ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০, ১৯ চৈত্র ১৪২৬, ০৭ শাবান ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

মাদারীপুরে আ.লীগের দু’গ্রুপে সংঘর্ষ

মাদারীপুর জেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ২৪ মার্চ, ২০২০, ১২:৩৭ এএম

মাদারীপুর সদর উপজেলার পেয়ারপুর ইউনিয়নের বরাইলবাড়ী গ্রামে এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও পেয়ারপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান খানের সাথে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক লাভলু তালুকদার গ্রুপের মধ্যে গতকাল সকালে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে ৫ পুলিশসহ আহত হয়েছে অন্তত ২৫ জন। ঘটনাস্থল থেকে ১৪ জনকে আটক করে সদর মডেল থানা পুলিশ। গুরুতর আহতরা মাদারীপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে এলাকার আধিপত্য নিয়ে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও পেয়ারপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মজিবুর রহমানের সাথে সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক লাভলু তালুকদারের বিরোধ চলে আসছিল। এরই সূত্র ধরে ও গরুতে ধান খাওয়াকে কেন্দ্র করে গতকাল সকালে দুই গ্রুপের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ বাধে। এ সময় বেশ কয়েকটি ঘরবাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় ৫ পুলিশ সদস্য এবং দুই গ্রুপের আরো প্রায় ২০ জন আহত হয়। পরিস্থতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ১৬ রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে। সংঘর্ষে আহতরা মাদারীপুর সদর হাসপাতালসহ আশপাশের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।
সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও পেয়ারপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান খানের সাথে একাধিকবার যোগাযোগে চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি। সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক লাভলু তালুকদার বলেন, মজিবর খান ও তার ভাইরা এলাকায় সন্ত্রাসী কার্যক্রমে লিপ্ত থাকে। সামান্য বিষয় নিয়ে এ সংঘর্ষে লিপ্ত হয় সে এবং তার লোকজন। সংঘর্ষে আমার প্রায় ১০ জন আহত হয়েছে।
মাদারীপুর সদর মডেল থানার ওসি মো. কামরুল ইসলাম মিঞা জানান, দীর্ঘদিন ধরে আধিপত্য নিয়ে পেয়ারপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মজিবুর রহমানের সাথে আওয়ামী লীগ নেতা লাভলু তালুকদারের বিরোধ চলে আসছিল। এরই জেরে সকালে উভয়পক্ষের লোকজন দেশিয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় বেশ কয়েকটি ঘরবাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ১৬ রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে পরিস্থতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে ৫ পুলিশ সদস্যসহ আহত হয় অন্তত ২৫ জন। আহতদের উদ্ধার করে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় ঘটনাস্থল থেকে ১৪ জনকে আটক করে পুলিশ। এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ। মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

 

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন