ঢাকা, বুধবার, ২৭ মে ২০২০, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৩ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

লা লিগায় ৮৯ হাজার কোটি টাকার ক্ষতি!

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১২:০৩ এএম

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে পুরো বিশ্বই থমকে গেছে। আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে মৃত্যুর মিছিলও। মহামারি কোভিড-১৯ অর্থনৈতিক দিক থেকেও বিশ্বকে হুমকির মুখে ফেলে দিয়েছে। ভালো নেই ক্রীড়া আসরগুলোও। এই যেমন করোনার কারণে স্প্যানিশ ফুটবলের সর্বোচ্চ লিগ ‘লা লিগা’ বড় ধরনের ক্ষতির সম্মুখীন হতে যাচ্ছে।

প্রায় তিন সপ্তাহ বিশ্বের প্রায় সব ক্রীড়া আসর স্থগিত হয়েছে। লিওনেল মেসি, সার্জিও রামোসদের লিগও আপাতত মাঠে গড়াচ্ছে না। আর ভবিষ্যতে কবে গড়াবে সেই নিশ্চয়তাও নেই। তাইতো দিনে দিনে ক্ষতির পরিমাণ আরও বড় হচ্ছে।

স্প্যানিশ পত্রিকা মার্কা তাদের এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে ২০১৯-২০ লা লিগা মৌসুম যদি মাঠে না গড়ায়, তবে ক্ষতির পরিমাণ দাঁড়াবে ৬৪৮ মিলিয়ন ইউরো (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৬০ হাজার কোটি টাকার বেশি)।

কোনো সন্দেহ নেই লা লিগা চাইবে চলমান মৌসুম শেষ করতে। আর এর জন্য সংগঠনটি উয়েফা, ফিফা, স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনের (আরএফইএফ) সঙ্গে এক যোগে কাজ করে যাচ্ছে। তবে পরিস্থিতি আরও খারাপের দিকে গেলে ক্ষতির পরিমাণ আরও বাড়বে। আর এর অঙ্কটি দাঁড়াবে ৯৫৬.৬ মিলিয়ন ইউরোতে। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৮৯ হাজার কোটি টাকা!

মৌসুমের বাকি অংশ যদি দর্শকশ‚ন্য স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় তবে ক্ষতির পরিমাণ নেমে আসবে ৩০৩.৪ মিলিয়ন ইউরোতে। আর স্বাভাবিকভাবে দর্শকদের সামনে খেলা হলে সেটি হবে ১৫৬.৪ মিলিয়ন ইউরো।

এখন ম‚ল বিষয় হচ্ছে লা লিগা ও স্প্যানিশ ফুটবলার’স অ্যাসোসিয়েশন (এএফই) সিদ্ধান্ত নেবে তারা এই ক্ষতির কত অংশ ক্লাব ও খেলোয়াড়দের থেকে কেটে নেবে।

ধারনা করা হচ্ছে খেলা একেবারেই মাঠে না গড়ালে খেলোয়াড়রা সবাই মিলে ক্ষতির ৪৭ শতাংশ (৪৫১ মিলিয়ন ইউরো) পুষিয়ে দেবে। দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা হলে দিতে হবে ৪৬ শতাংশ (১৪০) অর্থ। আর খেলা স্বাভাবিকভাবে গড়ালে বেড়ে দাঁড়াবে ৪৯ শতাংশ (৭৭ মিলিয়ন ইউরো)।
স্প্যানিশ খেলোয়াড়দের সংগঠন এএফই’র প্রেসিডেন্ট দাভিদ অ্যাগাঞ্জো এমন ক্ষতির আশঙ্কা করছেন। যেখানে তিনি ব্যাপারটি হাভিয়ার তেবাসকে জানাবেন। এছাড়া খেলোয়াড়দের সঙ্গেও ব্যাপারটি নিয়ে আলোচনা করবেন।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন