ঢাকা, শুক্রবার , ১৫ নভেম্বর ২০১৯, ৩০ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

২২ মন্ত্রণালয়ের সবার ছুটি বাতিল

শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় বুলবুল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৯ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:৩৪ এএম

ভয়ঙ্কর ঘূর্ণিঝড় বুলবুলকে কেন্দ্র করে দেশের উপক‚লীয় জেলাগুলোতে দেখা দিয়েছে অনেক প্রভাব। তাই সারাদেশে ক্ষয়ক্ষতি কমাতে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে প্রশাসন। আজ শনিবার থেকে আগামীকাল রোববার প্রচুর বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুলের’ প্রভাবে আকাশ মেঘাচ্ছন্ন। গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হওয়া শুরু হয়েছে ঢাকাসহ উপক‚লীয় অঞ্চলে। মাছ ধরার ট্রলারগুলোকে তীরে ফেরার নির্দেশ দিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়। বন্ধ রয়েছে অভ্যন্তরীণ নৌযান চলাচল।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুল মোকাবিলায় সরকার সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান। ইতোমধ্যে খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর ও ভোলার জেলা প্রশাসকরা সরকারি কর্মচারীদের সরকারি ছুটি বাতিলের ঘোষণা দিয়েছেন। এছাড়া প্রতিটি জেলার দুর্যোগ মোকাবিলায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটিগুলোকে প্রস্তুত থাকার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।
গতকাল শুক্রবার বিকালে সচিবালয়ে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল মনিটরিং সেলের সভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে প্রতিমন্ত্রী এ কথা জানান। এ সময় মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব শাহ কামাল উপস্থিত ছিলেন।

আজ শনিবার সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত যেকোনো সময় ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ আঘাত হানবে জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, সাতটি জেলাকে ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। এরইসঙ্গে সংশ্লিষ্ট ২২টি মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ও কর্মচারীসহ জেলা-উপজেলা পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরও ছুটি বাতিল করা হয়েছে।
এনামুর রহমান বলেন, এরইমধ্যে সাইক্লোন সেন্টারসহ উপক‚লের আশ্রয় কেন্দ্রগুলো প্রস্তুত করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। প্রতিটি সাইক্লোন সেন্টারে দুই হাজার প্যাকেট করে শুকনো খাবার ও নগদ পাঁচ লাখ করে টাকা পাঠানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ বঙ্গোপসাগর থেকে উত্তর-পশ্চিম উপক‚লের দিকে এগিয়ে আসছে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদেরা।
দুর্যোগ প্রতিমন্ত্রী বলেন, আজ শনিবার সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাতে দেশের দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। তীব্র সাইক্লোনে রূপ নিয়েছে বুলবুল। সুন্দরবনের হিরণপয়েন্ট দিয়ে আঘাত হানতে পারে এটি। এর প্রভাবে ৭ ফুট পর্যন্ত জলোচ্ছ্বাস আঘাত হানতে পারে। বুলবুলের ঝুঁকিতে রয়েছে খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর ও ভোলা।

ঘূর্ণিঝড়টির অবস্থান সম্পর্কে আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, গতকাল সকালে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল চট্টগ্রাম বন্দর থেকে ৭৬৯ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার থেকে ৭১০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্র বন্দর থেকে ৬৬৫ কিলোমিটার দক্ষিণে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৫৫০ কিলোমিটার দক্ষিণে অবস্থান করছিল। ঘূর্ণিঝড়ের বাতাসের গতিবেগ ১১০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে।
পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপক‚লীয় জেলাগুলোর চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে জাহাজ থেকে সব ধরনের পণ্য ওঠানামা বন্ধ রাখা হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের বিষয়ে ইতোমধ্যে বাংলাদেশ ও ভারতের অধিকাংশ সংবাদমাধ্যম গুরুত্ব দিয়ে প্রকাশ করেছে।


পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মীদের কর্মস্থলে থাকার নির্দেশ
ঘূর্ণিঝড় বুলবুল বাংলাদেশের দিকে এগিয়ে আসায় উপকূলবর্তী জেলাগুলোতে পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মস্থলে থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
গতকাল শুক্রবার পানি উন্নয়ন বোর্ডের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ঘূর্ণিঝড় পরবর্তী জরুরি ব্যবস্থা নিতে ৮ থেকে ১৬ নভেম্বর উপকূলের সব জেলার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মস্থলে থাকতে হবে।
বোর্ডের জনসংযোগ পরিদফতরের পরিচালক মুন্সী এনামুল হক সাংবাদিকদের বলেন, উপকূলীয় এলাকায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের কার্যক্রম সচল রাখতেই এই নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। উপকূলীয় এলাকায় আমাদের অনেক বাঁধ রয়েছে। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে এসব বাঁধ ক্ষতিগ্রস্ত হলে যেন তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেয়া যায়, সেজন্য এই নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন