ঢাকা মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭ আশ্বিন ১৪২৭, ০৪ সফর ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

‘কাশ্মীর আর ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় নয়’ জাতিসঙ্ঘে চীন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৬ আগস্ট, ২০২০, ৪:৪০ পিএম

কাশ্মীরের বিশেষ ক্ষমতা আইন বাতিলের এক বছর পূর্তির মুহূর্তে এই প্রথম এ বিষয়ে মুখ খুলল চীন। জাতিসঙ্ঘে ফের বিষয়টি উত্থাপন করার চেষ্টা করল পাকিস্তান। ভারতও জবাব দিয়েছে। যদিও বৃহস্পতিবার সকালে কোনও এক অজ্ঞাত কারণে তা তুলে নেওয়া হয়।
চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের মুখপাত্র বুধবার বলেছেন, ভারত যেভাবে কাশ্মীরে বিশেষ আইন বাতিল করেছে এবং রাজ্যটিকে ভেঙে দিয়েছে, তা অবৈধ। চীনের বক্তব্য, কাশ্মীর নিয়ে ভারত এবং পাকিস্তানের দ্বন্দ্ব স্বাধীনতার পর থেকেই। জাতিসংঘও সেখানে হস্তক্ষেপ করেছে। এ বিষয়ে জাতিসংঘের চার্টার রয়েছে। ফলে এই পরিস্থিতিতে কাশ্মীর প্রসঙ্গকে অভ্যন্তরীণ বলতে পারে না ভারত।
উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ৫ অগাস্ট ভারতীয় সংসদে দেশের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ কাশ্মীর থেকে ৩৭০ এবং ৩৫এ অনুচ্ছেদ বাতিলের ঘোষণা করেন। জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যটিকে ভেঙে দিয়ে লাদাখ এবং কাশ্মীরকে দুইটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগ করা হয়। যা নিয়ে তখনই সমালোচনা করেছিল পাকিস্তান। কূটনীতিবিদদের মতে, ওই সময়ে পাকিস্তানকে প্রচ্ছন্নভাবে সমর্থন করেছিল চীন। কিন্তু সরাসরি কোনও কথা বলেনি। ভারত জানিয়েছিল, বিষয়টি একান্তই অভ্যন্তরীণ। এ বিষয়ে অন্য কোনও রাষ্ট্রের কিছু বলার থাকতে পারে না।
বিশেষজ্ঞদের বক্তব্য, পাকিস্তানের অনুরোধেই বিষয়টি নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে তোলা হয়। জাতিসংঘে ভারতের প্রতিনিধি তিরুমূর্তি টুইট করে জানিয়েছেন, চীন কাশ্মীর প্রসঙ্গ তুললেও নিরাপত্তা পরিষদের অন্য সদস্যরা তা নিয়ে আলোচনা করতে রাজি হয়নি। বলা হয়েছে, কাশ্মীর নিয়ে ভারত এবং পাকিস্তানের দ্বিপাক্ষিক বিতর্ক আছে। এ নিয়ে নিরাপত্তা পরিষদ আলোচনা করবে না।
নিরাপত্তা পরিষদে কাশ্মীর ইস্যুটি উত্থাপনের পর প্রথমে চীনকে সমর্থন জানিয়েছিল ইন্দোনেশিয়া। কিন্তু পরে তারা সে সমর্থন প্রত্যাহার করে বলে হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন