্বর বোতলাগাড়ী ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের জানেরপাড় এলাকায় খড়খড়িয়া নদী থেকে শ্যালো মেশিন লাগিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করা হচ্ছিল। সৈয়দপুর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) পরিমল কুমার সরকার বিশ্বস্ত সূত্রের খবর ভিত্তিতে গতকাল সৈয়দপুর থানার পুলিশ সদস্যদের নিয়ে ইউনিয়নের উল্লিখিত এলাকায় তাৎক্ষণিক অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানকালে ইউনিয়নের জানেরপাড় এলাকায় খড়খড়িয়া নদী থেকে একটি শ্যালোমেশিন সাহায্যে প্লাষ্টিকের পাইপ লাগিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের ঘটনাটি প্রত্যক্ষ করেন। এ সময় বালু উত্তোলন ও পরিবহন কাজে জড়িত ৪ ব্যক্তিকেও ঘটনাস্থলে থেকে হাতেনাতে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমান আদালত আটক চার ব্যক্তিকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তিন মাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেন। ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) পরিমল কুমার সরকার। অর্থ ও কারাদন্ডপ্রাপ্তরা হচ্ছে, সৈয়দপুর উপজেলার বোতলাগাড়ী ইউপি জানেরপাড়া এলাকার মৃত. আজিজুল সরকারের ছেলে মো. জনি (৩০), একই উপজেলা ও ইউনিয়নের কাঠালীপাড়ার মৃত. টুনিয়া মামুদের ছেলে মো.ি সদ্দিক (৩৫), দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার ফতেজংপুর ইউনিয়নের চৌধুরীপাড়ার মো. হালিমের ছেলে মো. সাগর (২০)এবং একই জেলা, উপজেলার ও ইউনিয়নের দীঘলপাড়ার মো. রজব আলীর ছেলে মো. দুলাল (২৫)। অভিযানকালে অবৈধভাবে খড়খড়িয়া নদী থেকে বালু উত্তোলন কাজে ব্যবহৃত একটি মাহিন্দ্র ট্রাক্টর জব্দ এবং শ্যালোমেশিন ও কয়েক ফুট প্লাষ্টিকের পাইপসহ অন্যান্য উপকরণ সামগ্রী ঘটনাস্থলে পুঁড়িয়ে ধ্বংস করা হয়েছে। অভিযানে সৈয়দপুর থানার সহকারি উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মো. নুরে আলমসহ পুলিশ সদস্য ও উপজেরা ভূমি অফিসের অফিস সহকারি শাহ আমানত সুফীসহ অন্যান্য উপস্থিত ছিলেন।
ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সৈয়দপুর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) পরিমল কুমার সরকার বলেন, অনুমোদন ছাড়া নদী থেকে বালু উত্তোলন দন্ডনীয় অপরাধ। আটককৃতদের বালুমহাল ও মাটি ব্যবস্থাপনা আইন- ২০১০ এর ৪ (গ) ধারায় ওই অর্থ ও কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন