ঢাকা বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০৬ মাঘ ১৪২৭, ০৬ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

পদ্মা সেতু প্রকল্প রক্ষা বাঁধের ৭০ মিটার নদীতে বিলীন

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৭ জুলাই, ২০২০, ১২:০১ এএম

পদ্মা নদীতে পানি বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে স্রোত। স্রোতের কারণে পদ্মার ভাঙন অব্যাহত রয়েছে। গত দুদিনে জাজিরার নাওডোবায় পদ্মা সেতু প্রকল্প রক্ষা বাঁধের ৭০ মিটার অংশ বিলীন হয়েছে। আর কুন্ডের চর ইউনিয়নের সিডার চর এলাকায় ভাঙনে ২০০ পরিবার গৃহহীন হয়েছে। এ ছাড়া শরীয়তপুরের আরও ১৪টি স্থানে ভাঙন রয়েছে। এসব স্থানে পানি উন্নয়ন বোর্ড বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলছে।

শরীয়তপুর পাউবো সূত্র জানায়, পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হওয়ার আগে ২০১০-১১ সালে জাজিরার নাওডোবা এলাকায় পদ্মা নদীতে ব্যাপক ভাঙন ছিল। ২০১২ সালে সেতু বিভাগ পূর্ব নাওডোবার ওকিল উদ্দিন মুন্সিকান্দি গ্রাম পর্যন্ত এক কিলোমিটার এলাকা সিসি বøক দিয়ে ভাঙন প্রতিরক্ষা বাঁধ নির্মাণ করে। ১১০ কোটি টাকা ব্যয়ে বাঁধটি নির্মাণ করা হয়। বাঁধের শেষ প্রান্তে ওকিল উদ্দিন মুন্সিকান্দি এলাকা দিয়ে ভাঙন শুরু হয়েছে। দুই সপ্তাহ ধরে ওই এলাকা পদ্মা নদীতে ভাঙছে। গত দুদিনে বাঁধের ৭০ মিটার সিসি বøক নদীতে ধসে যায়। এই স্থান দিয়ে তীর উপচে পদ্মার পানি লোকালয়ে ঢুকছে। কুন্ডের চর ইউনিয়নের একটি মৌজা সিডার চর। এর চারদিক দিয়ে পদ্মা নদী। সিডার চর এলাকায় ভাঙন শুরু হয়েছে এক সপ্তাহ হয়েছে। দেড় কিলোমিটার এলাকাজুড়ে ভাঙনে ২০০ পরিবার গৃহহীন হয়েছে। ভাঙনের হুমকিতে পড়েছে করপাড়া গুচ্ছগ্রাম।

জাজিরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আশ্রাফুজ্জামান ভূঁইয়া বলেন, পদ্মা সেতু প্রকল্প রক্ষা বাঁধের সিসি বøক ধসে নদীতে বিলীন হচ্ছে। সেখানে বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ভাঙনে গৃহহীন পরিবারগুলোকে সহায়তা করা হবে। তাদের খাদ্যসহায়তা দেওয়া হয়েছে। পুনর্বাসনে সহায়তাও দেওয়া হবে। নদীতে তীব্র স্রোত থাকায় জাজিরার পূর্ব নাওডোবা ইউনিয়নের জিরো পয়েন্ট, ওকিল উদ্দিন মুন্সিকান্দি, বড় কান্দি ইউনিয়নের দুর্গাহাট, নাজিম উদ্দিন ব্যাপারীকান্দি, নড়িয়ার ঘরিসার ইউনিয়নের চরমোহন, বাংলাবাজার, চরআত্রা ইউনিয়নের বসাকের চর, কীর্তিনাশা নদীর নড়িয়ার মোক্তারের ইউনিয়নের ঢালীপাড়া, সদরের পালং ইউনিয়নের কোটাপাড়া, ডোমসার ইউনিয়নের মুন্সিরহাট এলাকায় ভাঙন শুরু হয়েছে। পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হকের নির্দেশে এসব স্থানে ভাঙনরোধে বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলা হচ্ছে। জাজিরার ওকিল উদ্দিন মুন্সিকান্দি গ্রামের মোবারক চোকদার বলেন, ভাঙনে বসতবাড়ি বিলীন। পদ্মা সেতু প্রকল্প রক্ষা বাঁধ দেওয়ায় মনে আশা জেগেছিল আর ভাঙনের শিকার হব না। কিন্তু পদ্মা বাপ-দাদার ভিটা গ্রাস করে নিল।

সিডার চর এলাকার জহির উদ্দিন মোল্যা বলেন, পদ্মায় তার বসতবাড়ি ও আবাদি জমি বিলীন হয়ে গেছে। করপাড়া গুচ্ছগ্রামে আশ্রয় নিয়েছেন। এখন পদ্মার ভাঙন সেটিও গ্রাস করবে। এরপর কোথায় আশ্রয় নেবেন জানেন না। শরীয়তপুর পাউবোর নির্বাহী প্রকৌশলী এস এম আহসান হাবীব বলেন, ভাঙন রোধে জরুরি ভিত্তিতে বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলা হচ্ছে। পদ্মা সেতু প্রকল্প রক্ষা বাঁধের যে অংশে ভাঙন শুরু হয়েছে, তা থেকে সেতুর দূরত্ব দুই কিলোমিটার। এই মুহূর্তে সেতু প্রকল্প এলাকার কোনো ঝুঁকি নেই। সেখানে ৫০০ মিটার জায়গায় বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলা হচ্ছে। যোগাযোগ করলে পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক বলেন, ভাঙনরোধে ব্যবস্থা নিচ্ছে পাউবো। পদ্মা সেতু প্রকল্পসহ শরীয়তপুরের নানা স্থাপনা ও হাটবাজার রক্ষায় বিভিন্ন স্থানে স্থায়ী বাঁধ দেওয়ার প্রকল্প নেওয়া হবে। ভাঙনে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের সহায়তা করা হচ্ছে। স্থানীয় প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে তাদের পাশে থাকতে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (10)
Mohammed khorshad alam ২৭ জুলাই, ২০২০, ১:২৫ পিএম says : 0
রাব্বুল আলামিনের দরবারে ফরিয়াদ আল্লাহ যেন আমাদের বাংলাদেশকে রক্ষা করে। সাথে সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের জন্য দোয়া রইল।আল্লাহ আমাদের গরিব অসহায় মানুষদের যেন রক্ষা করে। পদ্মা সেতুকে যেন রক্ষা করে।
Total Reply(0)
জাবের পিনটু ২৭ জুলাই, ২০২০, ১২:৫৯ এএম says : 0
হে আল্লাহ তুমি বন্যার পানি থেকে আমাদের হেফাজত করো। স্বপ্নের পদ্মা সেতু এভাবে বাধাগ্রস্ত হলে কষ্ট লাগবে।
Total Reply(0)
জোবায়ের আহমেদ ২৭ জুলাই, ২০২০, ১:০০ এএম says : 0
বাংলাদেশ এমনিতেই করোনা মহামারিতে বিপর্যস্ত এর মধ্যে বন্যায় মরার ওপর খাড়ার ঘাঁ।
Total Reply(0)
গাজী ওসমান ২৭ জুলাই, ২০২০, ১:০১ এএম says : 0
মহান আল্লাহ তুমি আমাদের হেফাজত করো।
Total Reply(0)
salman ২৭ জুলাই, ২০২০, ৩:৩৬ এএম says : 0
হাহাহা, Awami Jaliyati. ROD nai ase BASH (Bamboo). Bridge E na amar DHOSHE poray ALLAH e Janay. karon PELAR J Bash deyee Toite.???
Total Reply(0)
Md.Sazu shaikh ২৭ জুলাই, ২০২০, ৯:১১ পিএম says : 0
Yes
Total Reply(0)
Md.Sazu shaikh ২৭ জুলাই, ২০২০, ৯:১২ পিএম says : 0
Yes
Total Reply(0)
আশিকুর রহমান আসলামী ২৭ জুলাই, ২০২০, ১০:২৯ পিএম says : 0
আল্লাহ আমাদের সবাইকে হেফাজত করুন
Total Reply(0)
আশিকুর রহমান আসলামী ২৭ জুলাই, ২০২০, ১০:২৯ পিএম says : 0
আল্লাহ আমাদের সবাইকে হেফাজত করুন
Total Reply(0)
Mzaman ২৭ জুলাই, ২০২০, ৮:৫৯ এএম says : 0
Allah Aponar kase sobai khoma chai amader Khama korun;
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন