ঢাকা শনিবার, ১৬ জানুয়ারি ২০২১, ০২ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউল সানী ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ছুটিতে আটকে পড়া কর্মীরা পুনরায় মালয়েশিয়া যেতে পারবে মানবসম্পদ মন্ত্রী দাতুক সেরি এম সারাভানান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১০ জুলাই, ২০২০, ১০:০১ পিএম

মালয়েশিয়ার মানবসম্পদ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী দাতুক সেরি এম সারাভানান বলেছেন, বাংলাদেশের কর্মীরা অনেক পরিশ্রমী দক্ষ এবং আন্তরিক। তারা মালয়েশিয়ার উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছে। প্রবাসী কর্মীদের সুরক্ষা দেয়া হবে। তিনি বলেন, নিয়োগকর্তারা যাতে বিদেশি কর্মীদের সুরক্ষিত কর্মপরিবেশ, যথাযথ আবাসন এবং নিয়মিত বেতন নিশ্চিত করে সেসব বিষয়ে মালয়েশিয়া সরকার অত্যন্ত গুরুত্ব দিচ্ছে।

মন্ত্রী দাতুক সেরি বলেন, করোনার আগে ছুটিতে বাংলাদেশে যাওয়া যেসব কর্মীর ভিসার মেয়াদ আছে তারা নিয়ম মেনে মালয়েশিয়া আসতে পারবেন। মহামারী পরিস্থিতিতে যেসব কর্মীর ভিসার মেয়াদ শেষ হয়েছে তারা যাতে আবার মালয়েশিয়ায় যেতে পারেন সে বিষয়ে দেশটির সরকার শিগগিরই ঘোষণা দেবে।
বৃহস্পতিবার কুয়ালালামপুরে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মো.শহীদুল ইসলাম মানবসম্পদ মন্ত্রীর সাথে তার দপ্তরে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় দেশটির শ্রমবাজার, বাংলাদেশি কর্মী এবং দ্বিপাক্ষিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয়ে আন্তরিক আলোচনা হয়। বাংলাদেশ হাই কমিশনের নির্ভরযোগ্য সূত্র এতথ্য জানিয়েছে।
বৈঠকে মানবসম্পদ মন্ত্রণালয়ের ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল দাতুক মোহাম্মদ খাইর আজমান বিন মোহামেদ আনুয়ার, আন্ডার সেক্রেটারি (পলিসি) ড. নুর মাজনি বিনতি আবদুল মজিদ, ড. জাকি বিন জাকারিয়া, প্রিন্সিপাল অ্যাসিস্টেন্ট সেক্রেটারি শাবুদ্দিন বিন বকর এবং হাইকমিশনের লেবার কাউন্সেলর মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম, লেবার কাউন্সেলর দ্বিতীয় মো. হেদায়েতুল ইসলাম মন্ডল এবং দ্বিতীয় শ্রম সচিব ফরিদ আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।


বৈঠকে হাইকমিশনার নবনিযুক্ত মালয়েশিয়ার মানবসম্পদ মন্ত্রীকে অভিনন্দন জানান এবং করোনাকালে সাক্ষাৎকার দেয়ায় ধন্যবাদ জানান। আলোচনায় হাইকমিশনার করোনা নিয়ন্ত্রণে সফলতার জন্য মালয়েশিয়া সরকারের প্রশংসা করেন। দাতুক সেরি দৃঢ়তার সঙ্গে সরকারের ভিশনারি এবং করোনা মোকাবিলায় সাহসী নেতৃত্ব দেয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভূয়সী প্রশংসা করেন।
হাইকমিশনার করোনা পরিস্থিতির শিকার হয়ে বাংলাদেশি কর্মীদের যাতে নিজ দেশে ফিরে যেতে না হয় এজন্য নিয়োগকর্তা পরিবর্তনের সুযোগ দেয়ায় ধন্যবাদ জানান। মন্ত্রী বলেন, ডিটেনশন সেন্টারে থাকা বিদেশিদের বৈধতা দিয়ে কর্মে নিয়োগ এবং অবৈধদের বৈধতা দেয়ার জন্য মালয়েশিয়া সরকার কাজ করছে। তিনি আরও বলেন, বিদেশি কর্মীদের সার্ভিস বেনিফিট দেয়া হবে এবং সেভিংসের ব্যবস্থা করা হবে, যাতে তারা একেবারে শূন্য হাতে নিজ দেশে ফিরে না যান।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন