ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৩ কার্তিক ১৪২৭, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

গাজীপুরে মুক্তিপণ না পেয়ে প্রতিবন্ধী শিশুকে হত্যা

গাজীপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৯ জুলাই, ২০২০, ৩:১৮ পিএম

গাজীপুরে অপহরণের এক দিন পর মুক্তিপণ না পেয়ে অপহরণকারীরা ফাহিম (৭) নামে এক প্রতিবন্ধী শিশুকে হত্যা করেছে। গাজীপুর মহানগরীর বাসন থানা পুলিশ শিশুটির বস্তাবন্দী লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজ উদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।
নিহত ফাহিম নেত্রকোনা জেলার আটপাড়া থানার শুরমুখ্যা গ্রামের কামরুল ইসলামের ছেলে। তাকে মুক্তিপণের দাবিতে সোমবার অপহরণ করা হয়েছিল।
নিহতের পরিবার ও বাসন থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, গাজীপুর মহানগরের নলজানী মধ্যপাড়া এলাকায় সপরিবারে ভাড়া বাসায় থাকেন কামরুল ইসলাম। কামরুল ও তার স্ত্রী স্থানীয় পোশাক কারখানায় চাকরি করেন। তাদের ৭ বছরের প্রতিবন্ধী (একটি হাত ছোট) সন্তান ফাহিম স্থানীয় চান্দনা কেজি ইন্সটিটিউট স্কুলের দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়তো। প্রতিদিনের মতো সোমবার ফাহিমকে বাসায় রেখে কামরুল ও তার স্ত্রী গার্মেন্টসে যান। দুপুরে খাবারের বিরতির সময় দম্পতি বাসায় এসে ফাহিমকে দেখতে না পেয়ে খোঁজাখুঁজি করতে থাকেন। রাতে অজ্ঞাত ব্যক্তিরা মোবাইলে পরিবারের কাছে ফাহিমকে অপহরণ করার কথা জানিয়ে ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। মুক্তিপণ না পেলে হত্যা করার হুমকি দেয়।

অপহরণকারীদের হুমকির কারণে সন্তানকে ফিরে পেতে তাদের মোবাইলে বিকাশের মাধ্যমে দুই হাজার টাকা দেন শিশুটির বাবা। একপর্যায়ে ছেলেকে না পেয়ে পুলিশকে জানায় তার বাবা। পরে তাদের বাসার পাশে একটি পরিত্যক্ত জমিতে বস্তাবন্দী লাশটি লোকজন দেখতে পেয়ে পুলিশ কে খবর দেয়। পরে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন।

বাসন থানার ওসি রফিকুল ইসলাম আরো জানান, ধারনা করা হচ্ছে অপহরণের পর শিশুটিকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করা হয়েছে। অপহরণকারীদের গ্রেফতারে পুলিশী অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন