ঢাকা, রোববার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৮ জামাদিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

শেষ ‘দায়িত্ব’ পালন করলেন প্রিন্স হ্যারি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ৪:৪৯ পিএম

‘সিনিয়র রয়্যাল’ হিসেবে সরে দাঁড়ানোর পরে বৃহস্পতিবার প্রথম প্রকাশ্যে দেখা গেল ব্রিটেনের রাজকুমার হ্যারিকে। ২০২১ সালের রাগবি লিগ বিশ্বকাপের সূচনা করতে এদিন বাকিংহাম প্রাসাদে আসেন ডিউক অব সাসেক্স। সাধারণত রানি দ্বিতীয় এলিজ়াবেথের লনেই এই খেলা হয়। সেখানে শিশুদের ভিড়ে বেশ হাসিখুশিই ছিলেন তিনি। হ্যারি বরাবরই রাগবি ফুটবল লিগের পৃষ্ঠপোষক।

তবে এ দিন সাংবাদিকদের প্রশ্নের কোন উত্তর দেননি হ্যারি। প্রাসাদে পৌঁছনোর আগে গাড়িতে গম্ভীর মুখেই বসেছিলেন তিনি। তার কয়েক ঘণ্টা আগে অনলাইনে মানসিক স্বাস্থ্য সংক্রান্ত একটি ভিডিও প্রকাশ করেন। যাতে অবসাদে ভুগতে থাকা পুরুষদের উদ্দেশে হ্যারির বার্তা, ‘কষ্ট চেপে হাসি দেখানো বন্ধ করুন।’ সেখানে নানা সমস্যা নিয়ে আলোচনাও করেন তিনি। তবে প্রাসাদে পৌঁছে প্রথম দিকে বেশ কঠিন মুখেই দেখা যায় তাকে। জুতা পরে মাঠে নামার পরে শিশুদের মধ্যে এসে সহজ হয়ে যান যুবরাজ। তাদের একের পর এক প্রশ্নে হাসি চওড়া হতে থাকে তার।

তার পরে যখন সেখানে হাজির সংবাদমাধ্যম ঘিরে ধরে হ্যারিকে, এবং রানি, যুবরাজ চার্লস, বড় ভাই উইলিয়াম সম্পর্কে প্রশ্নবাণ ছুড়তে থাকে, তখন আবার বদলায় ছবিটা। একটি প্রশ্নেরও উত্তর না দিয়ে প্রাসাদের দিকে ফিরে যান হ্যারি। রানিকে তাদের সিদ্ধান্ত জানানোর পর থেকে এক রকম ‘লো প্রোফাইল’ রাখারই চেষ্টা করছেন হ্যারি। উইনসরের ফ্রগমোর কটেজ ছেড়ে বেরোচ্ছেন না। এ দিন রাগবির জন্য হাজির হয়ে রাজপরিবারের সদস্য হিসেবে শেষ ‘দায়িত্ব’ পালন করলেন তিনি।

হ্যারির মতো গতকাল প্রকাশ্যে দেখা গিয়েছে মেগানকেও। কানাডার ভ্যাঙ্কুভারে একটি সি-প্লেনে উঠতে দেখা যায় তাকে। রানি ইতিমধ্যেই তার বিবৃতিতে জানান, হ্যারি-মেগান ‘স্বাধীন পরিবারের’ মতো থাকতে পারেন। আপাতত আগামী সপ্তাহ পর্যন্ত লন্ডনে থাকার কথা হ্যারির। তার পরেই ছেলে আর্চি ও স্ত্রী মেগানের কাছে কানাডায় ফিরে যাবেন তিনি। সূত্র: স্কাই নিউজ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন