ঢাকা, শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭, ২৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

কুড়িগ্রামের উলিপুরে কিন্ডার গার্টেন স্কুলের পরিচালকের মরদেহ উদ্ধার

মানুষজনের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া

কুড়িগ্রাম জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩০ জুন, ২০২০, ৭:০৩ পিএম

কুড়িগ্রামের উলিপুরে প্যারাগন কিন্ডার গার্টেন নামের বে-সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পরিচালক এস এম রওশন সরদার (৫৭) এর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সকালে শহরের উপজেলা প্রাণি সম্পদ অফিসের সামনে উলিপুর-চিলমারী সড়কের পার্শ্বে অবস্থিত ওই প্রতিষ্ঠানের একটি কক্ষ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় স্থানীয় মানুষজনের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে।
নিহতের পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বজরা ইউনিয়নের সাদুয়াদামার হাট সরদার পাড়া গ্রামের মৃত্যু নুরুজ্জামান সরদারের ছেলে এস এম রওশন সরদার দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক সমস্যা ও আর্থিক সংকটসহ মানসিক বিপর্যস্ত ছিলেন। এ অবস্থায় তিনি পরিবার থেকে আলাদা হয়ে শহরের গুনাইগাছ মোড় সংলগ্ন উলিপুর-চিলমারী সড়কের পার্শ্বে অবস্থিত তার ভগ্নিপতি মৃত মন্টু মিয়ার জায়গায় প্রতিষ্ঠিত প্যারাগণ কিন্ডার গার্টেনের একটি কক্ষে বসবাস শুরু করেন। মঙ্গলবার সকালে প্রতিষ্ঠানের কেয়ারটেকার আব্দুল গফুর তাকে শয়ন কক্ষে দেখতে না পেয়ে ডাকাডাকি শুরু করেন। কোন সাড়াশব্দ না পেয়ে নিহতের ছোট ভাই জাফর সাদেক সরদারের স্ত্রী শাওনকে ডেকে নিয়ে এসে খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে কিন্ডার গার্ডেনের একটি কক্ষে তার ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় তার মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। এস এম রওশন সরদার এলাকায় একজন অভিজ্ঞ ও মেধাবী শিক্ষক হিসেবে সুপরিচিত ছিলেন। তার হাতেগড়া অসংখ্য ছাত্র এখন বিভিন্ন ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত। লুঙ্গি ও সবুজ কালারের শার্ট পরিহিত রহস্যজনকভাবে গলায় রশি বাঁধা ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে বিভিন্ন শ্রেণির মানুষের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।
উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোয়াজ্জেম হোসেন বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে এটি একটি আত্মহত্যা। লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুড়িগ্রাম মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। রিপোর্ট আসলে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন