ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ২৯ আশ্বিন ১৪২৬, ১৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

ডি মারিয়ার জোড়া গোলে রিয়ালকে উড়িয়ে দিল পিএসজি

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৩:০৪ এএম | আপডেট : ৪:০৮ এএম, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

আক্রমণভাগে দলের সেরা তারকাদের অনুপস্থিতি বুঝতে দিলেন না আনহেল ডি মারিয়া। শৈল্পিক ফুটবলে পিএসজির হয়ে আর্জেন্টাইন উইঙ্গার একাই করলেন দুই গোল। হারের হতাশায় ইউরোপিয়ান মিশন শুরু করল প্রতিযোগিতার সফলতম দল রিয়াল মাদ্রিদ।

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বুধবার প্যারিসের পার্ক দেস প্রিন্সেসে ‘এ’ গ্রুপের ম্যাচে জিনেদিন জিদানের দলকে ৩-০ গোলে উড়িয়ে দেয় টমাস টুখেলের পিএসজি। ফ্রেঞ্চ চ্যাম্পিয়নদের হয়ে অন্য গোলটি করেন তমা মুনিয়ে।

গোছালো আক্রমণ আর পাল্টা আক্রমণের ম্যাচে উত্তেজনা ছড়ালো বেশ। তবে আক্রমণের শেষটা ভালো ছিল না রিয়ালের। প্রথমবারের মত রিয়ালের একাদশে সুযোগ পাওয়া এদেন আজার নিজেকে সেভাবে মেলে ধরতে পারেনি। করিম বেনজেমা-গ্যারেথ বেলরা আক্রমণে ভীতি ছড়ালেও পুরো ম্যাচে লক্ষ্যে কোনো শটই রাখতে পারেননি তারা। সবচেয়ে বেশি ভুগিয়েছে নিষেধাজ্ঞায় থাকা রক্ষণসেনানী সার্জিও রামোসের অনুপস্থিতি। বিপরীতে গোছালো আক্রমণ থেকে পুরোপুরি ফায়দা আদায় করে নেয় পিএসজি।

আক্রমণভাগের তিন তারকা নেইমার-এমবাপে-কাভানির অনুপস্থিতি বুঝতে দেননি চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শততম ম্যাচ খেলতে নামা ডি মারিয়া। ইন্টার মিলান থেকে ধারে খেলতে আসা ফরোয়ার্ড মাউরো ইকার্দিকে একাদশে নামান পিএসজি কোচ।

শুরু থেকেই উজ্জীবিত ফুটবল খেলতে থাকা পিএসজি এগিয়ে যেতে সময় নেয়নি। ম্যাচের চতুর্দশ মিনিটে বাঁ প্রান্ত দিয়ে গোছালো আক্রমণে হুয়ান বের্নাটের বাড়ানো কাট ব্যাক ডি বক্সের ভিতর থেকে কোনাকুনি উঁচু শটে জাল খুঁজে নেন ডি মারিয়া।

৩২তম মিনিটে গ্যারেথ বেলের নেওয়া ফ্রি-কিক পোস্টের সামান্য বাইরে দিয়ে বেরিয়ে যায়।

গোল পেয়ে উজ্জীবিত ফুটবল খেলতে থাকা পিএসজি এর পরের মিনিটেই ব্যবধান দ্বিগুণ করে। এবারও রিয়ালের জালে বল পাঠিয়ে স্বাগতিকদের উল্লাসের উপলক্ষ্য এনে দেন ডি মারিয়া। সতীর্থের বাড়ানো বল পেয়ে ডি বক্সের ঠিক বাইরে থেকে মাপা শটে গোলরক্ষক থিবো কোর্তোয়াকে পরাস্ত করেন রিয়ালের সাবেক তারকা।

৩৫তম মিনিটে জালে বল পাঠিয়ে রিয়ালকে আনন্দের উপলক্ষ এনে দিয়েছিলেন বেল। কিন্তু ভিএআরে দেখা যায় শট নেয়ার আগে বল বেলের হাতে লেগেছিল। পাঁচ মিনিট পর ওয়েলস তারকার নেওয়া দূরপাল্লার গড়ানো শট বারের পাশ ঘেঁসে বেরিয়ে গেলে হতাশা নিয়ে বিরতিতে যেতে হয় সফরকারীদের।

দ্বিতীয়ার্ধেও রিয়ালের খেলায় কোনে পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়নি। এবারও প্রথম সুযোগ তৈরি করে পিএসজি। ৬০তম মিনিটে বাম প্রান্ত দিয়ে গোছালো আক্রমণে বুদ্ধিদীপ্ত পাস দেন ডি মারিয়া। পাবলো সারাবিয়ার প্লেসিং শট পোস্ট ঘেঁসে বেরিয়ে যায়।

গোলের জন্য মরিয়া হয়ে ওঠা রিয়াল ৭৭তম মিনিটে জালে বল পাঠিয়েও গোল উদযাপন করতে পারেনি করিম বেনজেমার অফসাইডের কারণে। পরের মিনিটে ম্যাচের সবচেয়ে ভালো সুযোগ পায় রিয়াল। সতীর্থের বাড়ানো ক্রসে নেয়া বেনজেমার হেড লক্ষ্যভ্রষ্ঠ হয়।

ম্যাচের যোগ করা সময়ে পাল্টা আক্রমণে স্বাগতিকদের হয়ে স্কোরলাইন সমৃদ্ধ করেন মুনিয়ে। বড় জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে পিএসজি।

ক্লাব ব্রুজ ও গালাতাসারাইয়ের মধ্যকার গ্রুপের অপর ম্যাচটি গোলশূন্য ড্র হয়।

‘ডি’ গ্রুপে মাদ্রিদের ওয়ান্দা মেত্রোপলিতানোয় হুয়ান কার্দানো ও ব্লাইজ মাতুইদির গোলে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে থেকেও জয় নিয়ে ফিরতে পারেননি জুভেন্টাস। ম্যাচের যোগ করা সময়ে বদলি খেলোয়াড় হেক্টর হেরেইরার গোলে স্কোরলাইন ২-২ করে মাঠ ছাড়ে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।

একই গ্রুপের অপর ম্যাচে বায়ার লেভারকুসেনকে তাদেরই মাঠে ২-১ গোলে হারায় লোকোমতিভ মস্কো।

‘বি’ গ্রুপের ম্যাচে কোম্যান, রবার্ট লেভান্দোভস্কি ও টমাস মুলারের গোলে ঘরের মাঠে রেড স্টার বেলগ্রেডকে ৩-০ গোলে হারায় বুন্দেসলিগা জায়ান্ট বায়ার্ন মিউনিখ।

অলিম্পিয়াকোস ও টটেনহাম হটস্পারের মধ্যকার গ্রুপের অপর ম্যাচটি ২-২ ড্র হয়।

‘সি’ গ্রুপে প্রত্যাশিত জয় পেয়েছে প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার সিটি। রিয়াদ মাহরেজ, ইকায় গন্ডোয়ান, ও গ্যাব্রিয়েল জেসুসের গোলে শাখতার দোনেৎস্কের মাঠ থেকে ৩-০ গোলের জয় নিয়ে ফিরেছে পেপ গার্দিওলার দল।

গ্রুপের অপর ম্যাচে ক্রোয়াট ফরোয়ার্ড মিস্লাভ ওরিসিচের হ্যাটট্রিকে নিজেদের মাঠে আটালান্টাকে ৪-০ গোলে হারায় দিনামো জাগরেব।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন