ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৭ জুলাই ২০২০, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭, ১৫ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

মূল পরিকল্পনাকারী ধরাছোঁয়ার বাইরে

গাজীপুরে নির্বাহী প্রকৌশলী হত্যাকান্ড

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১ জুন, ২০২০, ১২:১১ এএম

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কোনাবাড়ি অঞ্চলের নির্বাহী প্রকৌশলী দেলোয়ার হোসেন হত্যাকান্ডের ঘটনায় মূল পরিকল্পনাকারীরা এখনো রয়েছে ধরা ছোঁয়ার বাইরে। অথচ এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় এক সহকারী প্রকৌশলীসহ তিন খুনি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। এর পরেও এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় এখনো রহস্য উদঘাটন করা সম্ভব হয়নি। অভিযোগ উঠেছে, হত্যাকান্ডের পরিকল্পনায় যুক্ত প্রভাবশালীদের বাঁচাতে উচ্ছ পর্যায়ের লবিং শুরু হয়েছে।
সূত্র জানায়, একটি সংস্থা তথ্য পেয়েছে- গাজীপুরে রাস্তাঘাটে উন্নয়নের পরিবর্তে নিম্নমানের কাজ করায় ঠিকাদারদের বিল আটকে দিয়েছিলেন প্রকৌশলী দেলোয়ার। কোনাবাড়ী এলাকায় এক কিলোমিটার সড়ক নির্মাণে ৩৩ কোটি টাকার বাজেট ধরা হয়েছিল। ঠিকাদারেরা জাইকা, এডিবিসহ তিনটি দাতা সংস্থার নামে বিল করে ৯৯ কোটি টাকার বিল আদায় করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু নির্বাহী প্রকৌশলী বাধ সাদলে বিরোধ তৈরি হয়। এমনকি দেলোয়ার বিষয়টি সিটি কর্পোরেশনের শীর্ষ ব্যক্তিদের অবহিত করার পরও নেওয়া হয়নি কোন ব্যবস্থা। বিষয়গুলো আমলে নিয়ে একটি সংস্থার ছায়া তদন্ত চালাচ্ছে।
মামলার তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তারা বলছেন, এই হত্যাকান্ডের সঙ্গে প্রাথমিকভাবে তিনজনের সম্পৃক্ততার বিষয়ে নিশ্চিত হয়েছেন তারা। ওই তিনজন সরাসরি কিলিং মিশনে অংশ নিয়ে ছিলেন। সহকারী প্রকৌশলী সেলিমকে জিজ্ঞাসাবাদে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য মিলেছে। এসব তথ্য যাচাই বাছাই করা হচ্ছে। সংশ্লিষ্টরা জানায়, সিটি কর্পোরেশনের ঠিকাদারদের শতকোটি টাকা বিল আটকে রাখার জন্যই পরিকল্পিতভাবে তাকে হত্যা করা হয়েছে। প্রভাবশালী ঠিকাদরদের সরকারি শতশত কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার পথে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন প্রকৌশলী দেলোয়ার।
তুরাগ থানার পরিদর্শক (অপারেশন) ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা শেখ মফিজুর রহমান বলেন, কিলিং মিশনে অংশ নেয়া তিন আসামি আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে। এই ঘটনায় অন্যদের সম্পৃক্ততার বিষয় খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্ত শেষে বিস্তারিত বলা যাবে। এর আগে ঢাকা মহানগর পুলিশের পুলিশের উত্তরা বিভাগের ডিসি নাবিদ কামাল শৈবাল বলেছিলেন, আসামিদের গ্রেফতারের করা হলেও এখনো হত্যাকান্ডের মূল রহস্য উদঘাটন হয়নি।
এদিকে, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনে দুর্নীতি প্রতিরোধ প্রয়াসী নির্বাহী প্রকৌশলী দেলোয়ার হোসেনের নিষ্ঠুর খুনের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে ন্যায়বিচার এবং নিহতের পরিবারের ন্যায্য ক্ষতিপূরণ নিশ্চিতের আহবান জানিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। গত মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, পরিকল্পিতভাবে সংঘটিত এ খুনের ঘটনাটি আইন প্রয়োগকারী সংস্থা কর্তৃৃক যথাযথ তদন্তের পাশাপাশি টিআইবি সম্পূর্ণ নিরপেক্ষ ও প্রভাবমুক্ত তদন্তের মাধ্যমে এই হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত দুর্নীতিবাজ চক্রের মুখোশ উন্মোচন করা ও অপরাধীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রতিও দাবি জানাচ্ছে।
উল্লেখ্য, গত ১১ মে দুপুরে দিয়াবাড়ী বেরিবাঁধের জঙ্গল থেকে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের কোনাবাড়ী অঞ্চলের নির্বাহী প্রকৌশলী দেলোয়ার হোসেনের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী খাদিজা আক্তার বাদী হয়ে তুরাগ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। গত ২১ মে প্রকৌশলী মো. দেলোয়ার হোসেন হত্যাকান্ডের ঘটনায় জড়িত সিটি কর্পোরেশনের এক সহকারী প্রকৌশলীসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন