ঢাকা শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ১৪ কার্তিক ১৪২৭, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

মুখোমুখি বিতর্কে ট্রাম্পকে বাইডেন : ‘যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে আপনি সবচেয়ে বাজে প্রেসিডেন্ট’

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১০:৪৭ এএম

৩ নভেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে আজ বুধবার প্রথম প্রেসিডেন্সিয়াল বিতর্কে তুমুল বাগযুদ্ধে মুখোমুখি হয়েছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার ডেমোক্র্যাটিক প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেন। বিতর্কে একে অন্যকে দেশের স্বাস্থ্য, অর্থনীতি ও ব্যক্তিগত বিষয়াদি তুলে ঘায়েল করার চেষ্টা করেন।

বিতর্কের শুরু থেকেই তেতে ছিলেন দুই প্রার্থী। এমনকি ব্যক্তিগত, রাজনৈতিক আক্রমণও করেন দুজনে। বাইডেনকে উদ্দেশ্য করে ট্রাম্প বলেন, আপনি ৪৭ বছরে যা পারেননি আমি ৪৭ মাসেই তার চেয়ে বেশি কিছু করেছি।

বাইডেনও ট্রাম্পকে পাল্টা আক্রমণ করে বলেন, আপনি এখন পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে সবচেয়ে বাজে প্রেসিডেন্ট। এমনকি প্রেসিডেন্ট থাকাবস্থায় ট্রাম্প তেমন কিছুই করেননি বলেও অভিযোগ করেন বাইডেন।

ফক্স নিউজের ক্রিস ওয়ালেসের সঞ্চালনায় এদিন সুপ্রিম কোর্টের মনোনয়ন, করোনাভাইরাস মহামারি, বর্ণবাদ, জলবায়ু পরিবর্তন ও মেইলের মাধ্যমে ভোটদান নিয়ে বিতর্ক করেছেন ট্রাম্প ও বাইডেন।

মহামারি নভেল করোনাভাইরাস নিয়ে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন বলেন, ‘ট্রাম্পের কোনো পরিকল্পনা নেই। তিনি কিছুই করেননি।’ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এ খবর জানিয়েছে।

এদিকে করোনাভাইরাস ইস্যুতে বিতর্কের এক পর্যায়ে ট্রাম্প বলেন, বাইডেন ক্ষমতায় থাকলে ‘১০ লাখের বেশি’ মানুষের মৃত্যু হতো। এছাড়া বাইডেনকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করে ট্রাম্প বলেন, আপনি খুব একটা স্মার্ট নন, জো। বাইডেনও এসময় ট্রাম্পকে আপনি চুপ করবেন বলে থামানোর চেষ্টা করেন।
বিতর্কে ট্রাম্পের ট্যাক্স দেয়ার বিষয়টিও সামনে আসে। সঞ্চালক ওয়ালেস ট্রাম্পকে এ বিষয়ে জিজ্ঞাসা করলে তিনি বলেন, আমি লাখ লাখ ডলার ট্যাক্স দিয়েছি। যদিও কয়েকদিন আগে নিউইয়র্ক টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৬ ও ২০১৭ সালে মাত্র ১৫০০ ডলার ট্যাক্স দিয়েছেন ট্রাম্প। এমনকি গত ১৫ বছরের মধ্যে ১০ বছরই ট্যাক্স দেননি ট্রাম্প বলেও দাবি করা হয় নিউইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনে।

বিতর্কের ঘণ্টাখানেক পার হওয়ার পর পরিস্থিতি এমন দাঁড়ায়, বিতর্কের সঞ্চালক ফক্স টিভির সাংবাদিক ক্রিস ওয়ালেস দু’জনকে বাদানুবাদ থামাতে গিয়ে বলেন, বাদানুবাদ কম হলেই দেশ ভালো চলবে। যথারীতি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকেই বেশিবার থামাতে হয়েছে ওয়ালেসের।
যুক্তরাষ্ট্রে প্রতিবার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে প্রার্থীদের মধ্যে বিতর্ক অনুষ্ঠিত হয়। সেই হিসেবে আগামী ৩ নভেম্বর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে যে তিনটি বিতর্ক অনুষ্ঠিত হচ্ছে বুধবারেরটি ছিল তার প্রথম। ১৫ অক্টোবর দ্বিতীয় এবং ২২ অক্টোবর তৃতীয় প্রেসিডেন্সিয়াল বিতর্ক অনুষ্ঠিত হবে। আর ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স ও সিনেটর কমলা হ্যারিসের মধ্যে ভাইস প্রেসিডেন্সিয়াল বিতর্ক আগামী ৭ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হবে। সূত্র : বিবিসি

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন