ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ১৪ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

মহানগর

পিস্তল, ইয়াবা থেকে যৌন উত্তেজক ওষুধ- সবই আছে কাউন্সিলর মনজুর বাসায়

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:৪৪ পিএম

ঢাকার রাজধানী সুপারমার্কেট ও নিউ রাজধানী সুপারমার্কেটের ‘স্বঘোষিত’ সভাপতি ছিলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) ৩৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর ময়নুল হক মনজু। এই বেপরোয়া চাঁদাবাজকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। সম্প্রতি রাজধানী সুপারমার্কেট ও নিউ রাজধানী সুপারমার্কেটে লোহার অ্যাঙ্গেল দিয়ে প্রতিটি ৩৫ বর্গফুট আয়তনের দোকান নির্মাণের প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন মনজু। সেখানে গতকাল ওই সব দোকান নির্মাণকাজ উদ্বোধন করা হয়। এর পরই মনজুকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে র‌্যাব টিকাটুলীর অফিসে অভিযান চালিয়ে কাউন্সিলর ময়নুল হক মনজুকে গ্রেপ্তার করে। পরে হাটখোলা রোডে তাঁর বাসায় অভিযান চালায়। এসব স্থান থেকে দুটি পিস্তল, মদ, গাঁজা, ইয়াবা, ফেনসিডিল ও যৌন উত্তেজক ট্যাবলেট জব্দ করা হয়। বাড়ি থেকে মনজুর গাড়িচালক সাজ্জাদকেও গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

এর আগে গত বুধবার রাতে কাজী রনি নামে রাজধানী সুপারমার্কেটের একজন ব্যবসায়ী ওয়ারী থানায় মনজুর বিরুদ্ধে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবির অভিযোগে মামলা করেন। র‌্যাব কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, চাঁদাবাজির মামলায় প্রথমে গ্রেপ্তার করা হলেও মনজুর বিরুদ্ধে অস্ত্র ও মাদক আইনে গতকাল দুটি মামলা হয়েছে। অর্থপাচারের প্রমাণ মিললে মানি লন্ডারিং আইনেও মামলা হবে। সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, মনজু ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের গত কমিটির সদস্য ছিলেন। বর্তমানে ওয়ারী থানা আওয়ামী লীগের সদস্য। প্রভাবশালী এই কাউন্সিলর সিটি করপোরেশনের সভায় নিয়মিত অনুপস্থিত থাকতেন। চলতি সপ্তাহের শুরুতে দক্ষিণ সিটির যে ২১ কাউন্সিলরকে কারণ দর্শাও নোটিশ পাঠানো হয়েছিল তার মধ্যে মনজু একজন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
ahammad ১ নভেম্বর, ২০১৯, ৩:৩৮ পিএম says : 0
পদবী ব্যাবহার করে সব কিছু চালাতে পারলে সভায় যাওয়ার দরকার কি ???? এই চাদা বাজ সন্ত্রাসী গডফাদার রাজনিতীর নামে কলঙ্ক,এইসব কুলাঙ্গারের দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তি কামনা করি। যেন তার সাজাদেকে অন্যরা সবাই সংসোধন হয়ে যায় এবং এই ধরনের কুকর্ম করার সাহস না পায়।
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন