ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

২৯ মে থেকে পোল্যান্ডে ফের লিগ

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ এপ্রিল, ২০২০, ১২:০৩ এএম

চীন থেকে শুরু। এরপর ইউরোপ-আমেরিকা হয়ে শুরু করে গোটা বিশ্ব করোনাভাইরাসের কাছে বিপর্যস্ত। স্থগিত প্রায় পৃথিবীর সব ধরনের খেলা। ফুটবল তো বটেই। তবে আবারও মাঠে ফুটবল গড়ানোর আভাস মিলছে। এরমধ্যেই দুই এক দেশে চলছে লিগ। এবার পোল্যান্ড লিগ কর্তৃপক্ষ লিগ শুরু করতে যাচ্ছে। আগামী ২৯ মে থেকে ফের মাঠে ফুটবল গড়ানোর অনুমতি মিলেছে তাদের।
করোনাভাইরাসের কারণে গত ১৩ মার্চ থেকে বন্ধ রয়েছে পোল্যান্ডের লিগ। এরপর থেকেই ফের মাঠে ফুটবল গড়ানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিল লিগ কর্তৃপক্ষ। ক্লাবগুলোও ফের মাঠে নামতে রাজি। কিন্তু সরকারের পক্ষ থেকে ইতিবাচক সাড়া মিলছিল না। অবশেষে কাক্সিক্ষত সাড়া পেয়েছে তারা। যদিও গতকাল শনিবার থেকেই পোল্যান্ডে লকডাউনের পরিমাণ শিথিল করা হয়েছে। দোকানপাট, বন, পার্ক এমনকি খেলার জন্য উন্মুক্ত স্থানও খুলে দেওয়া হয়েছে।
দেশটির প্রধান মন্ত্রী মাতেউজ মোরাউইকির কাছ থেকে অনুমতি পেয়ে এমনটাই জানিয়েছেন ১৬ দলের এ লিগ কমিটি অ্যাকস্ত্রাকলাসার প্রধান মারসিন আনিমুকি এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘এটা দারুণ সংবাদ। গত চার সপ্তাহ ধরে যে চেষ্টা করে যাচ্ছিলাম তার ফলশ্রুতিতে সরকার আমাদের পক্ষে সিদ্ধান্ত দিয়েছে। যদি সামনে কোনো সমস্যা না হয় এবং দেশের স্বাস্থ্যগত নতুন কোনো সমস্যা তৈরি না হয়, তাহলে এই দুর্যোগের সময়ের পর আগামী ২৯ মে থেকে আমরা লিগ চালু করতে যাচ্ছি। প্রতিটা ধাপের পরিকল্পনা ক্রীড়া মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে দেওয়া হবে।’
সরকার থেকে আগামী ২০ জুলাইয়ের মধ্যে লিগ শেষ করার কথা বলা হয়েছে। তবে ১৯ জুলাইয়ের মধ্যেই সব খেলা শেষ করার ছক কষেছে লিগ কর্তৃপক্ষ। এর জন্য ৪ মে থেকে অনুশীলনে নামবে তারা। তবে প্রথমে ছোট ছোট গ্রুপে দলগুলোকে অনুশীলনে নামার সুযোগ করে দেওয়া হয়েছে। এবং ২৭-২৮ মের আগেই খেলোয়াড়, কোচিং স্টাফ এবং রেফারিদের সবার করোনাভাইরাস টেস্ট নেগেটিভ আসলেই ফের মাঠে গড়াবে পোলিশ লিগ। লিগে এখনও ১১টি করে রাউন্ড বাকি রয়েছে। ২৬ ম্যাচে ৫১ পয়েন্ট নিয়ে লিগে শীর্ষে রয়েছে লেগিয়া ওয়ারশো। দ্বিতীয় স্থানে থাকা পিয়াস্ট গি্লউইচের থেকে ৮ পয়েন্ট ব্যবধানে এগিয়ে আছে ক্লাবটি।
৩ কোটি ৮০ লাখ মানুষের দেশটিতে গতপরশু পর্যন্ত ১১ হাজার ৩৯৫ জন মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। এর মধ্যে মারা গিয়েছেন ৫২৬ জন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন