ঢাকা রোববার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ৮ কার্তিক ১৪২৭, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

দেশে সুশাসন না থাকলে যা হয়: ডা. জাফরুল্লাহ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ২:৩৮ পিএম

নারায়ণগঞ্জের বায়তুল সালাত জামে মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনার কথা উল্লেখ করে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, অব্যবস্থাপনার জন্যই এ ধরনের দুর্ঘটনা ঘটে থাকে।

আজ রোববার ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে মসজিদে বিস্ফোরণে দগ্ধ ব্যক্তিদের দেখতে এসে তিনি এ কথা বলেন। জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, অব্যবস্থাপনার কারণেই এই দুর্ঘটনা ঘটে থাকে; দেশে সুশাসন না থাকলে যা হয়।

তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীকে এ ঘটনার সঠিক তদন্ত করে ব্যবস্থা নিতে হবে, যাতে পুনরায় এ ধরনের ঘটনা না ঘটে।

জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, দেশের সব হাসপাতালে পোড়া রোগীদের চিকিৎসার ব্যবস্থা থাকতে হবে। সরকার হাজার হাজার কোটি টাকার মেগা প্রজেক্ট করছে। কিন্তু কিছু একটা ঘটলেই এখন ঢাকায় আসতে হচ্ছে। প্রতিটি জেলায় বার্ন ইউনিট থাকতে হবে। এটা আইসিইউর চেয়েও বেশি দরকার।

এ ছাড়া সব চিকিৎসককে পোড়া রোগীদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার প্রশিক্ষণ দেয়া উচিত বলে মত দেন তিনি।

নারায়ণগঞ্জের ঘটনার কথা উল্লেখ করে জাফরুল্লাহ চৌধুরী আরও বলেন, কোনো দুর্ঘটনা হলে স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা পাওয়া উচিত। নারায়ণগঞ্জেই যদি এই রোগীরা প্রাথমিক চিকিৎসা পেতেন, তাহলে এতজন মারা যেতেন না।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
Mohammed Shah Alam Khan ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১০:৩৮ পিএম says : 0
ডাক্তার জাফরুল্লা চৌধুরী একজন বিশিষ্ট ব্যাক্তিত্ব হবার পরও ওনার কথায় মানুষ তেমন একটা সাড়া দেয়না কারন তিনি দেশের শত্রু পাকিস্তানের পক্ষে কথা বলেন এবং পাকিদের সমর্থিত রাজনৈতিক দলকে সমর্থন দেন। এখানে তিন বলেছেন, ‘দেশে সুশাসন না থাকলে যা হয়।‘ ওনার এই ছোট্ট কথাটা যে কতটা ওজন সম্পন্ন সেটা বুঝার বিষয়। তিতাসের অব্যবস্থাপনার কারনেই এই ঘটনার সৃষ্টি হয়েছে। আজ দেশের যে অবস্থা সেটাও দেশের অব্যবস্থাপনার কারনেই ঘটে চলছে। দেশে একের পর সন্ত্রাসী মূলক ঘটনা সাথে সাথে সরকারি কর্মকর্তার দুর্নীতির কারনে দেশে একের পর এক দুর্ঘটনা ঘটে যাচ্ছে। জুলাই মাসে প্রদীপের দুর্নীতি ও সন্ত্রাসী মূলক ঘটনায় মেজর (অবঃ) সিনার মৃত্যু, এরপর আগষ্টে ইউএনওকে হত্যার উদ্দেশ্যে তাঁর বাড়িতে হামলা করে তাঁকে ও তাঁর মুক্তিযোদ্ধা বাবাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে আঘাত করা। সেপ্টেম্বরে তিতাস গ্যাসের (সরকারি সংস্থা) লিকেজের কারনে মসজিদে বিস্ফোরন ইতিমধ্যে ২৪ জনের মৃত্যু এবং মারাত্মক অবস্থায় জীবন মৃত্যুর সন্দিক্ষনে প্রচুর মুসুল্লি হাসপাতালের বিছানায় কাতরাচ্ছেন। এসবই সরকারে সুশাসন না থাকার কারনেই ঘটছে। মহান আল্লাহ্‌র দরবারে প্রার্থনা আল্লাহ্‌ যেন মজিদে নামজ পরার সময়ে বিস্ফোরনের কারনে মৃত্যু সয্যায় যারা কাতরাচ্ছেন তাদেরকে সুস্থ করে আবার আমাদের মাঝে ফিরিয়ে আনেন। আমিন
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন