ঢাকা, বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ০১ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ সফর ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

সন্ত্রাস বন্ধে জীবন দিতে হলে দেবো: কামাল হোসেন

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১০ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:৫০ পিএম | আপডেট : ১:২৩ পিএম, ১০ অক্টোবর, ২০১৯

গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন বলেছেন, দলমত নির্বিশেষে ঐক্যবদ্ধভাবে আজকে বলতে হবে যে, এই ধরণের সন্ত্রাস বন্ধ করতে হবে। এটা বন্ধ করতে হবে। এটা থেকে দেশকে মুক্ত করতে হবে। এটা কোন রকমের ছাড় নাই বাংলাদেশে। জীবন দিতে হলে দেবো। কিন্তু এটাকে মেনে নেওয়া যাবে না।

বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) জাতীয় প্রেসক্লাবে গণফোরাম আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব বলেন।

'আরবার হত্যার বিচারের দাবিতে এবং আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির প্রেক্ষিতে' এই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্য করে কামাল হোসেন বলেন, একটা ছেলে তার মতপ্রকাশ করেছে। তাকে এভাবে পিটিয়ে পিটিয়ে মারা ষোল আনা সংবিধান, রাষ্ট্র ও দেশবিরোধী। এই ঘটনায় আমরাও উদ্বিগ্ন, আপনারাও উদ্বিগ্ন এবং দেশের নাগরিকরাও উদ্বিগ্ন। তাই নাগরিক হিসেবে আজকে আমাদের একটা অবস্থান নিতে হবে।

তিনি বলেন, তদন্ত দাবি করা হচ্ছে, ভালো কথা। তবে তদন্ত মানে তদন্ত। নামকাস্তে একটা ঘটনা ঘটানো না। তদন্ত মানে তদন্ত। উচ্চ পর্যায়ের ব্যক্তি নিয়ে এই তদন্ত কমিটি গঠন করা হোক।

আরবার ফাহাদের হত্যার বিষয়ে ড. কামাল বলেন, যারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে, তাদেরকে আমি ছেলে বলবো না, এরা হচ্ছে, জানোয়ার।

লিখিত বক্তব্যে গণফোরামের নির্বাহী অ্যাভোকেট সভাপতি সুব্রুত চৌধুরী বলেন, ক্ষসতাসীন দলের ছাত্র সংগঠনের দৃর্বৃত্তায়িত নেতাকর্মী এমন বেপরোয়া হয়ে উঠেছে যে, তারা আজ ফ্র্যাঙ্ককেন স্টাইলের মতো আচরণ করছে। হলে হলে টর্চার সেল। বুয়েট, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে, ইডেন মহিলা কলেজ এবং ঢাকা কলেজের হোস্টেলগুলোতে রয়েছে টর্চার সেল। টার্গেটে থাকা শিক্ষার্থীকে টর্চার করার আগে দেয়া হয় বিরোধী কোনো সংগঠনের তকমা। এটা অত্যন্ত ন্যাক্কারজনক, রাজনৈতিক ভন্ডামী ও কৌশলী প্রতারণা।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, আসুন, দলমত নির্বিশেষে ঐক্যবদ্ধভাবে দুর্নীতিগ্রগ্রস্ত, ভন্ড, গণবিরোধী ও কর্তৃত্ববাতী শাসন থেকে দেশকে মুক্ত করি। দেশে কার্যকর গণতন্ত্র ও সুশাসন প্রতিষ্ঠার আন্দোলনে ঐক্যবদ্ধভাবে ঝাঁপিয়ে পড়ি।

সংবাদ সম্মেলনে অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, মোকাব্বির খান এমপি, অধ্যাপক ড. আবু সাঈদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন