ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ২৯ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ভোলা ঘটনায় জড়িতদের শাস্তি দিন

বিভিন্ন ইসলামী দলের বিক্ষোভ সমাবেশে নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২২ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

ভোলায় পুলিশের গুলি বর্ষণে নবীপ্রেমিকদের হতাহতের ঘটনায় দোষীদের অবিলম্বে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। আল্লাহ ও রাসূল (সা.) এর বিরুদ্ধে কটুক্তিকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির বিধান পাশ করতে হবে। ভোলায় নবীপ্রেমিকদের নির্বিচারের হত্যাকান্ডের দায় সরকার এড়াতে পারে না। রোববার ভোলার বোরহান উদ্দিনে রাসূল (সা.) এর কটুক্তির প্রতিবাদে মুসল্লিদের বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের গুলিতে হতাহতের ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ ও দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বিভিন্ন ইসলামী দলের বিক্ষোভ সমাবেশে নেতৃবৃন্দ এসব কথা বলেন। 

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নায়েবে আমীর মুফতী সৈয়দ ফয়জুল করীম বলেছেন, ভোলায় রাসূল (সা.) এর প্রেমিক মুসল্লিদের সমাবেশে পুলিশের নির্বিচারে গুলি বর্ষণে হতাহতের ঘটনায় জড়িতদের অবিলম্বে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। গতকাল সোমবার বাদ যোহর বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের উত্তর প্রান্তে ভোলায় পুলিশের গুলি বর্ষণে মুসল্লি হতাহতের প্রতিবাদ ও বিচারের দাবিতে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশে মুফতী সৈয়দ ফয়জুল করীম প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন।
তিনি বলেন, মুসল্লি হতাহতের দায়ভার সরকারকেই নিতে হবে । তিনি ২৫ অক্টোবর শুক্রবার সারাদেশের মসজিদগুলোতে শহীদদের স্মরণে দোয়া এবং জেলা জেলায় বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করেন।
ঢাকা মহানগর উত্তর সভাপতি প্রিন্সিপাল মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন আন্দোলনের প্রেসিডিয়াম সদস্য প্রিন্সিপাল মাওলানা সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানী, মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ুম।
পরে একটি বিশাল মিছিল বায়তুল মোকাররম উত্তর গেট থেকে বের হয়ে পল্টন মোড় পৌঁছলে পুলিশ মিছিলের গতি রোধ করে।
ইত্তেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া মোহাম্মদপুর ঢাকা
ভোলায় মহানবী (সা.) ও আল্লাহ তাআলাকে নিয়ে কটুক্তিকারীর সর্বোচ্চ শাস্তি এবং মুসল্লি হতাহতের প্রতিবাদে গতকাল সোমবার মোহাম্মদপুরে ইত্তেফাকুল মাদারিসিল কওমিয়া মোহাম্মদপুর ঢাকার উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সভাপতির বক্তব্যে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের মহাসচিব ও জামিআ রাহমানিয়া আরবীয়ার প্রিন্সিপাল মাওলানা মাহফুজুল হক বলেছেন, রাসূল (সা.) এর বিরুদ্ধে কটুক্তিকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যু দন্ডের আইন জাতীয় সংসদে পাশ করতে হবে। মুফতি উমর ফারুকের পরিচালনায় সমাবেশে বক্তব্য আরো রাখেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক, মাওলানা জালালুদ্দীন আহমদ, মাওলানা আতাউল্লাহ আমীন । সমাবেশে শেষে বিক্ষোভ মিছিল বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে মোহাম্মদপুর চৌরাস্তায় গিয়ে শেষ হয়।
আন্তর্জাতিক মজলিসে তাহাফফুজে খতমে নবুওয়ত বাংলাদেশ
আন্তর্জাতিক মজলিসে তাহাফফুজে খতমে নবুওয়ত বাংলাদেশ-এর সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা নূরুল ইসলাম ভোলায় নবীপ্রেমিকদের নির্বিচারে গুলি করে শহীদ করার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছেন, মহানবী (সা.)এর শানে উস্কানিমূলক স্ট্যাটাস দেশ ও জাতির জন্য অশনিসঙ্কেত। শহীদের রক্ত অতীতেও বৃথা যায়নি। ভবিষ্যতেও যাবে না। তিনি ভোলায় গুলি বর্ষণে চারজন শহীদের হত্যাকান্ডে জড়িত পুলিশদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি জানান।
গতকাল সোমবার বাদ যোহর নগরীর খিলগাঁও চৌরাস্তায় আন্তর্জাতিক মজলিসে তাহাফফুজে খতমে নবুওয়ত বাংলাদেশের উদ্যোগে ভোয়ায় নবীপ্রেমিক মুসল্লিদের হতাহতের ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ পূর্ব সমাবেশে মাওলানা নূরুল ইসলাম সভাপতিত্বের বক্তব্যে একথা বলেন।
এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কওমী শিক্ষক সমিতির সভাপতি মাওলানা আব্দুল কাইয়ূম সুবহানী, মাওলানা জহরুল ইসলাম, মাওলানা ইউনুস ঢালী, মাওলানা আহমদ আলী কাসেমী, মাওলানা আল আমীন, মাওলানা আশেকুল্লাহ, মাওলানা রাশেদ বিন নুর। পরে ভোলায় পুলিশের গুলি বর্ষণে নবীপ্রেমিকদের খুনীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়।
ছারছীনার পীর ছাহেবের বিবৃতি
আমীরে হিযবুল্লাহ ছারছীনা শরীফের পীর ছাহেব কেবলা আলহাজ্ব হযরত মাওলানা শাহ্ মোহাম্মদ মোহেব্বুল্লাহ ভোলার বোরহানউদ্দিনে রাসূল (সা.) প্রেমিক তৌহিদী জনতার উপর হামলায় কয়েকজন নিহতের ও শতাধিক ধর্মপ্রাণ মুসলমান আহত হওয়ার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।
এক বিবৃতিতে ছারছীনার পীর ছাহেব বলেন, ভোলায় নবী (সা.) কে নিয়ে যে অবমাননা করা হয়েছে ,তা কোনভাবেই নবী প্রেমিক মুসলিম জনতা মেনে নিতে পারে না। মহানবী (সা.) আমাদের জানের চেয়েও প্রিয়। প্রিয় নবীর অপমান সইতে পারে না কোন মুসলমান। যে বা যারা এহেন জঘন্য অপরাধের সাথে জড়িত সরকারের উচিত হবে তাদেরকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আওতায় আনা। যেন ভবিষ্যতে এ ধরনের অপরাধ করার দুঃসাহস কেউ দেখাতে না পারে।
পীর ছাহেব বলেন, শতকরা ৯২ভাগ মুসলমানের দেশে বিশ্ব নবী (সা.) এর অবমাননা কোন ভাবেই বরদাশত করা হবে না। তিনি আল্লাহ ও রাসূল (সা.) এর বিরুদ্ধে কটুক্তিকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির বিধান জাতীয় সংসদে পাশ করার জন্য সরকারের কাছে আহবান জানান।
ঢাকায় হেফাজতের বিক্ষোভ মিছিল আজ
ভোলায় মুসল্লি হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচীর অংশ হিসেবে আজ মঙ্গলবার বাদ যোহর ঢাকা বায়তুল মোকাররম উত্তর গেটে প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল করবে ঢাকা মহানগর হেফাজতে ইসলাম। এতে সংগঠনের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমীর ও ঢাকা মহানগর সভাপতি আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমীসহ অন্যান্য শীর্ষ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থাকবেন।
গতকাল সোমবার ঘোষিত এই বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল কর্মসূচি সর্বাত্মকভাবে পালনের লক্ষ্যে আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমীর সভাপতিত্বে বারিধারাস্থ কার্যালয়ে মহানগর নেতৃবৃন্দের এক জরুরী বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।
বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টি
বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পাটির সভাপতি মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী মহানবীর (সা.) সম্পর্কে কটুক্তির বিরুদ্ধে বোরহান উদ্দিন উপজেলা সদরে আয়োজিত শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের নির্বিচারে গুলি বর্ষণে পৈশাচিক হতাহতের ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ করে বলেছেন, এধরনের নির্মম ঘটনা সংঘটিত হওয়ায় দেশবাসি বিস্মিত হতাশ হতবাক ও ক্ষুব্ধ।
জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম ঢাকা মহানগর
ভোলায় মুসল্লিদের শান্তিপূর্ণ সমাবেশ মিছিলে পুলিশের গুলিতে হতাহতের প্রতিবাদে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর এর উদ্যোগে নগরীতে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে ভোলায় মুসল্লি হতাহতের ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। তারা বলেন, ভোলায় নির্যাতিত প্রায় পাঁচ হাজার ব্যক্তির বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা অবিলম্বে প্রত্যাহার করতে হবে। এতে সভাপতিত্ব করেন , ঢাকা মহানগর জমিয়তের সভাপতি প্রিন্সিপাল মাওলানা বেলায়েত হোসাইন আল ফিরোজী।
গওহরডাঙ্গা মাদরাসায় করণীয় শীর্ষক বৈঠক আজ
ভোলায় নবীপ্রেমিকদের হতাহতের ঘটনায় আজ মঙ্গলবার টংগিপাড়ারস্থ গওহরডাঙ্গা মাদরাসায় দক্ষিণাঞ্চলিয় আলেম ওলামাদের করণীয় শীর্ষক বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। এতে সভাপতিত্ব করবেন মুফতী রুহুল আমিন।
যশোর : যশোরে সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে জেলা ইমাম পরিষদ সোমবার বিকালে শহরের দড়াটানা ভৈরব চত্বরে এক বিরাট বিক্ষোভ সমাবেশ করে। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন জেলা ইমাম পরিষদের সভাপতি মাওলানা আনওয়ারুল করিম যশোরী। বক্তব্য রাখেন, ইমাম পরিষদের সেক্রেটারি মাওলানা বেলায়েত হোসেন, সহ-সভাপতি মুফতী আব্দুর রশিদ ও মুফতী শামসুর রহমান, উপদেষ্টা মাওলানা রফিকুল ইসলাম, মাওলানা হামিদুল ইসলাম ও মুফতী মুজিবুর রহমান, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা আব্দুল্লাহ, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আরিফুল্লাহ আলমগীর।
সিলেট : সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ আনজুমানে তালামীযে ইসলামিয়া সিলেট জেলা ও মহানগর। সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি ছাত্রনেতা আখতার হোসাইন জাহেদ। মহানগর তালামীযের সভাপতি জাহেদুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সিলেট পশ্চিম জেলা সভাপতি শেখ আলী হায়দারের পরিচালনায় মিছিল পরবর্তি সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মাওলান বেলাল আহমদ ও কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মোজতবা হাসান চৌধুরী নুমান।
পটিয়া : পটিয়ায় পুলিশি বাধা উপেক্ষা করে তৌহিদী জনতার বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জামেয়াতুল ইসলামিয়া আরাবিয়া জিরি মাদরাসার শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিল শুরু করলে পুলিশ প্রথমে বাধা দেয়। প্রশাসনের সাথে বৈঠকের পর মাদরাসা শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিল বের করে এবং জিরি ফকিরা মসজিদ এলাকায় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন মাদরাসার সহকারী পরিচালক মাওলানা হুবাইব বিন তৈয়্যব। বক্তব্য রাখেন অধ্যাপক মাওলানা হুসাইন আল-মাহমুদ, জিরি মহিলা মাদরাসার শিক্ষা পরিচালক মাওলানা হুজাইদা মাহামুদ, চট্টগ্রাম ফয়জুল আবরার মাদরাসার পরিচালক মাওলানা জসিম উদ্দিন জিনজিরা, জিয়াউদ্দিন আল আজাদ প্রমুখ।
ফেনী: ফেনীতে হেফাজতে ইসলাম ফেনী জেলা শাখার উদ্যোগে এক বিশাল বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জেলা হেফাজতের সভাপতি মাও. আবুল কাশেমের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক মাও. ওমর ফারুকের পরিচালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন মাও. জালাল উদ্দিন ফারুকী প্রমুখ।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ব্রাহ্মণাবড়িয়ায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। দুপুরে সর্বস্তরের উলামা মাশায়েখ ও তৌহীদি জনতার ব্যানারে এ কর্মসূচি পালিত হয়। শহরের জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়া মাদরাসার সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। জামিয়া ইসলামিয়া ইউনুছিয়ার মাদরাসার প্রিন্সিপাল মুফতি মুবারকউল্লার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন আল্লামা সাজেদুর রহমান, মুফতি আব্দুর রহিম কাসেমী, মাওলানা ইউসুফ, মুফতি আব্দুর হকসহ প্রমুখ।
বিশ্বনাথ (সিলেট) : বিশ্বনাথের স্থানীয় বাসিয়া ব্রিজে এ মানববন্ধন অনুষ্টিত হয়। উপজেলা জমিয়তের সহ সভাপতি মাওলানা হাবিবুর রহমান ফারুকের সভাপতিত্বে ও উপজেলা ছাত্র জমিয়তের সাধারণ সম্পাদক ইমরান আহমদের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা জমিয়তের সহ সভাপতি ও হেফাজতে ইসলাম বিশ্বনাথ উপজেলা শাখার সভাপতি মাওলানা কামরুল ইসলাম ছমীর, উপজেলা জমিয়তের সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা ফখরুল ইসলাম, প্রচার সম্পাদক মাওলানা হাসান বিন ফাহিম প্রমূখ।
ঈশ্বরগঞ্জ : ময়মনসিংহ ঈশ্বরগঞ্জে ইত্তেফাকুল উলামার উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ইত্তেফাকুল উলামা ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলা শাখার সভাপতি মাও. আবুল ফজলের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক মাও. নুরুল আলম সাংগঠনিক সম্পাদক মুফতি মানসুর বিন আহমাদ, মুফতি শফিকুল ইসলাম হামিদী, মাওলানা নাঈমুল ইসলাম, মাও.আব্দুল মান্নান প্রমুখ।
মাগুরা : দুপুরে মাগুরা শহরে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। মিছিল শহর প্রদক্ষিণ শেষে স্থানীয় চৌরঙ্গী মোড়ে সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ইসলামী আন্দোলন মাগুরা শাখার সেক্রটারী হাফেজ মো. মনিরুজ্জামান। প্রধান অতিথি ছিলেন সাংগঠনিক সম্পাদক হোসাইন আহমেদ।
কক্সবাজার ব্যুরো জানায়, ভোলার বোরহানউদ্দিনে নবীপ্রেমিক তৌহিদী জনতার ওপর পুলিশের বর্বরোচিত হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল করেছে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ কক্সবাজার জেলা।
গতকাল বাদ আছর শহরের খুরুশকুল মাথায় তৌহিদী জনতার স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে সমাবেশ শেষে বিক্ষোভ মিছিল প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এ সময় মিছিলকারিরা বিপ্লব চন্দ্র শুভ এবং নবীপ্রেমিক তৌহিদী জনতার ওপর নির্বিচারে হামলাকারি পুলিশ সদস্যদের সর্বোচ্চ শাস্তি দাবিতে নানা স্লোগান দেন।
জেলা হেফাজতে ইসলামের সহ-সভাপতি ও নেজামে ইসলাম পার্টির জেলা আমীর মাওলানা হাফেজ ছালামতুল্লাহর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে স্বাগত বক্তৃতা রাখেন জেলা হেফাজতে ইসলামের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মুহাম্মদ ইয়াছিন হাবিব।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (2)
দীনমজুর কহে ২২ অক্টোবর, ২০১৯, ৯:১৫ পিএম says : 0
এ পর্যন্ত অনেক কমেন্ট করে সাস্তি দাবী করেছি।কিন্তু কোন কমেন্টই যথেষট মনে হচ্চেনা।আমরা আমজনতা কি বা করতে পারি।শুধু চোখেঁর পানি ছাড়া আর কোন সম্বল আছ? নামাজান্তে দোয়া করি আল্লাহ যেন আমাদের হেদায়েত দান করে।যারা আমাদের আল্লাহ এবংরাসুল কে এ ভাবে কটুক্তি করেছে তাদের সাস্তি দিতে সরকার এর শুভবুদ্বির উদয় হয়।
Total Reply(0)
দীনমজুর কহে ২২ অক্টোবর, ২০১৯, ৯:৩২ পিএম says : 0
এ পর্যন্ত অনেক কমেন্ট করে সাস্তি দাবী করেছি।কিন্তু কোন কমেন্টই যথেষট মনে হচ্চেনা।আমরা আমজনতা কি বা করতে পারি।শুধু চোখেঁর পানি ছাড়া আর কোন সম্বল আছ? নামাজান্তে দোয়া করি আল্লাহ যেন আমাদের হেদায়েত দান করে।যারা আমাদের আল্লাহ এবংরাসুল কে এ ভাবে কটুক্তি করেছে তাদের সাস্তি দিতে সরকার এর শুভবুদ্বির উদয় হয়। Allah Allah Allah***
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন