ঢাকা রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০৩ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

দীপিকার বিরুদ্ধে ‘গুরুতর’ অভিযোগ, বিতর্ক তুঙ্গে!

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩০ জুলাই, ২০২০, ৩:২৪ পিএম

বলিউড অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোনের বিরুদ্ধে এবার অর্থের বিনিময়ে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে যোগ দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের (জেএনইউ) শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভে অংশ নেওয়ার জন্য ৫ কোটি টাকা নিয়েছিলেন অভিনেত্রী। বুধবার (২৯ জুলাই) এমন অভিযোগে সোশ্যাল মিডিয়ায় চলছে ট্রেন্ড। এ নিয়ে অন্তর্জালে শুরু হয়েছে তুমুল উত্তেজনা।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে নিজের সিনেমা 'ছপাক'-এর প্রমোশনের জন্য দিল্লির জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে অংশ নিয়েছিলেন দীপিকা। তাদের সঙ্গে একমত পোষণ করে সেসময় নানা কথা বলেছিলেন রণবীরের ঘরণী।

কিন্তু সম্প্রতি এই অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে, শিক্ষার্থীদের আন্দোলন জোরদার করতে ৫ কোটি টাকা নিয়েছিলেন দীপিকা! এমনটি দাবি করেছেন ভারতীয় গোয়েন্দা সংস্থার সাবেক কর্মকর্তা এন কে সুদ।

এন কে সুদের কথায়, 'গেল জানুয়ারি মাসে ভারতে নাগরিক আইন সংশোধনী বিলের বিরুদ্ধে আন্দোলন গড়ে তুলতে পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত এক ব্রিটিশ ব্যবসায়ী টাকা দিয়েছিলো লন্ডনে। এমনকি তার আদেশেই জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে গিয়ে দেখা করেছিলেন দীপিকা। শুধু তাই নয়, সেখানে যাওয়ার জন্য ৫ কোটি টাকাও নিয়েছিলেন নায়িকা।'

বুধবার দীপিকার টাকার বিনিময়ে জেএনইউয়ে যাওয়ার অভিযোগ সামনে আসতেই টুইটারে ট্রেন্ড শুরু হয়ে যায়। একের পর এক ট্রোল বানানো হয় অভিনেত্রীকে নিয়ে। ইতোমধ্যে অনেকেই সমর্থন করেছেন এই অভিযোগ।

কিন্তু নেটিজেনদের একাংশের মতে, শুধুমাত্র নিজের সিনেমার প্রচারের জন্যই সেখানে গিয়েছিলেন নায়িকা। ওই ঘটনার কিছুদিন পরেই মুক্তি পায় দীপিকা অভিনীত 'ছপাক' সিনেমাটি। সুতরাং নিজের সিনেমার প্রমোশনের জন্য তিনি এমন সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করবেন না তা বলাই বাহুল্য। যদিও বিষয়টি নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে দেখা যায়নি এই চিত্রতারকাকে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন