বুধবার, ১০ আগস্ট ২০২২, ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯, ১১ মুহাররম ১৪৪৪

জাতীয় সংবাদ

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে আ স ম রব আপনার সরকার অবৈধ বেআইনি

প্রকাশের সময় : ১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নার মুক্তি ও সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার দাবি জানিয়ে জেএসডির সভাপতি আ স ম আব্দুর রব বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী আপনার সরকার ইল্লিগাল, বেআইনি। আপনি অবৈধ এবং ফোর-টুয়েন্টি করছেন। আপনি নিজে বেআইনি ও অবৈধভাবে ক্ষমতায় আছেন বলে অন্যদের সকল কর্মকা--বেআইনি মনে করছেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশে রাজনৈতিকে নির্বাসন দেওয়া হয়েছে। মান্নার জনপ্রিয়তায় ভীত হয়ে বর্তমান অবৈধ ও বেআইনি সরকার ষড়যন্ত্র করে তাকে দেশদ্রোহীতার অভিযোগে কারারুদ্ধ করে রেখেছে। গতকাল রোববার রাজধানীর মিরপুরে একটি কমিউনিটি সেন্টারে মাহমুদুর রহমান মান্নার সুচিকিৎসা ও মুক্তির দাবিতে ঢাকা মহানগর নাগরিক ঐক্য আয়োজিত নাগরিক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।
নাগরিক ঐক্য ঢাকা মহানগর উত্তরের আহ্বায়ক শহীদুল্লাহ কায়সারের সভাপতিত্বে নাগরিক সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন, বাসদ সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, সিনিয়র সাংবাদিক মোস্তফা কামাল মজুমদার, খায়রুল আলম বকুল, নাগরিক ছাত্র ঐক্যের আহ্বায়ক নাজমুল হাসান, নারী ঐক্যের নেত্রী এ্যাডভোকেট রুবি প্রমুখ।
জনগণের মৌলিক অধিকার হরণ করা হয়েছে অভিযোগ তুলে আ স ম রব বলেন, বর্তমান সরকার জনগণের নয়, আওয়ামী লীগের সরকার। জনগণ কর্তৃক প্রত্যাখ্যাত হয়ে সরকার দেশকে পুলিশি রাষ্ট্র বানিয়েছে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার কথা বলে তারা মুক্তিযুদ্ধের উপর সবচেয়ে বেশি অত্যাচার চালাচ্ছে। মান্নার মুক্তি চেয়ে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার অবৈধ সরকারের মেয়াদ দীর্ঘায়িত করার ষড়যন্ত্র করছেন। আওয়ামী লীগ ছাড়ার কারণে ব্যক্তিগত শত্রুতার বশবর্তী হয়ে মারাত্মক অসুস্থ মাহমুদুর রহমান মান্নাকে কোনো মামলা ছাড়াই বিনা বিচারে আটক করে রেখেছে। অনতিবিলম্বে মান্নার মুক্তি না দিলে প্রধানমন্ত্রীকে ভয়াবহ পরিণতির জন্য প্রস্তুত থাকতে বলেন তিনি।
মাহমুদুর রহমান মান্নার মুক্তি চেয়ে বাসদ সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান বলেন, মান্না ষড়যন্ত্র করেনি। তিনি সরকারের অবৈধ কর্মকা-ের সমালোচনা করে জনগণকে সংগঠিত করার চেষ্টা করছিলেন। তার কাজে ভীত হয়ে তার বিরুদ্ধে টেলিফোনে ষড়যন্ত্র করেছে সরকার। জনগণকে সাথে নিয়ে বিকল্প রাজনৈতিক শক্তি গড়ে তোলার আহ্বান জানান তিনি।
বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বলেন, একদিকে নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত সুস্থ্যতা ছাড়াই জামাই আদরে হাসপাতালে অবস্থান করেছেন, ভোটাধিকার ছাড়াই নির্বাচন হচ্ছে। জনগণের নূ্যূনতম মৌলিক অধিকার ছাড়া চলছে গণতন্ত্র। তিনি বলেন, নির্বাচন ও ভোটাধিকার না দিয়েই অনুষ্ঠিত হচ্ছে নির্বাচন। দেশ এখন পুলিশি রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। বাক-স্বাধীনতা ও জনগণের মৌলিক অধিকার না থাকলে জঙ্গিবাদ মাথা চাড়া দিয়ে উঠে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন