ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯ আশ্বিন ১৪২৭, ০৬ সফর ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

বৈরী আবহাওয়ায় ভোলার নিম্নাঞ্চল ১০ ফুট পানির নিচে

হুমকির মুখে জেলা শহর রক্ষা বাঁধ

ভোলা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৬ আগস্ট, ২০২০, ৯:৩৭ এএম | আপডেট : ১০:২৫ এএম, ৬ আগস্ট, ২০২০

বৈরী আবহাওয়ার কারণে ভোলার নদ-নদী উত্তাল হয়ে পড়েছে। সন্ধার পরে মেঘনার পানি বিপদ সীমার ১শত ১৫ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়। যা ছিলো বিগত দিনের সর্বোচ্চ রেকর্ড। সদর উপজেলার ইলিশা, রাজাপুর, ধনিয়া, কাচিয়া, শিবপুরসহ দৌলতখান, বোরহানউদ্দিন, তজুমদ্দিন, মনপুরা ও চরফ্যাশন উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় বাঁধের উপর দিয়ে পানি লোকালয়ে ডুকে পড়েছে।
জেলার ঢালচর, চর নিজাম, কাজীর চরসহ নিম্মাঞ্চলগুলো ৫ থেকে ১০ ফুট পানিতে তলিয়ে গেছে। সদর উপজেলার ইলিশায় নদীতে গোসল করতে নেমে সুজন নামের এক যুবক নিখোঁজ হয়েছে।
জেলা শহরের নিকটবর্তী এলাকা নাছির মাঝি, তুলাতুলী এবং কোড়ারহাট এলাকায় পানি ডুকে জন-জীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। এসব এলাকার মানুষের দুর্ভোগ চরম আকার ধারণ করেছে।
এবারের বর্ষায় এসব এলাকার ঝুঁকিপূর্ণ বাঁধগুলো ভেঙ্গে জেলা শহরে পানি ডুকতে পারে এমন আশঙ্কার কথা আগেই পাউবোকে জানানো হয়েছে কিন্তু পাউবো কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় এখন ভোলা শহর রক্ষা বাঁধসহ ভোলাবাসী চরম হুমকির মুখে পড়েছে দাবী করে জনপ্রতিনিধিরা দ্রুত ক্ষতিগ্রস্ত এবং ঝূঁকিপূর্ণ বাঁধগুলো সংস্কারের দাবী জানিয়েছেন।তারা
জানান, এক দিকে উজান থেকে নেমে আসা বন্যার পানির চাপ অপরদিকে পুর্ণিমা সেই সাথে যুক্ত হয়েছে সাগরে সৃষ্ট নিম্মচাপ, ফলে মেঘনা নদীতে আজ বিকালে জোয়ারের পানি বিপদ সীমার প্রায় ৪.৩০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। এতে বেশ কয়েকটি স্পটে বেড়িবাধ ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়ে। তবে পানি উন্নয়ন বোর্ড জরুরি ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন