ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

খালেদাকে নিয়ে লেখা নিবন্ধে মিথ্যাচার করা হয়েছে

সংবাদ সম্মেলনে রিজভী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১২:০০ এএম

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, গত ১৫ সেপ্টেম্বর গণতন্ত্র দিবসে একটি ইংরেজী দৈনিকে যে নিবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে সেটি উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। ওই নিবন্ধে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ও ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলা সম্পর্কে নির্জলা মিথ্যাচার করা হয়েছে। গতকাল নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি।

লিখিত বক্তব্যে রুহুল কবির রিজভী বলেন, গণতন্ত্র দিবসে ইংরেজি দৈনিকে ‘ আফটার থার্টি ইয়ারর্স অফ অটোক্রেসি ডিমাইজ, ডেমোক্রেসি স্টিল রিমেইন্স অ্যা ডিসস্ট্যান্ট ড্রিম’ শিরোনামে একটি নিবন্ধ ছাপা হয়েছে। যে নিবন্ধের মধ্যে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে নির্জলা মিথ্যাচার, বিভ্রান্তিকর তথ্য, অসৎ উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ও অসংলগ্ন মতামত উল্লেখ করা হয়েছে।

রিজভী বলেন, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা নিয়ে প্রবন্ধে যা লেখা হয়েছে তা অবৈধ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার পারিষদবর্গের হাইপার-প্রপাগান্ডা ও কলুষিত মিথ্যাচারের প্রতিধ্বনি মাত্র। মিথ্যা বানোয়াট গল্প সাজিয়ে সংবাদ পরিবেশনের দায়ে বার বার ক্ষমা চেয়ে এখন সরকারের কাছে সাধু সাজার প্রতিযোগিতায় নেমেছেন ওই নিবন্ধকার। তার লেখালেখির ভিশন-মিশন হলো বিএনপির বিরুদ্ধে বানোয়াট ও ভিত্তিহীন কাহিনী রচনা করে তা প্রকাশ করা। ভয়ে হোক বা উচ্ছিষ্ট ভোগিচ্ছায় হোক গণতন্ত্রহীন ও বেপরোয়া আচরণে লিপ্ত আওয়ামী লীগ সরকারকে খুশি করাই এখন তার আরাধ্য। তিনি এখন আওয়ামী নব্য নাৎসিবাদের উপাসকে পরিণত হয়েছেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (2)
সাঈদ, মুক্তিযোদ্ধা ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৮:৫৩ এএম says : 0
If any news goes against BNP, you guys colour than news as false news. But the people know what is true and what is false.
Total Reply(0)
Mohammed Shah Alam Khan ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১০:৩০ পিএম says : 0
পদলেহনের একটা সীমা আছে বিএনপির নেতা রেজভী মিয়া সেই পদলেহনের সীমাকে অতিক্রম করেগেছে এটাই ফুটে উঠেছে এই খবরের মাধ্যমে। পালাতক আসামী তারেক জিয়ার কথায় রেজভী মিয়া এসব মিথ্যা কথা প্রচার করে যাচ্ছেন যে জন্যে তার এধরনের বক্তব্যের সমর্থনে দলের অন্য নেতাদেরকে বলতে দেখা যায়না। বিএনপি দলের বড় বড় নেতারা তারেক জিয়ার পদলেহন করতে নারাজ তাই রেজভী মিয়া সেই সুযোগে একাই পদলেহনের মাধ্যমে মিথ্যার সাগর সমাজে বিতরণ করে চলছে। দেশের একটা সুনাম ধন্য দৈনিক ইংরেজী পত্রিকায় রিজভী মিয়ার উল্লেখিত প্রবন্ধটি প্রকাশিত হয়েছে। রিজভী মিয়া নিজেদেরকে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় জামাত-বিএনপি দলকে কুলষ মুক্ত করার পায়তাড়ায় আছেন। দেশবাসী অন্ধ কিংবা বধির নয়, তারা ২১ আগষ্টে জামাত-বিএনপি সরকারের তান্ডব খেলা স্বচক্ষে দেখেছে এবং তাদের কথা শ্রবন করেছে এবং পত্র পত্রিকায় পড়েছে। সেসময়ের খালেদা জিয়ার সরকার জজ মিয়ার নাটক পুলিশকে দিয়ে দেশে করায়ে দেশের বারটা বাজিয়ে দিয়েছে। এখনও পুলিশ সেই খালেদা জিয়ার সরকারের শেখানো জজ মিয়ার নাটক বিভিন্ন পন্থায় ফুটিয়ে তুলে নিরীহ জনগণের ত্রাহি ত্রাহি অবস্থা করে ছাড়ছে। কাজেই এখন সাফাই গাইলেই মানুষ তার কথা শুনবেনা বরং জলজন্ত মিথ্যা বলার জন্যে রিজভী সাহেবকে আস্তাকুড়ে নিক্ষেপ করবে। তবে এখন রেজভী মিয়াকে আস্তাকুড়ে নিক্ষেপের সুযোগ নেই, কারণ তিনি এখন আস্তাকুড়েই বসে আছেন। আমি ব্যাক্তিগত ভাবে মহান আল্লাহ্‌র দরবারে প্রার্থনা করছি আল্লাহ্‌ যেন রেজভী মিয়াকে সত্য কথা বলার ও সততার সাথে চলার ক্ষমতা প্রদান করেন। আমিন
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন