ঢাকা, শুক্রবার, ০৩ এপ্রিল ২০২০, ২০ চৈত্র ১৪২৬, ০৮ শাবান ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

পাপিয়ার নেপথ্যের চরিত্র বের করা হবে : সেতুমন্ত্রী

জুলাইয়ে ঢাকা-সিলেট ৬ লেনের কাজ শুরু

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০০ এএম

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, পাপিয়ার পরিচয় যাই হোক অপরাধী হিসেবে অপরাধ অনুযায়ী তার বিচার হবে। একইসঙ্গে এর পেছনে যারা আছে তাদের খুঁজে বের করা হবে।

গতকাল সোমবার সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সম্মেলন কক্ষে এডিবি’র কান্ট্রি ডিরেক্টর মি. মনমোহন প্রকাশের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, অপরাধের বিচার করতে গেলে তো পেছনের লোক খোঁজা হয়, হবে না কেন। যখন আদালতে বিষয়টি যাবে তখন আদালতে সব কিছুই আসবে। অপরাধী অপরাধ অনুযায়ী শাস্তি পাবে। এ সরকার দলের হোক, দলের বাইরে হোক, অপরাধীকে পার পেয়ে যেতে দেয়নি। সব অপরাধীকে বিচারের আওতায় আনা হয়েছে।
তিনি বলেন, পাপিয়ার পরিচয় যাই হোক অপরাধী হিসেবে অপরাধ অনুযায়ী তার বিচার হবে। এর পেছনে যারা আছে তাদের খুঁজে বের করে সামনে আনা হবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, অপরাধের বিচার করতে গেলে তো পেছনের লোক খোঁজা হয়, হবে না কেন। আর তারা কি সামনে আসবে কিনা, তারা সামনে আসবে না, এটা মনে করার কোনো কারণ নেই।

মন্ত্রী বলেন, এ সরকারের আমলে এ ধরনের বিচার প্রক্রিয়ায় সবই এসে গেছে। যখন আদালতে বিষয়টি যাবে তখন আদালতে সবকিছুই আসবে। সে যে অপরাধে জড়িয়ে ছিল তা কি আপনারা বুঝতে পেরেছিলেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, আগে বুঝতে পারলে তো এটা হতো না।

আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ধরেছে, দলের শুদ্ধি অভিযানে তাকে ধরা হয়নি কেন? এমন প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, এ সরকারের আমলে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী অপরাধের জন্য যাদেরকে গ্রেফতার করেছে, শাস্তি দিচ্ছে, আদালতে যাচ্ছে, সেটি কি সরকারের ইচ্ছার বাইরে হচ্ছে। সরকার এসব ব্যাপারে জিরো টলারেন্স নীতিতে আছে। ফলে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ব্যবস্থা নিচ্ছে। অপরাধ, অন্যায়, অপকর্ম যারা করবে তাদের যে পরিচয় হোক, ব্যবস্থা নিতে হবে।

দলের ভেতর এরকম আরো আছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের আগেও অনেক সরকার ছিল। ১৯৭৫’র পর ২১ বছর ক্ষমতায় ছিলাম না, তখনো সরকার ছিল। পার্থক্যটা এই, অন্যান্য সরকার অপরাধী ও অপকর্মকারীদের বিচার বা তাদেরকে বিচারের আওতায় নিয়ে আসার বিষয়টি অবহেলা বা উপেক্ষা করেছে। তারা কখনো নিজের দলেরতো প্রশ্নই উঠে না অপরাধীদের বিষয়ে তাদের আচরণ ছিল দুর্বল। সে কারণে অপরাধীরা অপকর্মকারীরা শাস্তি পায়নি।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, এ বছরের জুলাইয়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ছয় লেনে উন্নীত করার কাজ শুরু হবে। এ প্রকল্পে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক (এডিবি) অর্থায়ন করবে। এতে দুই বিলিয়ন ডলার খরচ হবে, বাংলাদেশি মুদ্রায় যা ২০ হাজার কোটি টাকা। কবে নাগাদ প্রকল্পটির কাজ শেষ হবে সে বিষয়টি এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তিনি জানান, এডিবির কান্ট্রি ডিরেক্টরের সঙ্গে আমার বৈঠক হয়েছে এবং সেখানে এ বিষয় নিয়ে কথা হয়েছে। বিষয়টি চূড়ান্ত হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন