ঢাকা, শনিবার, ২৪ আগস্ট ২০১৯, ০৯ ভাদ্র ১৪২৬, ২২ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সোনালি আসর

বর্ষার ছড়া

প্রকাশের সময় : ২৫ জুলাই, ২০১৬, ১২:০০ এএম

বসন্ত

প্রবণ কুমার

কচি, পাতা দুলছে শাখে
কেটে গেছে শীত।
তাই তো কোকিল মধুর সুরে
গাইছে গাছে গীত।
শিমুল গাছে ফুটছে শিমুল
নিজকে করে উজাড়।
কৃষ্ণচূড়ার শাখে শাখে
তাই তো লালের বাহার।
ঝির ঝিরিয়ে বইছে হাওয়া
লাগছে গায়ে বেশ।
মনটা আজ ফুরফুরা মোর
নাইরে দুঃখ ক্লেশ।
চাঁদটা উঠে নীল আকাশে
দিচ্ছে ঢেলে আলো,
তাই তো বসন্তকে আমার
লাগছে বড় ভালো।

বর্ষা মানে
আকরাম ছাবিত

বর্ষা মানে দিন-দুপুরে
কদম ফুলের গন্ধ,
কবির মনে নতুন ছড়া
গান কবিতার ছন্দ।
বর্ষা মনে হঠাৎ করে
টাপুর-টুপুর বৃষ্টি,
আকাশ জুড়ে মেঘে-মেঘে
নেয় ছিনিয়ে দৃষ্টি।
বর্ষা মানে রয় লুকিয়ে
লম্বা কালো সাপটা,
চুপটি করে ব্যাঙের দলে
হঠাৎ মারে ঝাপ্টা।
বর্ষা মানে মেঘের জলে
হঠাৎ পুকুর ভরবে,
চতুর্দিকে জলে জলে
শুধুই খেলা করবে।

দুষ্টু কোলাব্যাঙ
সাজ্জাক হোসেন শিহাব

কেনো ডাকিস এতো
বৃষ্টি এলে-ধুম?
বিয়ে নাকি কারও
নাই কি তোদের ঘুম?
বরষা এলেই দেখি
তোদের কতো দল,
কোথায় থাকিস আগে
এইটা আমায় বল।
ভরা খালে যখন
ডুবাই আমার ঠ্যাঙ,
কোথায় পালাস তোরা
দুষ্টু কোলাব্যাঙ!
আমায় দেখে পাজি
দিস রে কেনো ডুব
ডাকটা শুনতে তোদের
ইচ্ছে করে খুব।

বৃষ্টি নামে
হোসেন মোতালেব

বৃষ্টি নামে ঝম ঝমা ঝম
বৃষ্টি নামে চালে
বৃষ্টি নামে এক টানা সুর
বিল নদী আর খালে।
বৃষ্টি নামে মিষ্টি সুরে
কেয়া কদম ফুলে
বৃষ্টি নামে ভরা নদীর
শান্ত কুলে কুলে।
বৃষ্টি নামে পল্লী গাঁয়ের
কচি ধানের ক্ষেতে
বৃষ্টি নামে দস্যিরা তাই
খেলায় উঠে মেতে।
বৃষ্টি নামে সকাল দুপুর
বৃষ্টি নামে রাতে
বৃষ্টি নামে বলেই এ দেশ
নতুন রূপে মাতে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন