ঢাকা শুক্রবার, ০২ অক্টোবর ২০২০, ১৭ আশ্বিন ১৪২৭, ১৪ সফর ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

তিন আসামি ১৪ দিনের রিমান্ডে

পল্লবী থানায় বিস্ফোরণ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩১ জুলাই, ২০২০, ১২:০১ এএম

আইএসের দায় স্বীকার, পুলিশের না
রাজধানীর পল্লবী থানায় বিস্ফোরণের ঘটনায় গ্রেফতার রফিকুল ইসলাম, শহিদুল ইসলাম ও মোশাররফের বিরুদ্ধে ১৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। গতকাল তাদের ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে অস্ত্র মামলায় সাত দিন ও বিস্ফোরক আইনে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। শুনানি শেষে তাদের বিরুদ্ধে ১৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।
এদিকে, পল্লবী থানায় বিস্ফোরণের ঘটনার দায় স্বীকার করেছে আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস)। গত বুধবার রাতে সাইট ইন্টেলিজেন্স তাদের টুইটার ও নিজস্ব ওয়েবসাইটে এ তথ্য জানিয়েছে। তবে এই বিস্ফোরণের সঙ্গে কোনো ধরনের জঙ্গি সম্পৃক্ততা নেই বলে দাবি করেছে পুলিশ।
গতকাল দুপুরে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার আবদুল বাতেন বলেন, এ ঘটনায় পল্লবী থানায় দু’টি মামলা হয়েছে। যারা গ্রেফতার হয়েছে; তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। জিজ্ঞাসাবাদ ও তদন্তে আমরা যা পাচ্ছি এটা স্থানীয় আধিপত্য বিস্তার সংশ্লিষ্ট একটি অপরাধ কর্মকান্ড। জঙ্গির কোনো সংশ্লিষ্টতা আমরা এখনো পাইনি। তারা কেন কাকে কীভাবে হত্যা করার জন্য পরিকল্পনা করেছিল সে বিষয়গুলো আমরা খতিয়ে দেখছি। এর বেশি কিছু পেলে আমরা পরবর্তীতে জানাবো।
পল্লবী থেকে গ্রেফতার তিন জনের একজন শহীদুল, তাকে ৩ দিন আগে একটি মাইক্রোতে তুলে নেয়া হয়েছিল বলে দাবি করছে তার পরিবার। এ বিষয়ে থানায় জিডি আছে। তারপরেও তাকে কীভাবে আগের রাতে গ্রেফতার করা হলো? এ বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আবদুল বাতেন বলেন, আপনার বক্তব্য আমরা তদন্ত করে দেখবো। আমরা এ ধরনোর কোনো তথ্য পাইনি। আমরা তাদের হাতেনাতে গ্রেফতার করেছি। যে বস্তুটি উদ্ধার করেছি; সেটা আপনারা দেখেছেন। এর বাইরে যদি কোনো বিষয় থাকে সেটা আমরা তদন্ত করে দেখবো।
আরেক প্রশ্নের জবাবে পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, এখন যদি আপনি সব প্রশ্নের উত্তর চান তাহলে দেয়া যাবে না। আবার অনেক কিছু আছে যা তদন্তের স্বার্থে আপনাকে বলাও যাবে না। আপনাকে বিস্তারিত সবকিছু খুলে বলার মতো আমার কাছে তথ্য নাই।
উল্লেখ্য, গত বুধবার ভোর রাতে পল্লবী থানায় বিস্ফোরণের ঘটনায় চার পুলিশ সদস্য এবং একজন সাধারণ নাগরিক আহত হন। এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়। পরে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দুটি মামলা দায়ের করা হয়। ওই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে গতকাল তাদের রিমান্ডে নেয়া হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন