ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট ২০২০, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ২০ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের পথ কঠিন হলো চেলসির

লিভারপুলের জয়রথ থামাল বার্নলি, ম্যানসিটির বড় জয়

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ জুলাই, ২০২০, ৭:৩৫ পিএম

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে শেফিল্ড ইউনাইটেডের কাছে হেরে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের পথ কঠিন হয়ে গেল চেলসির। শনিবার রাতে ঘরের মাঠে শেফিল্ড ইউনাইটেড ৩-০ গোলে হারিয়েছে চেলসিকে। প্রতিপক্ষের মাঠে শেষ তিন ম্যাচে এটা দ্বিতীয় হার চেলসির। তাদের এই হারে ইউরোপ সেরার মঞ্চে যাওয়ার সম্ভাবনা উজ্জ্বল হলো লেস্টার সিটি ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের। গত বছরের আগস্টে লিগের প্রথম পর্বে চেলসির মাঠ স্ট্যামফোর্ড ব্রিজ থেকে ২-২ ব্যবধানের ড্র নিয়ে ফিরেছিল শেফিল্ড। তবে শেফিল্ডের কাছে হারলেও ৩৫ ম্যাচে ৬০ পয়েন্ট নিয়ে এখনো তালিকার তৃতীয়স্থানে আছে চেলসি। একটি করে ম্যাচ কম খেলা লেস্টার (৫৯ পয়েন্ট) ও ইউনাইটেডের (৫৮ পয়েন্ট) সামনে সুযোগ আছে ল্যাম্পার্ডের দলকে ছাড়িয়ে যাওয়ার। আর ৩৫ ম্যাচে ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে ছয় নম্বরে উঠে এসেছে ইউরোপা লিগের বাছাই পর্বে খেলার আশা বাঁচিয়ে রাখা শেফিল্ড। শনিবার ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের অন্য দুই ম্যাচে লিভারপুলের জয়রথ থামাল বার্নলি এবং ম্যানচেস্টার সিটি বড় ব্যবধানে হারালো ব্রাইটন অ্যান্ড হোভ অ্যালবিয়নকে।

চেলসির বিপক্ষে ম্যাচে নিজেদের মাঠে যেন জ্বলে উঠেছিল শেফিল্ড। দারুণ ফুটবল খেলে প্রথমার্ধেই দুই গোল করে চালকের আসনে বসে তারা। দ্বিতীয়ার্ধে স্বাগতিকরা আরো এক গোল পেলে সহজ জয় নিশ্চিত হয় তাদের। ম্যাচের শুরু থেকে চেলসি আক্রমণাতœ ফুটবল উপহার দিয়ে গোলের সুযোগ সৃষ্টি করলেও ধারার বিপরীতে ১৮ মিনিটে পিছিয়ে পড়ে তারা। এসময় শেফিল্ডের একটি আক্রমণ চেলসি গোলরক্ষক রুখতে ব্যর্থ হলে সুযোগ নেন ফরোয়ার্ড ডেভিড ম্যাকগোল্ডরিক। গোলমুখে থাকা শেফিল্ডের এই ফরোয়ার্ড ফিরতি শটে অনায়াসে গোল করেন (১-০)। ৩৩ মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করে শেফিল্ড। বাম দিক থেকে এন্ডা স্টিভেন্সের দারুণ ক্রসে হেডে গোল করেন অলিভার ম্যাকব্রুইন (২-০)।

দ্বিতীয়ার্ধে একের পর এক আক্রমণে শেফিল্ডের রক্ষণভাগকে ব্যতিব্যস্ত করে তুললেও গোল পায়নি চেলসি। উল্টো আরো এক গোল হজম করতে হয় তাদের। ৫০ থেকে ৭২ মিনিট পর্যন্ত অন্তত চারটি গোলের সুযোগ পায় তারা। মার্কোস আলোনসোর, ট্যামি আব্রাহাম, অলিভিয়ে জিরুরা ব্যর্থতার ধারা অব্যহত রাখলে হতাশা বাড়ে চেলসির। ম্যাচের ৭৭ মিনিটে শেফিল্ড তৃতীয় গোল করলে সহজ জয় অনেকটাই নিশ্চিত হয় তাদের। এসময় টনি রুডিগারের বাড়ানো বল জালে ঠেলে দেন ম্যাকগোল্ডরিক (৩-০)। এদিন অন্য ম্যাচে থেমে যায় ঘরের মাঠে লিভারপুলের জয়রথ। লিগ চ্যাম্পিয়নদের রুখে দিয়েছে পয়েন্ট টেবিলের মাঝের সারির দল বার্নলি। অ্যানফিল্ডে বার্নলির বিপক্ষে ১-১ ব্যবধানে ড্র করে আগেই শিরোপা নিশ্চিত করা দল লিভারপুল। স্বাগতিকদের পক্ষে ম্যাচের ৩৪ মিনিটে ফাবিনিয়োর ক্রসে দারুণ হেডে ডিফেন্ডার রবার্টসন গোল করলেও (১-০) ৬৯ মিনিটে সমতায় ফেরে বার্নলি। এসময় জেমসের হেডে বাড়ানো বল জোরালো ভলিতে জালে পাঠান রদ্রিগেজ (১-১)। শেষ পর্যন্ত এই ব্যবধানের ড্র নিয়েই মাঠ ছাড়ে লিভারপুল। এই ড্রতে এবারের লিগে ঘরের মাঠে প্রথম পয়েন্ট হারাল তারা। চলতি আসরে ১৭ ও গত মৌসুম মিলিয়ে লিগে নিজেদের মাঠে আগের ২৪ ম্যাচ জিতেছিল লিভারপুল। ৩৫ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট ৯৩। একই দিন লিগের আরেক ম্যাচে রাহিম স্টার্লিংয়ের হ্যাটট্রিকে ব্রাইটনকে গোলবন্যায় ভাসায় ম্যানচেস্টার সিটি। ব্রাইটনের মাঠে ম্যানসিটি জয় পায় ৫-০ গোলের। স্টার্লিং হ্যাটট্রিক করলে অপর দু’টি গোল পান গাব্রিয়েল জেসুস ও বের্নার্দো সিলভা। লিগে টানা দুই ম্যাচে পাঁচ গোলের ব্যবধানে জিতল গত দুই আসরের চ্যাম্পিয়ন ম্যানসিটি। পাশাপাশি প্রতিপক্ষের মাঠে টানা তিন হারের পর জয়ের দেখা পেল তারা। প্রথম পর্বে নিজেদের মাঠে ব্রাইটনকে ৪-০ গোলে হারিয়েছিল পেপ গুয়ার্দিওলার দল। সব মিলিয়ৈ ব্রাইটনের বিপক্ষে প্রিমিয়ার লিগে ছয় ম্যাচের সবগুলিই জিতল ম্যানসিটি। ৩৫ ম্যাচে ৭২ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার দ্বিতীয়স্থানে আছে দলটি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন