ঢাকা, শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭, ২৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

মানুষের পাশে বিএনপি

অসহায়, দিনমজুর, দুস্থদের হাতে তুলে দিচ্ছে খাদ্যসামগ্রী

ফারুক হোসাইন | প্রকাশের সময় : ৮ এপ্রিল, ২০২০, ১২:০১ এএম

১৩ বছর ক্ষমতার বাইরে বিএনপি। হামলা-মামলা-গ্রেফতারের কারণে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত দলটির নেতাকর্মীরা। এরই মধ্যে দেশে বিস্তার ঘটছে প্রাণঘাতি বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাস। সাধারণ ছুটি ও বিভিন্ন এলাকা লকডাউনের কারণে বেকার হয়ে পড়েছেন দিনমজুর-খেটে খাওয়া মানুষগুলো। অসহায় এসব মানুষ ত্রাণের খবর শুনলেই ছুটে যাচ্ছেন। দেশের এমন অসহায়, দরিদ্র, খেটে খাওয়া মানুষগুলোর পাশে দাঁড়িয়েছে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ। বিএনপিও তাদের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশনা মেনে সামর্থ্য অনুযায়ি তাদের হাতে তুলে দিচ্ছেন খাদ্যসমগ্রী। বিএনপি ছাড়াও যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, মহিলা দল, ছাত্রদল প্রতিদিনই রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় মানুষের পৌঁছে দিচ্ছে চাল, ডাল, আলু, তেল, পেঁয়াজ, সাবান, মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজারসহ খাদ্য ও নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী। পাশাপাশি নেতারা আহ্বান জানাচ্ছেন সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসার জন্য। অন্যদিকে জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন ও ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ড্যাব) করোনাভাইরাস সম্পর্কে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের সমন্বয়ে হট লাইনের মাধ্যমে দিচ্ছে চিকিৎসা পরামর্শ। আজ থেকে রাজধানীতে জীবাণুনাশক স্প্রে কর্মসূচি শুরু করছে জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন।

বিএনপির সূত্রে জানা যায়, গতমাসের শুরুতে দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ চিহ্নিত হওয়ার পরপরই দলটির পক্ষ থেকে জনসাধারণকে সচেতন করতে লিফলেট বিতরণ শুরু করা হয়। এরপর সংক্রমণ যাতে ছড়িয়ে পড়তে না পারে এজন্য বাতিল করা হয় দলটির সব ধরণের কর্মসূচি। ২৬ মার্চ থেকে সারাদেশে সাধারণ ছুটি ঘোষণার পর বেকার হয়ে পড়েন দিনমজুর-খেটে খাওয়া মানুষগুলো। তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য বিএনপিসহ সকল অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনকে নির্দেশনা দেন বিএনপির চেয়ারপারসন ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। সেই নির্দেশনা মেনে সারাদেশে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ শুরু করেন দলটির নেতাকর্মীরা। এর মধ্যে রাজধানীতে ত্রাণ বিতরণ করেছেন গত সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণে বিএনপির মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়াল ও ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন। প্রায় প্রতিদিনই ইশরাক দক্ষিণ সিটির বিভিন্ন ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে গিয়ে দুঃস্থ, অসহায়, বস্তিবাসীর হাতে খাবার সামগ্রী তুলে দিচ্ছেন। রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় খাদ্য ও নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী বিতরণ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি হাবিব উন নবী খান সোহেলন, ক্রীড়া সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, স্বেচ্ছাসেবক দল সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদির ভূইয়া জুয়েল, ছাত্রদল সভাপতি ফজলুর রহমান খোকন, সিনিয়র সহ-সভাপতি কাজী রওনকুল ইসলাম শ্রাবণ, সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামল, সহ-সভাপতি হাফিজুর রহমান।
এছাড়া ঢাকার বাইরে প্রায় প্রতিটি জেলা ও উপজেলাও স্থানীয় নেতারা ত্রাণ বিতরণ করছেন। নরসিংদীতে খায়রুল কবির খোকন, পঞ্চগড়ে ব্যারিস্টার নওশাদ জমির, মুন্সিগঞ্জে মীর সরাফত আলী সপু, ঝিনাইদহে স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা সাইফুল ইসলাম ফিরোজ, নারায়ণগঞ্জে বিএনপি নেতা মাহমুদুর রহমান সুমন, ময়মনসিংহের নান্দাইলে বিএনপি নেতা মামুন বিন আব্দুল মান্নান, যশোরে স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা ইফতেখার সেলিম অগ্নি, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সাবেক ছাত্রদল নেতা রাজিব আহসান চৌধুরী পাপ্পুসহ স্থানীয় নেতাকর্মীরা।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, আমাদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে ঢাকাসহ সারাদেশে বিএনপি, ছাত্রদল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, মহিলা দল, মৎস্যজীবী দল, তাঁতী দল এমনকি ওলামা দল দুস্থ মানুষকে চাল, ডালসহ খাদ্য সামগ্রি, সাবান, জীবাণুনাশক সরঞ্জামাদি সরবরাহ করছেন।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এক ভিডিও বার্তায় দলের সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের স্থানীয় পর্যায়ে করোনা ভাইরাস সম্পর্কে সচেতনমূলক কর্মসূচি গ্রহণ এবং শাটডাউনের কারণে কর্মহীন দুঃস্থ জনগণের মুখে দু‘মুঠো খাবার তুলে দিতে দলীয় নেতা-কর্মীসহ সর্বস্তরের জনগণ ও বিত্তবানদের এগিয়ে আসার আহবান জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, মহামারীর ভয়াবহতা অনুভব করে বিএনপি প্রথম থেকেই জনগনের মধ্যে গণসচেতনামূলক সচিত্র লিফলেট, মাস্ক, বিতরণ করে, দিনমুজুর শ্রেনীর কষ্ট কিছুটা লাগবে সারাদেশে খাদ্য বিতরণ কর্মসূচি পালন করছে। জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন ও ড্যাব হেল্প লাইনের মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা ও সহযোগিতা প্রদান শুরু করেছে। আমাদের নেতা-কর্মীরা কর্মজীবী দুঃস্থ মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন, তারা খাবার দিচ্ছেন, তারা মাস্ক দিচ্ছেন। সিলেটে মেয়র জানেন যে, তিনি বৃহত আকারে খাবার নিয়ে মানুষের পাশে যাচ্ছেন, প্রত্যেকটা জেলা, উপজেলা, ইউনিয়নে আমাদের নেতা-কর্মীরা কাজ করছে। #

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন