ঢাকা সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬ আশ্বিন ১৪২৭, ০৩ সফর ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

জেকেজি, রিজেন্টের সনদ নিয়ে কেউ ইতালি যাননি

কূটনৈতিক সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৬ জুলাই, ২০২০, ১১:২৯ এএম

বিতর্কিত জেকেজি হেলথ কেয়ার ও রিজেন্ট হাসপাতাল থেকে নভেল করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) পরীক্ষার সনদ নিয়ে বাংলাদেশ থেকে কেউ ইতালি যাননি বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন।

বুধবার রাতে গণমাধ্যমকে তিনি জানান, কভিড-১৯ মহামারির মধ্যে এ যাবৎ ইতালিতে ফিরে যাওয়া বাংলাদেশিদের মধ্যে মাত্র ৩৩ জন কভিড-১৯ 'নেগেটিভ' সনদ নিয়ে গেছেন। তাদের সনদগুলো নিয়েছেন অন্যত্র পরীক্ষার মাধ্যমে। সেই সনদগুলো যথার্থ ছিল।
তিনি জানান, ইতালি সরকার বাংলাদেশ থেকে যাওয়ার সময় কভিড-১৯ সনদ থাকার বিষয়টি বাধ্যতামূলক করেনি।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ভুয়া কভিড-১৯ 'নেগেটিভ' সনদ নিয়ে বাংলাদেশিরা ইতালি গেছেন বলে কিছু গণমাধ্যম যে খবর দিচ্ছে তা সঠিক নয়।
এছাড়া ইতালি কর্তৃপক্ষ বাংলাদেশ থেকে ইতালি যাওয়ার ওপর আগামী ২ অক্টোবর পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে এমন খবরও সঠিক নয়। পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, ইতালি আগামী ৩১ জুলাই পর্যন্ত বাংলাদেশসহ ১৩টি দেশ থেকে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (4)
Ismail ১৬ জুলাই, ২০২০, ৫:৪১ পিএম says : 0
What you say now. That history already finish boss
Total Reply(0)
Mohammed Shah Alam Khan ১৬ জুলাই, ২০২০, ৯:০৪ পিএম says : 0
পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন এখানে বলেছেন, ইতালিতে যাওয়া যাত্রীদের মধ্যে ৩৩ জন কভিড-১৯ নেগেটিভ সনদ নিয়ে গেছেন। আর সেসব সনদ অন্যত্র পরীক্ষার মাধ্যমে নিয়েছেন এবং সেগুলো সঠিক সনদ ছিল। তাহলে বুঝাযাচ্ছে ইতালির যাত্রীরা রিজেন্ট বা জেকেজির সনদ নিয়ে যায়নি। এটা অবশ্যই জাতীর জন্যে মঙ্গলকর সংবাদ। তাছাড়া আমরা বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে জানতে পারছিলাম যে, রিজেন্ট হাসপাতাল বা জেকেজি হেলথ কেয়ারের সনদ নিয়ে যাত্রীরা বিদেশে যাচ্ছিলেন আর সেখান থেকে ভুয়া সনদের কারনে ফিরে আসছেন। এই খবরগুলো সংবাদ মাধ্যম কোথা থেকে জেনেছে বা সংগ্রহ করেছে এটা এখন প্রশ্নের সৃষ্টি করেছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন দেরীতে হলেও সঠিক খবর দিয়ে জতীকে বিভ্রান্ত হতে রক্ষা করেছেন। আমি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেনকে জানাই ধন্যবাদ। আল্লাহ্‌ আমাকে সহ সবাইকে সত্য জানা, সত্য বুঝা এবং সত্য পথে চলার ক্ষমতা দান করুন। আমিন
Total Reply(0)
মোঃ আক্কাস বিন আব্দুল হাকিম ১৬ জুলাই, ২০২০, ২:৪৫ পিএম says : 0
এখন যারা খবর করেছে তাদের বিচার করতে হবে এইতো! করুন মানুষের মুখ বন্ধ করে দিন। তাহলেতো লেঠা চুকেই গেল।
Total Reply(0)
Nisarul Islam ১৬ জুলাই, ২০২০, ৮:২৮ পিএম says : 0
ইতালী বা অন্যান্য দেশের প্রবাসীরা আবার মানুষের পর্যায়ে পড়ে নাকি ? সুতরাং প্রবাসীদের বক্তব্য পাত্তা দিবেননা, উনাদের মতো অভিজাত লোকের কথা মেনে নিন ।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন