ঢাকা, সোমবার, ১০ আগস্ট ২০২০, ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৯ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

ইসলামী বিশ্ব

১৯৩২ সালের পর প্রথমবারের মত হজ বাতিলের চিন্তা করছে সউদী আরব!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ জুন, ২০২০, ৫:৫৬ পিএম

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ ছাড়িয়ে যাওয়ার পর লাখ লাখ হাজির উপস্থিতি আরো ভয়াবহ পরিণতি বয়ে আনতে পারে, এমন বিবেচনায় ১৯৩২ সালে সউদী আরব প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকে এই প্রথম হজ বাতিলের চিন্তা করছে দেশটি। -গালফ নিউজ, এ্যারাবিয়ান বিজনেস, মিন্ট, ফিনান্সিয়াল টাইমস
ফিনান্সিয়াল টাইমসের প্রতিবেদনে এসেছে, সউদী আরবের হজ ও উমরা মন্ত্রণালয়ের এক সিনিয়র কর্মকর্তা জানিয়েছেন, কোভিড পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে এবং আগামী ৭ দিনের মধ্যে এব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে সউদী আরবের সরকার।

আগামী জুলাইয়ের শেষ দিকে হজ শুরু হওয়ার কথা থাকলেও আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংস্থার পক্ষ থেকে স উদী আরবের ওপর স্বাস্থ্যবিধির বিষয়টি চিন্তা করেই হজ বাতিলের জন্যে চাপ সৃষ্টি করা হচ্ছে। এর আগে টোকিও অলিম্পিক কোভিডের কারণে প্রথমে বিলম্বে এবং শেষ পর্যন্ত বাতিলের সিদ্ধান্ত নেয়া হ য়েছে । তবে স্থানীয় পর্যায়ের সীমিত সংখ্যক হজযাত্রী নিয়ে প্রতীকী হজ পালনের বিষয়টিও বিবেচনা করছে স উদী সরকার। স উদী হজ মন্ত্রণালয় বলছে , সবধরনের প্রস্তাব বিবেচনার পাশাপাশি হজযাত্রীদের স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তার বিষয়টি সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। সেদিক থেকে বাতিলের আশঙ্কা ই বেশি । এর আগে মার্স ও এবোলা ভাইরাসের সময় বিশেষ স্বাস্থ্য নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করে হজের আয়োজন হয়েছে । তবে বি শ্ব ব্যাপী কোভিডের মারাত্মক পরিস্থিতিতে এবার হজের আয়োজনকে কঠিন এক চ্যালেঞ্জ মনে করছে স উদী আরব সরকার ।

দেশটি তে গত ২ মার্চ প্রথম কোভিড সংক্রমণ ঘটে। এরপর সউদী আরব ভ্রমণে বিধিনিষেধ ও দুই মাস কার্ফিউ আরোপ করা হয়। লকডাউন কিছুটা শিথিল হলে গত ৬ দিনে স উদী আরবে ৩ সহস্রাধিক কোভিড শনাক্ত করা হয়েছে এবং বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মারা গেছেন ৮৫৭ জন । উল্লেখ্য, বছরে হজ থেকে স উদী আরব আয় করে ১২ ’ শ কোটি ডলার ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (3)
আবু মুহাম্মদ মুক্তাদীর। ১৫ জুন, ২০২০, ১০:৫০ এএম says : 0
আমি নিজেও এ বছরেের জন্য নিবন্ধিত তবুও আমি চাই সবার নিরাপত্তা আগে। আল্লাহতায়ালা বাঁচিয়ে রাখলে সব কিছু স্বাভাবিক হলে তখন যাবো ইনশাআল্লাহ।
Total Reply(0)
Monjur Rashed ১৫ জুন, ২০২০, ১১:৫৯ এএম says : 0
Why Hajj was postponed in 1932 ? What was the reason behind ? Can anybody reveal the fact ?
Total Reply(0)
MN Ñâjmúš Śãkîb ২২ জুন, ২০২০, ২:৪৭ পিএম says : 0
Hmmm
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন