ঢাকা মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭ আশ্বিন ১৪২৭, ০৪ সফর ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

তাবলীগ জামাতের দলকে প্রতিহতের ঘোষনা দিলেন স্থানীয় জনগন

হিলি (দিনাজপুর) সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৭ এপ্রিল, ২০২০, ৯:৫৮ এএম

ভারত থেকে আসা বাংলাদেশী তাবলীগ জামাতের দলকে হিলি চেকপোষ্ট দিয়ে দেশে প্রবেশ প্রতিহতের ঘোষনা দিলেন স্থানীয় জনগন। এ নিয়ে এলাকায় চলছে না জল্পনা কল্পনা ও করোনা ভাইরাস আতংক।
ভারতে তাবলীগ জামাত অংশ নিতে গিয়ে আটকে থাকা বাংলাদেশি মুসল্লিদের ৪০ সদস্যের একটি দল দিনাজপুরের হিলি চেকপোষ্ট দিয়ে আজ মঙ্গলবার বাংলাদেশে আসার কথা। তাদের সরকারি ব্যবস্থাপনায় কোয়ারেন্টিনে রাখতে হিলির ৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে কোয়ারেন্টিন সেন্টার বানিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন। ভারত থেকে তাদের ফিরে আসার খবরে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার ভয়ে হিলি চেকপোষ্ট দিয়ে তাদের দেশে প্রবেশ প্রতিহত করার ঘোষণা দিয়েছে স্থানীয় জনগন।

এদিকে গতকাল সোমবার রাতে হিলির বাংলাহিলি বালিকা বিদ্যালয় সংলগ্ন ও হাকিমপুর ডিগ্রি কলেজ সংলগ্ন এলাকার জনগন বের হয়ে তাবলিগ জামাতের সদস্যদের রাখার জন্য কোয়ারেন্টিন সেন্টার নির্মাণে বাধা দেন।
হিলির স্থানীয় বাসিন্দা তুফান মোবারক বলেন, ভারতে ইতোমধ্যেই ব্যাপক ভাবে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। ভারতে তাবলিগ জামাতে অংশ নিতে যাওয়া কয়েকজন আক্রান্ত ও হয়েছে। মারাও গেছেন কয়েকজন। তাদের কোয়ারেন্টিন করে রাখতে হিলি স্থলবন্দর সংলগ্ন বালিকা বিদ্যালয়, ডিগ্রি কলেজ ও মহিলা কলেজে কাজ করা হচ্ছে। এ সব প্রতিষ্টান ঘনবসতিপুণ এলাকা। ভারত ফেরতদের মাধ্যমে আমাদের এলাকাতেও এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে। তাদের যদি রাখতেই হয় তাহলে তাদেরকে শহর থেকে দূরে নিয়ে গিয়ে রাখুক। তারা বলেন, হিলিবাসীর সুরক্ষার স্বার্থে তাদেরকে আমরা ঢুকতেও দেবো না।

হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট ওসি সেকেন্দার আলী জানান, তাবলীগ কর্মীদের হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে দেশে ফেরার বিষয়টি এখন পর্যন্ত নিশ্চিত না।
হাকিমপুর পৌর মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত বলেন, আমরা হিলিবাসী এখনও ভালো আছি এবং ভালো থাকতে চাই। করোনা ভাইরাসে কারনে হিলি সীমান্তবাসী আমরা আতংকিত। এ সময় হিলি চেকপোষ্ট দিয়ে ভারত থেকে কেউ আসুক এটা আমরা চাইনা। এমনকি বন্দর দিয়ে আমদানি রফতানি ও পানামা পোটের্র পন্য খালাস হউক তাও চাইনা।
হাকিমপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুর রাফিউল আলম বলেন, তাবলীগ জামাতের সদস্যদের ভারত থেকে দেশে ফেরার এখন পর্যন্ত কোনও সম্ভাবনা নেই। তবে তারা যদি আসেন তবে তাদের কোয়ারেন্টিন করে রাখার জন্য কোয়ারেন্টিন সেন্টার হিসেবে ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (3)
মোঃ লোকমান হোসেন ৭ এপ্রিল, ২০২০, ১১:৩৯ এএম says : 1
তারকাটার উপর দিয়ে দাদারা যখন পুশইন করে তখন কোথায় থাকে এ সকল সচেতন মহল ।তাবলিগের সাথিরা এদেশের নাগরিক। বাংলাদেশে প্রবেশ করা তাদের অধিকার।
Total Reply(0)
লিটন ৭ এপ্রিল, ২০২০, ১:৩০ পিএম says : 0
লোকমান ভাই বেশি দরদী হলে আপনার বারিতে নিয়ে গিয়ে রাখেন কারন ওদের কারনে পুরা হিলির মানুষকে তো মরতে দিতে পারে না
Total Reply(0)
Kamruzzaman ৭ এপ্রিল, ২০২০, ৩:০৫ পিএম says : 0
Tablig ke bada dile apnara valo thakben ETA ke bolese. Safe korar Malik Aalla(swt).
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন