ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৭ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৫ জামাদিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

মোদির নিরাপত্তায় দিনে ব্যয় ১ কোটি ৬২ লাখ রুপি!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

আর্থিক ‘দুরবস্থা’য় জর্জরিত ভারত, গত পাঁচ বছরে প্রবৃদ্ধি সর্বনিম্ন। কিন্তু ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নিরাপত্তা বাবদ ব্যয় হওয়া অর্থের অঙ্ক শুনলে চোখ কপালে উঠবে যে কারও। কারণ, হিসাব বলছে মোদির নিরাপত্তায় প্রতি ঘণ্টায় খরচ হয় ৬ লাখ ৭৫ হাজার রুপি। বাংলাদেশী মুদ্রায় ৮ লাখ টাকারও বেশি।
গত বুধবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নিরাপত্তায় কত টাকা খরচ হয়, তা নিয়ে প্রশ্ন তুললেন ডিএমকে সাংসদ দয়ানিধি মারান। তার উত্তরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের রাজ্যমন্ত্রী জি কিষণ রেড্ডি জানান, ‘কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে আগেই গান্ধী পরিবারের থেকে এসপিজি নিরাপত্তা কেড়ে নেয়া হয়েছিল। সেক্ষত্রে ওই পরিবারের জন্য নিযুক্ত এসপিজি বর্তমানে একজনের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে এসপিজি সুরক্ষা দেয়া হয়।’

তবে কারা নিরাপত্তায় নিযুক্ত সে বিষয়ে সুস্পষ্ট কোনও তথ্য দেননি তিনি। রেড্ডি আরও জানান, এসপিজি’তে ৩ হাজার স্ট্রং ফোর্স এবং স্পেশ্যাল কমান্ডো রয়েছেন। এই বাহিনীকে আরও উন্নত করে তোলার কাজ চলছে। তাই সাধারণ বাজেটে নরেন্দ্র মোদির নিরাপত্তায় এসপিজি’র বরাদ্দ বাড়িয়ে ৬০০ কোটি রুপি করা হয়েছে।
গত বছরের তুলনায় যা ১০ শতাংশ বেশি। ২০১৯-২০২০ অর্থবর্ষে এসপিজির বরাদ্দ ছিল ৫৪০ কোটি রুপি। সেই সময় মোট চারজন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তির নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিল এসপিজি। বর্তমানে শুধুমাত্র ৫৯৩ কোটি রুপি বা ৭০৯ কোটি টাকা প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তার জন্য খরচ হয়।
হিসাব করে দেখা গিয়েছে প্রতিদিন মোদির নিরাপত্তায় খরচ হচ্ছে প্রায় ১ কোটি ৬২ লাখ রুপি। অর্থাৎ, প্রায় ২ কোটি টাকা। প্রতি ঘণ্টায় খরচের অঙ্ক ৬ লাখ ৭৫ হাজার রুপি। এবং প্রতি মিনিটে খরচের অঙ্ক ১১ হাজার ২৬৩ রুপি।

ভিআইপিদের নিরাপত্তা নিয়েও একাধিক প্রশ্ন করেন ডিএমকে সাংসদ দয়ানিধি মারান। ২০১৪ সাল থেকে ভিআইপিদের নিরাপত্তায় বদল কেল আনা হল, সে বিষয়েও জানতে চান তিনি। জবাবে জানানো হয়, দেশের মোট ৫৬ জন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিকে নিরাপত্তা দেয় সিআরপিএফ। সূত্র : ইন্ডিয়া টুডে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (2)
Mohammed Kowaj Ali khan ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৯:০৯ এএম says : 0
মুদিকে সহজ ভাষায় জেলখানায় রাখা হোক। মুদি সে একটা খোনি, খোনি ভোট চুন্নি। ওরা জাতীয় বেঈমান ওরা ভোট চুন্নি। ইনশাআল্লাহ।
Total Reply(0)
Mohammed Kowaj Ali khan ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৯:০৯ এএম says : 0
মুদিকে সহজ ভাষায় জেলখানায় রাখা হোক। মুদি সে একটা খোনি, খোনি ভোট চুন্নি। ওরা জাতীয় বেঈমান ওরা ভোট চুন্নি। ইনশাআল্লাহ।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন